শনিবার, ১৩ আগস্ট ২০২২, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৪ মুহাররম ১৪৪৪

খেলাধুলা

ম্যাককালামের নতুন ইংল্যান্ডের দুর্দান্ত শুরু

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৬ জুন, ২০২২, ১২:০১ এএম

অ্যাশেজে বিধ্বস্ত হওয়ার পর ওয়েস্ট ইন্ডিজে হেরে আসায় অনেক পরিবর্তনই এসেছে ইংল্যান্ড দলে। নতুন কোচের সঙ্গে নতুন অধিনায়কও দেখতে পায় দলটি। তাতে ফলাফলটাও পেয়েছে হাতে-নাতে। নতুন কোচ ব্রান্ডন ম্যাককালাম ও অধিনায়ক বেন স্টোকস জুটির প্রথম ম্যাচেই জয় পেয়েছে ইংলিশরা। যদিও জয়টা এসেছে পুরনো অধিনায়ক জো রুটের হাত ধরেই। গতকাল ইংল্যান্ডের লর্ডসে সিরিজের প্রথম টেস্টের চতুর্থ দিনে এসে ৫ উইকেটের জয় পেয়েছে ইংল্যান্ড। নিউজিল্যান্ডের দেওয়ার ২৭৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পাঁচ সেশন যাতে রেখেই জয় পায় দলটি। নয় টেস্টে জয়বিহীন থাকার পর অবশেষে জয়ের স্বাদ পেল তারা।
অথচ নিজেদের প্রথম ইনিংসে দুই দলই ধুঁকছিল। ১৩২ রানে নিউজিল্যান্ড অলআউট হওয়ার পর ইংলিশরা গুটিয়ে যায় ১৪১ রানে। দ্বিতীয় ইনিংসে অবশ্য ডেরিল মিচেল ও টম ব্লান্ডেলের জুটিতে ঘুরে দাঁড়িয়েছিল কিউইরা। তবে অভিজ্ঞ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রডের এক ওভারে ফের ধস নামে সফরকারী শিবিরে। ২৭৬ রানের বেশি লিড নিতে পারেনি দলটি। আর লক্ষ্য তাড়ায় ব্যাট করতে জয়ের পথটা অবশ্য আগের দিনই করে রেখেছিল ইংল্যান্ড। ৫ উইকেট হারিয়ে স্কোরবোর্ডে ২১৬ রান জমা করে দলটি। এদিন ব্যাটিংয়ে নেমে বাকি কাজ সহজেই সারেন আগের দিনের দুই অপরাজিত ব্যাটার রুট ও বেন ফোকস। দুই ব্যাটার ষষ্ঠ উইকেটে গড়েন অবিচ্ছিন্ন ১২০ রানের জুটি।
টেস্ট ক্যারিয়ারের ২৬তম সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে ১১৫ রানে অপরাজিত থাকেন রুট। ১৭০ বল মোকাবেলা করে ১২ টি চারের সাহায্যে নিজের ইনিংস সাজান তিনি। তাকে দারুণ সঙ্গ দিয়ে ৩২ রান করে অপরাজিত থাকেন ফোকস। ৯২ বলে ৩টি চারের সাহায্যে এ রান করেন এ উইকেটরক্ষক-ব্যাটার। একই দিনে আরও একটি নতুন মাইলফলক ছুঁয়েছেন রুট। ক্যারিয়ারে পূর্ণ করেছেন ১০ হাজার রানের কোটা। দ্বিতীয় ইংলিশ খেলোয়াড় হিসেবে ১০ হাজারি ক্লাবে ঢুকলেন রুট। আর সবমিলিয়ে ক্রিকেটের ইতিহাসের ১৪তম খেলোয়াড় তিনি। তবে সময়ের হিসেবে কীর্তিতে দ্রুততম সদ্য সাবেক হয়ে যাওয়া ইংল্যান্ড অধিনায়কই।
২০১২ সালের ১৩ ডিসেম্বর রুটের অভিষেক থেকে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে লর্ডস টেস্ট শুরুর দিন পর্যন্ত সময় ব্যবধান ৯ বছর ১৭১ দিন। দ্রুততম সময়ে ১০ হাজার রানের ক্ষেত্রে রুট ভাঙলেন অ্যালিস্টার কুকের কীর্তি। সাবেক ইংল্যান্ড অধিনায়কের লেগেছিল ১০ বছর ৮৭ দিন। ১০ হাজার রানের মাইলফলক ছোঁয়ার সময় রুটের বয়স ছিল ৩১ বছর ১৫৭ দিন। ২০১৬ সালে এ রেকর্ড ছোঁয়ার সময় কুকেরও বয়স ছিল একই—৩১ বছর ১৫৭ দিন। ১০ হাজার রানের কীর্তিতে দুজন তাই এখন যৌথভাবে সর্বকনিষ্ঠ। ইনিংসের হিসেবে অবশ্য এ রেকর্ডে বেশ পিছিয়ে রুট। এ ক্ষেত্রে ১৯৫ ইনিংস লেগেছিল তিনজনের- ব্রায়ান লারা, শচীন টেন্ডুলকার ও কুমার সাঙ্গাকারা। তবে লারার লেগেছিল ১১১ ম্যাচ। রুটের লাগল ২১৮ ইনিংস ও ১১৮ ম্যাচ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন