বৃহস্পিতবার, ১৮ আগস্ট ২০২২, ০৩ ভাদ্র ১৪২৯, ১৯ মুহাররম ১৪৪৪

সারা বাংলার খবর

ফুলপুরে সাবেক স্বামী ও তার বন্ধুদের বিরুদ্ধে গণধর্ষণের অভিযোগ, গ্রেফতার-৩

ফুলপুর (ময়মনসিংহ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৭ জুন, ২০২২, ৪:৩২ পিএম

ময়মনসিংহের ফুলপুরে সাবেক স্ত্রীকে বন্ধুদের নিয়ে রাতভর গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে সাবেক স্বামী মাসুদ রানা ওরফে মাসুদ মিয়ার বিরুদ্ধে। এ ব্যাপারে বৃহস্পতিবার রাতে থানায় মামলা হলে পুলিশ গণধর্ষণের অভিযোগে সাবেক স্বামীসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে।

জানা যায়, ফুলপুর উপজেলার মাটিচাপুর গ্রামের আব্দুর রাজ্জাকের মেয়ে লিমার (ছদ্মনাম) সাথে অনুমান ৩ বছর পূর্বে ফুলপুর পৌরসভার দিউ গ্রামের রজব আলীর পুত্র মাসুদ রানা ওরফে মাসুদ মিয়ার বিয়ে হয়। বিবাহের পর তাহারা স্বামী-স্ত্রী হিসাবে ঘর সংসার করা অবস্থায় তাহাদের ০১ ছেলে সন্তান হয়। তাওহীদ হাসান মানিক নামে ছেলের বয়স ২ বছর ৬ মাস। অনুমান ১ বছর পূর্বে স্বামী মাসুদ রানা তার স্ত্রী লিমাকে (ছদ্মনাম) মারধর করিয়া ছেলেকে রেখে তালাক প্রদান করে। তালাক দেয়ার পর স্ত্রী ঢাকায় চলে যায় এবং বিভিন্ন লোকের বাসায় কাজ করিয়া ছেলের জন্য সাবেক স্বামী মাসুদ রানাকে প্রতি মাসে ৫ হাজার টাকা করে দেয়। কয়েকদিন আগে মাসুদ রানা লোকমারফত সংবাদ দেয় তাহার ছেলে তাওহীদ অসুস্থ্য। উক্ত সংবাদ পেয়ে ছেলের মা ঢাকা হতে ১১ জুন রাত অনুমান ৭.৫০ টায় সাবেক স্বামী মাসুদের বাসায় আসে। তখন মাসুদ সন্তানকে না দেখাইয়া সাবেক স্ত্রীকে রাত ৮ টার সময় আমুয়াকান্দা বাজারের জনৈক রফিকের ভাড়াটিয়া বাসায় নিয়া যায়। সেখানে নিয়ে মাসুদ রানা ওরফে মাসুদ মিয়া তার ৩ বন্ধুকে নিয়ে রাতভর সাবেক স্ত্রী লিমাকে (ছদ্মনাম) জোরপূর্বক পালাক্রমে ধর্ষণ করে।অতঃপর পালাক্রমে ধর্ষণের পর একই রাত শেষে ভোর অনুমান ০৫ ঘটিকার সময় রফিকের ভাড়াটিয়া বাসায় সাবেক স্ত্রীকে ফেলে রেখে সাবেক স্বামী মাসুদ রানা ওরফে মাসুদ মিয়া ও তার ৩ বন্ধু চলিয়া যায়। পরে ভুক্তভোগী সাবেক স্ত্রী তাকে গণধর্ষণের অভিযোগ এনে সাবেক স্বামী মাসুদ রানা ও তার তিন বন্ধুর বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার রাতে ফুলপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন (সং/০৩) এর ৯(৩) ধারায় মামলা দায়ের করেন। সাথে সাথে পুলিশ অভিযান চালিয়ে পালাক্রমে গণধর্ষণের অভিযোগে সাবেক স্বামী মাসুদ রানা ওরফে মাসুদ মিয়া (২৫), তার বন্ধু কাড়াহা গ্রামের মিরাজ আলীর ছেলে মোঃ জজ মিয়া (৩৭) ও জাগির কাজিয়াকান্দা গ্রামের রহিছ উদ্দিনের পুত্র আমিনুল ইসলাম (৩২)কে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃতদের শুক্রবার আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।
ফুলপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ভুক্তভোগী নারী সাবেক স্বামী ও তার বন্ধুদের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছেন। সাবেক স্বামীসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদালতে পাঠানো হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন