শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২, ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯, ১৩ মুহাররম ১৪৪৪

জাতীয় সংবাদ

পদ্মা সেতুতে ঈদের আগে চলবে না মোটরসাইকেল

সাংবাদিকদের মন্ত্রিপরিষদ সচিব

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৪ জুলাই, ২০২২, ১২:০০ এএম

পবিত্র ঈদুল আজহার আগে পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে মোটরসাইকেল চলাচল চালু না হওয়ার আভাস দিয়েছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম। দেশে উৎপাদিত দুধ সংরক্ষণে প্রতি জেলায় সংরক্ষণাগার তৈরি করার সম্ভাব্যতা যাচাই বিধান যুক্ত করে ‘বাংলাদেশ ডেইরি উন্নয়ন বোর্ড আইন, ২০২২-এর নীতিগত অনুমোদনের নিয়েছে মন্ত্রিসভা। গতকাল রোববার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে ভার্চ্যুয়াল মন্ত্রিসভা বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান তিনি। পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খুলে টিকটক ভিডিও বানিয়ে ভাইরাল হওয়া যুবক পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছেন। সেতুর ঢিলে নাট-বল্টু নিয়ে হয়েছে নানা আলোচনা-সমালোচনা।

ঈদের আগে পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে মোটরসাইকেল চালু হচ্ছে কি না এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, এটা নিয়ে তারা (কর্তৃপক্ষ) কাজ করছেন। পদ্মা সেতুতে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সসহ ক্যামেরা বসবে। স্পিডগানও বসানো হচ্ছে। এগুলো বসলে তারপর তারা কম্পোর্ট অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেবেন, কী করা যায়। এটা ঈদের আগে হবে কি না অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ঈদের আগে হওয়া খুব ডিফিকাল্ট। আমার মনে হচ্ছে, ঈদের আগে হবে বলে মনে হয় না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত ২৫ জুন দেশের সবচেয়ে বড় প্রকল্প পদ্মা সেতু উদ্বোধন করে। উদ্বোধনের পরদিন থেকে যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হয়। কিন্তু দুর্ঘটনায় ওই দিন দুই মোটরসাইকেল আরোহী মারা যায়। পরে ২৭ জুন থেকে পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়।

সচিব বলেন, স্ক্রুু খোলার কথাটা আসছে, ইন্টারন্যাশনাল স্ট্যান্ডার্ডে আমাদের যে ওয়ালটুকু আছে অতটুকু দিয়েই গাড়ি চলে। কিন্তু আমাদের রোডস অ্যান্ড হাইওয়ের স্ট্যান্ডার্ড চার ফুট। সে জন্য আরো এক ফুট উঁচু করে রেলিং দেয়া হয়েছে। এটা মানুষের সেফটির জন্য নয়, এটা আমাদের স্ট্যান্ডার্ডটাকে কাভার করার জন্য। দুই-তিন মাস আগে আমি এবং পদ্মার কয়েকজন কনসালট্যান্ট ও পিডিসহ লেটেস্ট সবচেয়ে বড় ব্রিজ যেটা কুয়েতে উদ্বোধন করা হয়েছে, সেটা সাগরের মধ্যে ৩৬ কিলোমিটার, তা আমরা দেখে এলাম, আমাদের যেটুকু ওয়াল ওদের অতটুকু গ্রিল দিয়ে প্রটেকশন দিয়েছে। ক্যান ইউ ইমাজিন দিস! সাগরের মাঝে যদি কোনো কারণে, আমাদের তো ওয়ালের মধ্যে গাড়ি ধাক্কা খেলে ফেরত আসবে। কিন্তু ওরা গ্রিল দিয়ে প্রটেকশন দিয়েছে। ওদের প্রটেকশনটা আমাদের ওয়াল যতটুকু ততটুকুই।

খন্দকার আনোয়ারুল বলেন, পদ্মা সেতুর উদ্বোধনের দিন বিকেলে কোরিয়ান এক্সপ্রেস করপোরেশন টেকওভার করেছে, পরের দিন থেকে তারা টোল ম্যানেজমেন্ট ও মেইনটেন্যান্স দেখবে। কোরিয়ান এক্সপ্রেস করপোরেশন হলো ওয়ার্ল্ডের বেস্ট কোম্পানি, যারা হাইওয়ে ও ব্রিজ ম্যানেজমেন্ট করে। ওরা ১৭ কিলোমিটার দীর্ঘ ইনচেন ব্রিজের ডিজাইনার ও টোল ম্যানেজমেন্ট করে। ওদের ওই ব্রিজে লোকজন হাঁটতে পারে না। এখন তারা অডিট করবে। প্রত্যেকটা জয়েন্ট আছে, নাট আছে। অডিট করে নিজেরা ঠিক করতে পারে, টাইট করে দেবে। সুতরাং বিভিন্ন জায়গায় যে কনফিউশন আছে, এটার সঙ্গে সেফটি-সিকিউরিটির কোনো সম্পর্ক নেই।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় থেকে বাংলাদেশ ডেইরি উন্নয়ন বোর্ড আইন, ২০২২-এর নীতিগত অনুমোদনের জন্য নিয়ে আসা হয়। এটার উদ্দেশ্য হলো আমাদের দেশে গরু বা ছাগলের যে পরিমাণ দুধ উৎপাদন হয়, সেগুলো মনিটরিং করা হচ্ছে না, কোয়ালিটি এনশিওর করা হচ্ছে না বা টেকনিক্যাল সাপোর্ট আমরা দিতে পারছি না।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, নতুন পারিবারিক আদালত আইন, ২০২২-এর খসড়া চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। বৈঠকে আইন ও বিচার বিভাগের উপস্থাপন করা এ আইনের খসড়া অনুমোদন দেয়া হয়। তিনি বলেন, আগের আইনটি সামরিক শাসনামলের। ১৯৮৫ সালে একটি ফ্যামিলি কোর্ট অর্ডিন্যান্স হয়, সেই অর্ডিন্যান্সে পারিবারিক বিষয়গুলো দাম্পত্য কলহ, তালাক, ম্যারেজ রেস্টোরেশন, শিশুদের ভরণপোষণÑ এ বিষয়গুলো ছিল। এর আগে এ বিষয়গুলো ফৌজদারি কার্যবিধির ৪(৮৮)-তে বিবেচ্য হতো। হাইকোর্টের বিধিবিধান অনুযায়ী এটিকে সামরিক শাসনামলের অধ্যাদেশ আইনে পরিণত করতে হবে। এ আইনের খসড়াটি নিয়ে আসা হয়েছে।
মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, আগে যেটা ছিল মোটামুটি সেটাই আছে। এখানে ৩১টি ধারা আছে। বিবাহবিচ্ছেদ, দম্পত্য অধিকার পুনরুদ্ধার, দেনমোহর, ভরণপোষণ এবং শিশু সন্তানদের অভিভাবকত্ব ও তত্ত্বাবধান সংক্রান্ত বিষয়গুলো এ আদালত বিবেচনায় নেবে। একটাই মূল পরিবর্তন আনা হয়েছে। সেটা হলো আগে ছিল যে আদালতে রায় হবে সেটার আপিল কর্তৃপক্ষ ছিলেন জেলা জজ। এখান সংশোধন এনে বলা হচ্ছে, জেলাপর্যায়ে আরো জজ আছেন, নারী-শিশু বা শ্রম আদালত। শুধু জেলা জজ বললে তার ওপর একটু বেশি চাপ পড়ে যায়। সরকার যদি মনে করে কোনো জেলাতে আপিলের জন্য অতিরিক্ত মামলা আছে, সেক্ষেত্রে জেলা জজ পর্যায়ের অন্যান্য যে জজরা রয়েছেন, তাদেরও আপিল আদালত হিসেবে বিবেচনা করা যাবে।

খন্দকার আনোয়ারুল বলেন, আবার মামলার ক্ষেত্রে ফি যেটা ৫০ টাকা ছিল, সেটাকে ২০০ টাকা করা হয়েছে। কারণ ১৯৮৫ সালে কোর্টে মামলা করলে ৫০ টাকা দিতে হতো। যদিও বাড়িয়ে এখন যেটা করা হয়েছে, সেটাও অনেক কম। কারণ বেশিরভাগ ক্ষেত্রে একটু অসহায় মেয়েরা এসে মামলা দায়ের করে সেটা বিবেচনা করে ফি বাড়ানো হয়নি। খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, বাংলাদেশি কূটনৈতিক ও অফিসিয়াল পাসপোর্টধারীদের ব্রাজিলে ভিসা অব্যাহতি সংক্রান্ত চুক্তির প্রস্তাবে সায় দিয়েছে মন্ত্রিসভা। তিনি বলেন, বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের মধ্যে ইমিডিয়েটলি একটা চুক্তি স্বাক্ষর হবে। যে কূটনীতিক এবং অফিসিয়াল কর্মকর্তা-কর্মচারীরা যারা দেশটি ভ্রমণ করবে। তারা যেন ভিসা ছাড়া অন অ্যারাইভাল ভিসাতে ভ্রমণ করতে পারেন। বিষয়টিতে কেবিনেট সায় দিয়েছে। চলতি সপ্তাহেই এই চুক্তি সই করতে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম ব্রাজিল সফর করবেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন