মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯, ১০ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

পদত্যাগ করতে বলায় সিনিয়র মন্ত্রীকে বরখাস্ত করলেন জনসন

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৭ জুলাই, ২০২২, ৯:৫৮ এএম

যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনকে পদত্যাগ করতে বলার পর সিনিয়র একজন ব্রিটিশ মন্ত্রীকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এতে করে যুক্তরাজ্যের রাজনৈতিক সংকট আরও গভীর হয়েছে।
বর্তমান ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর প্রতি অনাস্থা জানিয়ে একে পর এক মন্ত্রীর সরে যাওয়ার মধ্যেই বরিস জনসনের ‘ডান হাত’ হিসেবে খ্যাত সিনিয়র ওই মন্ত্রীকে বরখাস্ত করা হলো। বৃহস্পতিবার (৭ জুলাই) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে বার্তাসংস্থা এএফপি এবং সংবাদমাধ্যম বিবিসি।
প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সদ্য বরখাস্তকৃত যুক্তরাজ্যের ওই মন্ত্রীর নাম মাইকেল গোভ। তিনি বরিস জনসন সরকারের গৃহায়ন, সম্প্রদায় এবং স্থানীয় সরকার বিষয়ক মন্ত্রী ছিলেন। এছাড়া ব্রেক্সিট বাস্তবায়নে তিনি জনসনের ডান হাত হিসেবেও পরিচিত ছিলেন।
সদ্য সাবেক এই মন্ত্রী বুধবার জনসনকে পদত্যাগ করার আহ্বান জানিয়েছিলেন। পরে তাকে বরখাস্ত করেন বরিস জনসন। শুধু তাই নয়, জনসনের ঘনিষ্ঠ এই সহযোগীকে সাপ হিসেবেও আখ্যায়িত করা হয়।
বিবিসি’র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১০ ডাউনিং স্ট্রিট সূত্র বলছে, সাপকে কখনো সঙ্গে রাখা যায় না যে কি না বড় ধরনের কোনো সমস্যায় আপনার পাশেই থাকবে না। শুধু তাই নয়, তিনিই আবার গণমাধ্যমকে আনন্দের সঙ্গে বলেন, আপনার (ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের) সরে দাঁড়ানো উচিত।
সংবাদমাধ্যম বলছে, মাইকেল গোভ ব্রিটেনের ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ পার্টির একজন প্রভাবশালী নেতা হিসেবে পরিচিত। ২০১০ সাল থেকে তিনি কনজারভেটিভ সরকারের শিক্ষামন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। পরে তাকে গৃহায়ন, সম্প্রদায় এবং স্থানীয় সরকার বিষয়ক মন্ত্রীর দায়িত্ব দেওয়া হয়।
এছাড়াও তিনি দলের গুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন দায়িত্বও পালন করেছেন। ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেনকে বের করে আনা বা ব্রেক্সিট বাস্তবায়নে বরিস জনসনের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজও করেছিলেন মাইকেল গোভ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন