বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

‘মানুষের জীবন যাত্রা আরও দুর্বিষহ হয়ে পড়বে’

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে রাজধানীতে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৮ আগস্ট, ২০২২, ১২:০০ এএম

জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধি সরকারের হটকারি সিদ্ধান্ত ও জাতির সঙ্গে প্রতারণা। জ্বালানি খাতে সরকারের ভ্রান্ত নীতি, অদক্ষতা ও লাগামহীন দুর্নীতির কারণে এই সঙ্কটময় পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। এতে মানুষের জীবন যাত্রা আরও দুর্বিষহ হয়ে পড়বে। জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে গতকাল রাজধানীতে আয়োজিত বিভিন্ন দল ও সংগঠনের বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা এ সব কথা বলেন।
জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করে জাতীয় মুক্তি কাউন্সিল। এতে নেতারা বলেন, জ্বালানি খাতে সরকারের ভ্রান্ত নীতি, অদক্ষতা ও লাগামহীন দুর্নীতির কারণে আজকের পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। আইএমএফের ঋণ পাওয়ার শর্ত পূরণে সরকার জ্বালানি তেলের দাম বাড়িয়েছে। এর ফলে জনগণের সঞ্চয় ও সম্পদ এখন রাষ্ট্রের নিয়ন্ত্রণে চলে যাবে।
সমাবেশে জাতীয় মুক্তি কাউন্সিলের নেতারা বলেন, আন্তর্জাতিক বাজারে জ্বালানি তেলের দাম কমতে শুরু করেছে। কিন্তু সরকার জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি করে জনগণের স্বার্থ জলাঞ্জলি দিয়েছে। এই মূল্যবৃদ্ধির টাকা লুটেরা ব্যবসায়ী ও রাজনীতিকদের পকেটে চলে যাবে। এ সময় বক্তারা বলেন, সরকার এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনকে পাশ কাটিয়ে একতরফা মূল্যবৃদ্ধির ঘোষণা দিয়েছে। বিগত বছরগুলোতে আন্তর্জাতিক বাজারে জ্বালানি তেলের দাম যখন কম ছিল, সে সময় সরকার কয়েক বছরে ৪৭ হাজার কোটি টাকা মুনাফা করেছিল। এই লাভের অংশ দিয়েই সমন্বয় করা যেত। কিন্তু সরকার সে পথে হাঁটেনি। জ্বালানি তেলের এই লাগামহীন মূল্যবৃদ্ধির প্রতিক্রিয়া দেশের অর্থনীতিতে এক ভয়াবহ বিরূপ প্রভাব ফেলবে।

সমাবেশে বক্তব্য দেন জাতীয় মুক্তিকাউন্সিলের সম্পাদক ফয়জুল হাকিম, বাংলাদেশ লেখক শিবিরের সাধারণ সম্পাদক কাজী ইকবাল, বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশনের সভাপতি মিতু সরকার, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সাংগঠনিক সম্পাদক অমল ত্রিপুরা। সমাবেশ পরিচালনা করেন জাতীয় মুক্তি কাউন্সিলের সংগঠক হেমন্ত দাস।
জ্বালানি তেলের অস্বাভাবিক মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সমাবেশ করে বাম গণতান্ত্রিক জোট। বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি সিপিবির সভাপতি কমরেড শাহ আলমের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সহকারি সাধারণ সম্পাদক রাজেকুজ্জামান রতন। সমাবেশ সঞ্চালনা করেন গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির নেতা শহীদুল ইসলাম সবুজ। নেতৃবৃন্দ বলেন, জ্বালানি তেলের মূল্যবৃদ্ধির ফলে জনজীবনে চরম দুর্দশা নেমে আসবে। তারা অবিলম্বে এই গণবিরোধী সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানান।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন