রোববার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ১৭ আশ্বিন ১৪২৯, ০৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

সুইডেন ও ফিনল্যান্ড প্রতিশ্রুতি পূরণ করেনি: তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ আগস্ট, ২০২২, ৬:৪৪ পিএম

তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত কাভুসোগলু গতকাল (বৃহস্পতিবার) বলেছেন, সুইডেন ও ফিনল্যান্ড এখনও ন্যাটোতে যোগদানের প্রশ্নে তার দেশকে দেওয়া প্রতিশ্রুতি পূরণের জন্য যথেষ্ট পদক্ষেপ নেয়নি।

তুর্কি মিডিয়ার প্রতিবেদন অনুযায়ী, কাভুসোগলু এদিন আঙ্কারায় এক বৈঠকে আরও বলেন, আঙ্কারা চায় ন্যাটোতে যোগদানের বিষয়ে তুরস্কের সাথে স্বাক্ষরিত স্মারকলিপিতে দেওয়া প্রতিশ্রুতি এই দুটি দেশ পূরণ করুক। কেন এখনও প্রতিশ্রুতি পূরণ করা হয়নি, তাও জানতে চায় তুরস্ক। উল্লেখ্য, তুরস্ক, সুইডেন ও ফিনল্যান্ডের প্রতিনিধিরা স্মারকলিপি বাস্তবায়নের বিষয়ে চলতি মাসের ২৬ তারিখে বৈঠকে বসবেন বলে জানা গেছে।

এদিকে ন্যাটো জোটে যোগদানের দিকে বুধবার আরো একধাপ এগিয়েছে ফিনল্যান্ড এবং সুইডেন। এই সংক্রান্ত অনুমোদনপত্রে সই করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। অনুমোদনপত্র সই করে বাইডেন জানিয়েছেন, উত্তর ইউরোপীয় দুই দেশের অন্তর্ভুক্তি ন্যাটোকে ‘শক্তিশালী, নির্ভরযোগ্য ও সক্ষম’ করে তুলবে। সুইডেন ও ফিনল্যান্ডের প্রশংসা করে বাইডেন জানিয়েছেন, পুতিন ভেবেছিলেন যে, তিনি আমাদের আলাদা করতে পারেন, কিন্তু এই দুটি দেশে ‘শক্তিশালী গণতান্ত্রিক প্রতিষ্ঠান, শক্তিশালী সামরিক বাহিনী এবং শক্তিশালী ও স্বচ্ছ অর্থনীতি’ রয়েছে যা ন্যাটোকে সমৃদ্ধ করবে।

গত সপ্তাহে, মার্কিন সিনেট বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী সামরিক জোটে ফিনল্যান্ড এবং সুইডেনের প্রবেশের অনুমোদনের জন্য ৯৫-১ ভোট দিয়েছে। মে মাসে ইউক্রেনে রাশিয়ার যুদ্ধের পটভূমিতে উভয় দেশ ন্যাটোতে আবেদন করার আনুষ্ঠানিক প্রক্রিয়া শুরু করে। মস্কো, ন্যাটো জোটে দুই দেশের যোগদানের পরিকল্পনার বিরোধিতা করেছে। ফিনল্যান্ড এবং সুইডেন উভয়ই ইতিমধ্যে ন্যাটো সদস্য হওয়ার জন্য অনেক প্রয়োজনীয় শর্ত পূরণ করেছে। যার মধ্যে রয়েছে গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক ব্যবস্থা, অর্থনৈতিক স্বচ্ছতা প্রদানের ইচ্ছা এবং ন্যাটো মিশনে সামরিক অবদান রাখার ক্ষমতা।

তবে বাইডেনের স্বাক্ষরের পরে চেক প্রজাতন্ত্র, গ্রীস, হাঙ্গেরি, পর্তুগাল, স্লোভাকিয়া, স্পেন এবং তুরস্কের সরকারগুলিকে এখনও অনুমোদনপত্রে স্বাক্ষর করতে হবে। বাইডেন বলেছেন, ‘আমি বাকি মিত্রদের যত তাড়াতাড়ি সম্ভব অনুমোদনের প্রক্রিয়াটি সম্পূর্ণ করার জন্য অনুরোধ করছি, যাতে গোটা প্রক্রিয়াটি সেপ্টেম্বরের মধ্যে সম্পন্ন করা যায়। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ট্রান্সআটলান্টিক জোটে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।’ সূত্র: সিআরআই, রয়টার্স।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন