সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১ আশ্বিন ১৪২৯, ২৯ সফর ১৪৪৪

আন্তর্জাতিক সংবাদ

শিমলাকে রাজধানী করে স্বাধীন খালিস্তান রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার দাবি

খালিস্তানের পক্ষে কানাডিয়ান শিখদের ১,১০,০০০ ভোট

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১২:০০ এএম

নজিরবিহীন শক্তি প্রদর্শনীতে কানাডার এক লাখ ১০ হাজার শিখ খালিস্তান গণভোটের পক্ষে ভোট দিয়েছে। ওনতারিওর ব্রাম্পটনে অনুষ্ঠিত ওই গণভোটে শিমলাকে রাজধানী করে স্বাধীন খালিস্তান রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার দাবি জানানো হয়। খালিস্তানপন্থী অ্যাডভোকেসি গ্রুপ শিখস ফর জাস্টিস আয়েঅজিত এই গণভোটে বিশেষ প্রার্থনায় নেতৃত্ব দেন ধর্মীয় নেতা ভাই দলজিত সিং সেখন। তিনি ভাই হরজিন্দর সিং পার্থের ঘনিষ্ঠ সহযোগী। পার্থের নামেই ভোটকেন্দ্রটি উৎসর্গ করা হয়। ভোট দিতে আগ্রহ এতই বেশি ছিল যে বিকেল ৫টায় ভোটগ্রহণ বন্ধ হওয়ার সময় কয়েক কিলোমিটার বিস্তার লাভ করেছিল লাইনটি। স্থানীয় সময় রোববার সকাল ৯টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়। বেলা যতই বাড়তে থাকে স্বাধীন খালিস্তানের পক্ষে ভোটারের সংখ্যা ততই বৃদ্ধি পায়। আয়োজক সংগঠক এসএফজে জানিয়েছে, কানাডায় খালিস্তানের পক্ষে ভোট আগের সব রেকর্ড ভেঙে দিয়েছে। উল্লেখ্য, লন্ডনের ভোটে ৩০ হাজার শিখ অংশ নিয়েছিল। ইতালিতে এর চেয়ে অল্প কিছুসংখ্যক ভোটার কম উপস্থিত ছিল। জেনেভায় ১০ হাজারের কম ছিল উপস্থিতি। কানাডায় বর্তমানে প্রায় ১০ লাখ শিখ বসবাস করেন। তাদের মধ্যে খালিস্তান আন্দোলনের ব্যাপক প্রভাব রয়েছে। ভারত সরকার এই আন্দোলন নিয়ে বেশ কয়েক বছর ধরেই সমস্যায় রয়েছে। এ নিয়ে ভারত ও কানাডা সরকারের মধ্যে কূটনৈতিক দ্বন্দ্বও দেখা দিয়েছে। কানাডা সরকার খালিস্তান গণভোট আয়োজন থেকে এসএফজেকে বিরত রাখার অনুরোধ প্রত্যাখ্যান করে জানায়, তারা যত দিন আইন মেনে চলবে, তত দিন তাদের মতামত প্রকাশ করতে দেয়া হবে। গণভোটে অংশগ্রহণকারীরা জানায়, ভারতীয় পাঞ্জাব শিগগিরই স্বাধীন দেশ হিসেবে বিশ্ব মানচিত্রে আত্মপ্রকাশ করবে। ভারত বন্দুকের মুখে স্বাধীনতার অধিকার থেকে তাদের বঞ্চিত করতে পারবে না। দি নিউজ ইন্টারন্যাশনাল।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (5)
Mst Hasnat Jahan Lima ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১০:৫৫ এএম says : 0
পাঞ্জাব স্বাধীন হলে ৫ বছরে সিঙ্গাপুর বা ইউরোপের দেশ গুলোর মতো উন্নত দেশ হবে।
Total Reply(0)
Siraj Haque ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১০:৫৩ এএম says : 0
প্রকৃত অর্থে ভারত কোন দেশের নাম নয় এটা একটা জোটভুক্ত ইউনিয়ন। স্বাধীন রাজ্য সমুহের মধ্যে কতিপয় রাজ্য স্বইচ্ছায় যোগ দিয়েছে আর কতিপয় স্বাধীন রাজ্যের জনগনের ইচ্ছার বিরুদ্ধে তাদেরকে জোর করে দখল করা হয়েছে এছাড়াও ১৯৫৫ সালে স্বাধীন রাষ্ট্র নাগাল্যান্ড এবং ১৯৭৪ সালে সিকিম দখল করে নেয়া হয়েছে। এখন পর্যন্ত ১২ টা রাজ্যের মুক্তিকামী জনগন তাদের স্বাধীনতার দাবীতে স্বশস্ত্র সংগ্রাম করছে। স্বাধীনতা একটা জাতীর জন্য কতটা গুরুত্বপূর্ন আমরা বাংলাদেশীরা সেটা বুঝি, বিশ্বের সকল স্বাধীনতাকামিদের প্রতি থাকবে আমাদের সমর্থন। আজ হোক আর কাল হোক মুক্তিযোদ্ধাদের জয় হোক।
Total Reply(0)
salman ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৬:০৯ এএম says : 0
Amra o Sadhin KHALISTAN er pokkhe
Total Reply(0)
Nazirul Islam ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১০:৫৫ এএম says : 0
ভারত সরকার এই আন্দোলন নিয়ে বেশ কয়েক বছর ধরেই সমস্যায় রয়েছে। এ নিয়ে ভারত ও কানাডা সরকারের মধ্যে কূটনৈতিক দ্বন্দ্বও দেখা দিয়েছে। কানাডা সরকার খালিস্তান গণভোট আয়োজন থেকে এসএফজেকে বিরত রাখার অনুরোধ প্রত্যাখ্যান করে জানায়, তারা যত দিন আইন মেনে চলবে, তত দিন তাদের মতামত প্রকাশ করতে দেয়া হবে। গণভোটে অংশগ্রহণকারীরা জানায়, ভারতীয় পাঞ্জাব শিগগিরই স্বাধীন দেশ হিসেবে বিশ্ব মানচিত্রে আত্মপ্রকাশ করবে। ভারত বন্দুকের মুখে স্বাধীনতার অধিকার থেকে তাদের বঞ্চিত করতে পারবে না।
Total Reply(0)
jack ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১০:১৭ পিএম says : 0
ভারত যেভাবে কাশ্মীরে গণহত্যা করে হায়দারাবাদে গণহত্যা করে দখলে নিয়েছে খালিস্থান দখলে নিয়েছে সেভেন সিস্টার দখলে নিয়েছে গোয়া>>> এদের উচিত সরকারের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে নিজেদের দেশকে স্বাধীন করা যেভাবে আমরা পাকিস্তানের কাছ থেকে আমাদের দেশ স্বাধীন করেছিলাম
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন