ঢাকা, শনিবার, ৩০ মে ২০২০, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০৬ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ইউরোপীয় ইউনিয়নে যোগ দিতে চায় বসনিয়া-হার্জেগোভিনা

প্রকাশের সময় : ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ইউরোপীয় ইউনিয়নে যোগ দিতে চায় বসনিয়া-হার্জেগোভিনা। এজন্য তারা আনুষ্ঠানিকভাবে আবেদনও জমা দিয়েছে। ২৮-জাতির এই জোটে যোগ দিতে হলে দেশটিকে ব্যাপক সংস্কার ও আলাপ-আলোচনা/দর কষাকষির মধ্য দিয়ে যেতে হবে। এ খবর জানিয়েছে বিবিসি ও বার্তা সংস্থা এএফপি। নব্বইয়ের দশকে যুগোস্লাভিয়ার ভাঙনের ফলে গড়ে ওঠে বসনিয়া-হার্জেগোভিনা। দেশটি গড়ে উঠতে প্রায় তিন বছরের সংঘর্ষে লক্ষাধিক মানুষ প্রাণ হারিয়েছে। এর প্রায় দুই দশক পরে এসে ইউরোপীয় ইউনিয়নে যোগদানের আনুষ্ঠানিক আবেদন জানালো দেশটি। বসনিয়ার ত্রিপক্ষীয় প্রেসিডেন্সির চেয়ারম্যান ড্রাগান কোভিচ এই আবেদনপত্র জমা দেন ইউরোপীয় ইউনিয়নের ছয় মাস মেয়াদের প্রেসিডেন্সি দায়িত্বে থাকা নেদারল্যান্ডের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বার্ট কোয়েনডারের কাছে। ইইউয়ের সদস্যপদ অর্জনের জন্য ড্রাগান কোভিচ আগামী কয়েক বছরে বেশ কিছু চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হবে বলে মনে করেন।
অন্যদিকে কোয়েনডার বসনিয়ার এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন। ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রনীতি প্রধান ফেদেরিকা মোঘেরিনি একে ইউরোপের ঐক্যের পথে একটি পদক্ষেপ হিসেবে মনে করছেন। মোঘেরিনি সাংবাদিকদের বলেন, এখন ইউরোপীয় ইউনিয়নের ভেতর থেকেই ইউনিয়ন নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। এমন সময়ে আমাদের প্রতিবেশী দেশ নিজেদের দেশ, সমাজ, অর্থনীতি, প্রতিষ্ঠান প্রভৃতিকে আমাদের মান অনুসরণ করে গড়ে তোলার আগ্রহ ও আকাক্সক্ষা প্রকাশ করছে। এই ঘটনা ইউরোপীয় ইউনিয়নের নাগরিকদের প্রতি আমাদের দায়িত্বশীলতাকে বোঝার সুযোগ করে দিয়েছে।
ইউনিয়নের সঙ্গে বসনিয়ার সংযুক্তিকে দেশটির দুর্বল অর্থনৈতিক অবস্থার উত্তরণের উপায় হিসেবে দেখা হচ্ছে। দুর্নীতির কারণে বিনিয়োগকারীরা দেশটি থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। এমন পরিচিতি থেকেও বেরিয়ে আসতে বসনিয়াকে সহায়তা করবে ইউরোপীয় ইউনিয়নে সংযুক্তি। গত বছরের মার্চে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও বসনিয়ার মধ্যে স্থিতিশীলতা ও জোটবদ্ধতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়, যা ২০০৮ সাল থেকে স্থগিত ছিল। এর ফলে বসনিয়ার ইইউয়ের সদস্যপদের আবেদনের পথ সুগম হয়েছে। বিবিসি, এএফপি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন