মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৯, ১০ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ডলারের আধিপত্যে চ্যালেঞ্জ তৈরি করছে রাশিয়া এবং চীন

নতুন রিজার্ভ মুদ্রা তৈরিতে প্রস্তুত

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৬ জুন, ২০২২, ১২:০০ এএম

মার্কিন ডলারের আধিপত্যের সম্ভাব্য চ্যালেঞ্জে রাশিয়া চীন এবং অন্যান্য ব্রিকস দেশগুলোর পাশাপাশি একটি নতুন বৈশ্বিক রিজার্ভ মুদ্রা বিকাশ করতে প্রস্তুত। প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন ইঙ্গিত দিয়েছেন যে, নতুন রিজার্ভ মুদ্রা গ্রুপের সদস্যদের মুদ্রার ঝুড়ির ওপর ভিত্তি করে হবে যার সদস্য ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চীন এবং দক্ষিণ আফ্রিকা।

‘আমাদের দেশের মুদ্রার বাস্কেটের ভিত্তিতে একটি আন্তর্জাতিক রিজার্ভ কারেন্সি তৈরির প্রশ্নটি পর্যালোচনাধীন রয়েছে’ পুতিন বুধবার ব্রিকস বিজনেস ফোরামে বলেছেন। ‘আমরা সকল ন্যায়সঙ্গত অংশীদারদের সাথে খোলামেলাভাবে কাজ করতে প্রস্তুত’।
ডলারকে দীর্ঘদিন ধরে বিশ্বের রিজার্ভ কারেন্সি হিসেবে দেখা হচ্ছে, কিন্তু আন্তর্জাতিক মুদ্রার রিজার্ভের ওপর এর আধিপত্য কমে যাচ্ছে। আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল অনুসারে কেন্দ্রীয় ব্যাংকগুলো তাদের হোল্ডিংগুলোকে ইউয়ানের মতো মুদ্রায়, সেইসাথে সুইডিশ ক্রোনা এবং দক্ষিণ কোরিয়ান ওয়ানের মতো অপ্রচলিত এলাকায় বৈচিত্র্য আনতে চাইছে।

আইএনজি-এর বিশ্ব বাজারের প্রধান ক্রিস টার্নার এক নোটে বলেছেন, ‘আইএমএফের অনুভূত মার্কিন আধিপত্য মোকাবেলার জন্য এটি একটি পদক্ষেপ’। ‘এটি ব্রিকস দেশগুলোকে এক্ষেত্রের মধ্যে তাদের নিজস্ব প্রভাব এবং মুদ্রা ঐক্য গড়ে তোলার অনুমতি দেবে’।
রাশিয়ার এ পদক্ষেপ ইউক্রেনের যুদ্ধের জন্য আরোপিত পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞাগুলো অনুসরণ করে, যা দেশটিকে বৈশ্বিক আর্থিক ব্যবস্থা থেকে বিচ্ছিন্ন করেছে, এর ডলারে অ্যাক্সেস হ্রাস করেছে এবং এর অর্থনীতিতে চাপ সৃষ্টি করেছে।

‘পশ্চিমা দেশগুলো এবং তাদের মিত্ররা যে গতিতে রাশিয়ার বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে (প্রায় অর্ধেক হিমায়িত) নিঃসন্দেহে রাশিয়ান কর্তৃপক্ষকে হতবাক করেছে’ আইএনজি টার্নার বলেছেন।
তিনি যোগ করেছেন, ‘রাশিয়ান কেন্দ্রীয় ব্যাংক কার্যকরভাবে এটিকে স্বীকৃতি দিয়েছে, এবং এতে কোন সন্দেহ নেই যে, কিছু ব্রিকস দেশ, বিশেষ করে চীন, মার্কিন ট্রেজারি যে গতি এবং চৌকসভাবে সরানো হয়েছে তা লক্ষ্য করেছে’।

টার্নার পরামর্শ দিয়ে বলেন যে, এ নিষেধাজ্ঞাগুলো সম্ভবত মস্কো এবং বেইজিংকে আইএমএফের আন্তর্জাতিক রিজার্ভ সম্পদ, বিশেষ অঙ্কন অধিকারের বিকল্পে কাজ করতে উৎসাহিত করেছে।
যদিও রিজার্ভ কারেন্সি নয়, এসডিআর চীনা ইউয়ান ছাড়াও ইউএস ডলার, ইউরো, ব্রিটিশ পাউন্ড এবং জাপানিজ ইয়েন দিয়ে তৈরি মুদ্রার ঝুড়ির উপর ভিত্তি করে তৈরি। তিনি পরামর্শ দিয়ে বলেন যে, একটি সম্ভাবনা হল ব্রিকস বাস্কেট কারেন্সি শুধুমাত্র গ্রুপের সদস্যদের কাছ থেকে নয়, তাদের প্রভাবের ক্ষেত্রের মধ্যে থাকা দেশগুলো থেকেও রিজার্ভ আকর্ষণ করতে পারে। এর মধ্যে রয়েছে দক্ষিণ এশিয়া ও মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলো।
রাশিয়া ইউক্রেন আক্রমণের পর দুই সপ্তাহেরও কম সময়ের মধ্যে ৭০ শতাংশ নিমজ্জিত হওয়ার পর কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সহায়তার জন্য রাশিয়া তার রুবেল তার প্রাক-যুদ্ধ স্তরের ওপরে বাউন্স দেখেছে। জুন মাসে এটি ১৫.২ শতাংশ বেড়ে ১.৮৭ সেন্টে পৌঁছেছে। এদিকে, ইউয়ান একই সময়ের মধ্যে প্রায় ০.১৫ ডলারে স্থির হয়েছে। সূত্র : বিজনেস ইনসাইডার।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (5)
Jewl Nath ২৬ জুন, ২০২২, ৭:৪৪ এএম says : 0
সিদ্ধান্তটা ভালো কিন্তু ব্যাপার হচ্ছে কতটা কার্যকর হচ্ছে সেটা
Total Reply(0)
Iman Hussein ২৬ জুন, ২০২২, ৭:৪৫ এএম says : 0
Euro rate নির্ধারন করাও প্রয়োজন। এখানেও অস্তিওরতা হচ্ছে
Total Reply(0)
Kazi Simon ২৬ জুন, ২০২২, ৭:৪৬ এএম says : 0
শুধু বাংলাদেশের ডলারের দাম কেন বেড়েছে মধ্যপ্রাচ্যের কোন দেশে ডলারের দাম বাড়েনি সবকিছুতে কেন সিন্ডিকেট কারণ মানুষ বাংলা দেশের আইনকে শ্রদ্ধা করে না
Total Reply(0)
মোহাম্মদ মুছা ২৬ জুন, ২০২২, ৭:৪৬ এএম says : 0
আরো অনেক আগে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত ছিল।
Total Reply(0)
সুশান্ত রায় ২৬ জুন, ২০২২, ১০:০৪ এএম says : 0
ত্রই সিদ্ধান্ত ভালো ষদি সফল হয় আমরা অনেক আনন্দিত হব. আর মার্কিন কে বুজানো উচিৎ ষে তারা তাদের সম্মান নিজে নিজেই হারিয়েছে
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন