বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ২ শ্রাবন ১৪৩১, ১০ মুহাররম ১৪৪৬ হিজরী

ইসলামী প্রশ্নোত্তর

প্রশ্ন : ঋণগস্থ লোকের যাকাত আদায় প্রসঙ্গে।

সাইফুল আরিফ
ইমেইল থেকে

প্রকাশের সময় : ১৮ জানুয়ারি, ২০২৩, ৮:২৬ পিএম

প্রশ্নের বিবরণ : আমি কয়েক লক্ষ টাকা ঋণগ্রস্থ, যা প্রতি মাসে কিস্তিতে পরিশোধযোগ্য। অন্য দিকে আমার মুদারাবা ডিপিএস আছে, যাতে জমা করা মূলধন নিসাব পরিমাণের চেয়েও বেশি। কিন্তু ব্যাংকের নিয়ম অনুযায়ী ওই টাকা মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে হাতে পাওয়া যাবে না। উল্লেখ্য, এ ছাড়া আমার মালিকানায় অন্য কোনো যাকাতযোগ্য সম্পদ নেই। এমতাবস্থায় আমার উপরে যাকাত আদায় করা ফরজ কি?


উত্তর : ঋণগ্রস্থ ব্যক্তির হাতে জমাকৃত সম্পদের যাকাত দিতে হয়। কেননা, সে ঋণ দিয়ে দিচ্ছে না। হাতের সম্পদ দিয়ে সে তার দৈনন্দিন প্রয়োজন পূরণ করছে। এই টাকা যদি নেসাব পরিমাণ হয় এবং যাকাতবর্ষ পার হয়ে তাহলে এর যাকাত দিতে হবে। তবে, যদি ঋণ দিতে থাকে তাহলে চলতি সময়ের কিস্তিটি যাকাতের আওতামুক্ত। বাকী সম্পদ যাকাতযোগ্য।

উত্তর দিয়েছেন : আল্লামা মুফতি উবায়দুর রহমান খান নদভী
সূত্র : জামেউল ফাতাওয়া, ইসলামী ফিক্হ ও ফাতওয়া বিশ্বকোষ।
প্রশ্ন পাঠাতে নিচের ইমেইল ব্যবহার করুন।
inqilabqna@gmail.com

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন