ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

কুমিল্লার আদালতে রিজভী - তনু হত্যাকান্ডে বিচার বিভাগীয় তদন্ত হওয়া উচিত

প্রকাশের সময় : ৭ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:০০ এএম

কুমিল্লা থেকে স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, কলেজছাত্রী তনু হত্যার মধ্য দিয়ে সারাদেশের আাইনশৃংখলা পরিস্থিতি বর্তমানে কোন পর্যায়ে তা জনগণ উপলব্ধি করতে পারছে। আমরা বলেছি, একটি সুরক্ষিত এলাকায় তনুর নির্মম মৃত্যু মানুষ মেনে নিতে পারছে না। এই হত্যাকা-ের ব্যাপারে বিচার বিভাগীয় তদন্তের দাবি বিএনপি করে আসছে। কিন্তু সরকার বিষয়টিকে গুরুত্ব দিচ্ছে না। গতকাল (বুধবার) দুপুরে কুমিল্লার আদালতে গত বছরের ৩ ফেব্রুয়ারি ভোর রাতে চৌদ্দগ্রামের জগমোহনপুরে দুর্বৃত্তদের নিক্ষিপ্ত পেট্রলবোমায় ৮ যাত্রী নিহতের মামলায় কুমিল্লার আদালতে হাজিরা দিয়ে বেরোনোর পর সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাবে রুহল কবীর রিজভী এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, যতদিন এই অবৈধ সরকার তার অস্তিত্ব নিয়ে টিকে থাকবে ততদিন দেশের মানুষের জানমালের কোনো নিরাপত্তা থাকবে না। সরকারের সমালোচনা করে তিনি বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্ববিহীন একটি নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের মধ্য দিয়ে জনগণ যাকে ভোট দিয়ে সরকার গঠন করবে এবং সেই সরকারের জনগণের কাছে জবাবদিহিতা থাকলে, আজকে পথেঘাটে মানুষ মরত না, দেশে বিচারবহির্ভূত হত্যাকা- হতো না, গুম হতো না, মুক্তিপণ আদায়ের নামে যে সংস্কৃতি চালু হয়েছে এটা হতো না। তিনি আরো বলেন, আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগ বেপরোয়া হয়ে গেছে। এ জায়গা থেকে উত্তরণের পথ হচ্ছে গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতা। আর এ ধারাবাহিকতা রক্ষা করতে হলে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচন অনুষ্ঠানের পথ সুগম করতে হবে।
বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদের আইনজীবী অ্যাডভোকেট কাইমুল হক রিংকু জানান, ওই মামলায় আদালতে হাজিরার পর আদালত রিভীর জামিন বহাল রাখাসহ মামলার পরবর্তী তারিখগুলোতে তাকে ব্যক্তিগত হাজিরার পরিবর্তে আইনজীবীর মাধ্যমে হাজিরার আদেশ দিয়েছে। উল্লেখ্য, বিএনপির নেতৃত্বাধীন জোটের টানা হরতাল-অবরোধ চলাকালে গত বছরের ৩ ফেব্রুয়ারি ভোররাতে চৌদ্দগ্রামের জগমোহনপুরে বাসে পেট্রলবোমা হামলা ও হতাহতের এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া, অ্যাডভোকেট রহুল কবীর রিজভী, জামায়াতের কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য ও চৌদ্দগ্রাম আসনের সাবেক এমপি ডা: সৈয়দ আবদুল্লাহ মোহাম্মদ তাহেরকে প্রধান আসামি করে ৫৬ জনের বিরুদ্ধে এ মামলা দায়ের করেছিলেন চৌদ্দগ্রাম থানার এসআই নুরুজ্জামান।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন