ঢাকা, মঙ্গলবার, ০৪ আগস্ট ২০২০, ২০ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৩ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

মাদারীপুরে কলেজ শিক্ষককে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা

প্রকাশের সময় : ১৬ জুন, ২০১৬, ১২:০০ এএম

মাদারীপুর জেলা সংবাদদাতা : মাদারীপুরের সরকারি নাজিমউদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক রিপন চক্রবর্তীকে কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে হত্যার চেষ্টা চালিয়েছে দুবৃত্তরা। গতকাল বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে তাকে কুপিয়ে পালিয়ে যাওয়ার জন্য স্থানীয় লোকজন একজনকে ধরে ফেলে। তাকে আটক করে মাদারীপুর সদর থানায় রাখা হয়েছে। ওই শিক্ষককে প্রথমে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ও পরে আশঙ্কাজনক অবস্থা বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।
পুলিশ জানায়, আটক ব্যক্তি তার নাম জানিয়েছে গোলাম ফাইজুল্লাহ। তার পিতার নাম গোলাম ফারুক। বাড়ি চাপাইনবাবগঞ্জের দীঘিয়াপাড় গ্রামে।
প্রত্যক্ষদর্শী সোবহান মুন্সী জানান, শিক্ষক রিপন চক্রবর্তী কলেজগেট তার বাড়িতে একটি ছোট কক্ষে একা ভাড়া থাকতেন। দুপুরে কলেজ থেকে ফিরে তার কক্ষে অবস্থান করছিল। বিকেল সাড়ে ৪টার পর ৩ যুবক দরজায় নক করে। এ সময় রিপন দরজা খোলা মাত্রই তারা কুপিয়ে দ্রুত পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। আহতের চিৎকারে কলেজগেট এলাকার লোকজন দ্রুত এগিয়ে এসে এক যুবককে আটক করে।
পুলিশ আটককৃত ফাইজুল্লাহ জানিয়েছে যে, সে ঘটনার সাথে জড়িত অপর দুইজনের সাথে এসেছিল। এ বিষয়ে সে কিছু জানে না।
মাদারীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের দায়িত্বে থাকা উত্তম কুমার পাল জানান, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
নাজিমউদ্দিন কলেজের অধ্যক্ষ হিতেন চন্দ্র মন্ডল বলেন, প্রাথমিকভাবে আক্রমণের ধরণ দেখে জঙ্গি হামলার মত মনে হয়েছে। শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীর বাড়ি বরিশালের গৌরনদী উপজেলার বিলুগ্রামে। তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় বরিশাল শেরে-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন