ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

কর্পোরেট

কৃষি ঋণের সুদ সর্বোচ্চ ১০ শতাংশ

প্রকাশের সময় : ১২ জুলাই, ২০১৬, ১২:০০ এএম

কর্পোরেট রিপোর্ট : কৃষি ও পল্লী ঋণের সুদের ঊর্ধ্বসীমা ১১ শতাংশ থেকে কমিয়ে ১০ শতাংশে নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। আগামী ১ জুলাই থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে। বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে এ সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করে দেশের সব ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীদের কাছে পাঠানো হয়েছে। স¤প্রতি আমানত ও ঋণের সুদের হার কমে আসায় বাংলাদেশ ব্যাংক কৃষি ঋণের সুদে ঊর্ধ্বসীমা পুনঃনির্ধারণ করেছে বলে সার্কুলারে উল্লেখ করা হয়েছে। এর আগে ২০১৪ সালের ২১ ডিসেম্বর বাংলাদেশ ব্যাংকের এক সার্কুলারে কৃষি ও পল্লী ঋণের সুদের ঊর্ধ্বসীমা ১১ শতাংশে নির্ধারণ করা হয়েছিল। তারও আগে এ হার ছিল ১৩ শতাংশ। স¤প্রতি ব্যাংকিং খাতে আমানতের সুদহার কমেছে। যে কারণে ব্যাংকগুলো ঋণের সুদহারও কমিয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ী, এপ্রিলে ব্যাংকিং আমানতের গড় সুদহার দাঁড়িয়েছে ৫ দশমিক ৯২ শতাংশ; আর ঋণের গড় সুদহার ছিল ১০ দশমিক ৭৮ শতাংশ। রাষ্ট্রমালিকানাধীন বেশিরভাগ ব্যাংক অবশ্য ইতিমধ্যে কৃষি ঋণের সুদের হার ১০ শতাংশের মধ্যে নামিয়ে এনেছে। সোনালী, জনতা, রূপালী, বিডিবিএল ও বেসিক ব্যাংক ১০ শতাংশ হারে কৃষি ঋণ বিতরণ করছে। অগ্রণী ব্যাংক করছে ৮ শতাংশ হারে। তবে কৃষি ঋণের জন্য বিশেষায়িত ব্যাংক কৃষি ও রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক ১১ শতাংশ সুদে এ ঋণ বিতরণ করছে। এই দুই ব্যাংকই সবচেয়ে বেশি কৃষি ঋণ বিতরণ করে থাকে। চলতি ২০১৫-১৬ অর্থবছরে ব্যাংকগুলো ১৬ হাজার ৪০০ কোটি টাকার কৃষি ঋণ বিতরণের লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে। এরমধ্যে কৃষি ব্যাংক ও রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক বিতরণ করবে ৬ হাজার ৪০০ কোটি টাকা। আর ছয়টি রাষ্ট্রমালিকানাধীন বাণিজ্যিক ব্যাংক বিতরণ করবে ২ হাজার ৮৯০ কোটি টাকা। গত এপ্রিল পর্যন্ত ব্যাংকগুলো ১৪ হাজার ১২৮ কোটি টাকা কৃষি ঋণ বিতরণ করে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন