ঢাকা মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৩০ চৈত্র ১৪২৭, ২৯ শাবান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ক্ষমতাসীনদের দ্ব›েদ্ব রক্তাক্ত বগুড়া

বগুড়া ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০০ এএম

বগুড়া মোটর মালিক গ্রুপের কর্তৃত্ব এবং পৌরসভা ও ইউনিয়ন পরিষদের কর্তৃত্ব নিয়ে দ্ব›েদ্বর জেরে হঠাৎ রক্তাক্ত রুপ ধারণ করেছে বগুড়া। দ্ব›েদ্ব মারা গেছেন বগুড়ার শিবগঞ্জের এক কৃষকলীগ নেতা। আহত হয়ে হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন একজন সাংবাদিক ও পুলিশ সদস্য। চলমান দ্ব›েদ্ব পরিবহন সেক্টরে অচলাবস্থা তৈরি হয়েছে।
বগুড়ার আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দলের মনোনয়ন প্রাপ্তি নিয়ে সৃষ্ট দ্ব›েদ্বর জেরে গত মঙ্গলবার মারা যান বগুড়ার শিবগঞ্জ উপজেলার ময়দানহাটা ইউনিয়নের নিয়ামতপুর গ্রামের বাদশা মিয়ার ছেলে স্থানীয় যুবলীগ নেতা আজাহারুল ইসলাম নান্নু (৩৫)।

তরুণ এই যুবলীগ নেতার মৃত্যুর কারণ জানিয়ে ময়দানহাটা ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যান এসএম রুপম জানান, ওই ইউনিয়নের বহিস্কৃত যুবলীগ নেতা আবু জাফর মন্ডলের ক্যাডাররা গত সোমবার তার সমর্থক নান্নুর ওপর হামলা চালিয়ে গুরুতর আহত করে। গত মঙ্গলবার চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান কৃষক লীগ আঞ্চলিক কমিটির সভাপতি আজাহারুল ইসলাম নান্নু। এলাকাবাসীর ধারণা কৃষকলীগ নেতা নান্নুর মৃত্যুর জেরে আরও রক্তপাতের ঘটনা ঘটতে পারে।

এদিকে একই দিনে বগুড়া পৌর এলাকায় বগুড়ার মোটর মালিক গ্রুপের কার্যালয় এবং কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনালের নিয়ন্ত্রণ নিতে বগুড়া জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং মোটর মালিক গ্রুপের সাবেক আহ্বায়ক মঞ্জুরুল আলম মোহনের সশস্ত্র অভিযানকে ঘিরে মারাত্মক উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে।
গত মঙ্গলবার দুপুরে প্রায় সহস্রাধিক সশস্ত্র ক্যাডার নিয়ে বগুড়া শহরতলীর চারমাথা এলাকায় কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল, সেখানে অবস্থিত মোটর মালিক গ্রুপের কার্যালয়, গ্রুপের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক, স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও তার প্রতিদ্ব›িদ্ব আমিনুল ইসলামের ব্যক্তিগত ও ব্যবসায়িক কার্যালয়ে ব্যাপক হামলা, ভাঙচুর ও অগ্নি সংযোগ করেন।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে হামলাকারীদের লাঠিচার্জ, টিয়ার গ্যাস শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে নিবৃত্ত করে। পুলিশ এসময় গ্রেফতারও করে ৯ জনকে। এসময় চিত্র ধারণ করতে গিয়ে মারাত্মক হামলার শিকার হন গাজী টিভির ক্যামেরাপার্সন রাজু আহম্মেদ। একই সময় ছুুরিকাঘাত করা হয় পুলিশের বিশেষ শাখার কনস্টেবল রমজান আলীকে।
সাংবাদিক রাজু ও পুলিশ কনস্টেবল রমজান বর্তমানে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এর মধ্যে রমজান আলীর শারীরিক অবস্থা ক্রিটিকাল বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসলে আমিনুলের পক্ষে বগুড়ার পরিবহন মালিক শ্রমিকরা যৌথ একটি সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করেন। সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত হন বগুড়া জেলা ট্রাক মালিক সংগঠনের সভাপতি ও বগুড়া পৌরসভা নির্বাচনের মেয়র প্রার্থী আব্দুল মান্নান আকন্দ, সাধারণ সম্পাদক ও পৌর কাউন্সিলর প্রার্থী আব্দুল মতিন সরকার, ট্রাক শ্রমিক সংগঠনের সভাপতি আব্দুল মান্নান, শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক শেখ সামস উদ্দিন হেলাল প্রমুখ।

সাংবাদিক সম্মেলনে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে হামলাকারী মঞ্জুরুল আলম মোহনকে গ্রেফতারের দাবি জানিয়ে বলা হয় তাকে গ্রেফতার করা না হলে বগুড়ায় পরিবহন ধর্মঘট ডেকে সবকিছু অচল করে দেয়া হবে। সেই ঘোষণা অনুযায়ী গতকাল সকাল থেকে শুরু হয় পরিবহন ধর্মঘট। অবশ্য দুপুরের মধ্যেই প্রশাসনের চাপে তা প্রত্যাহার করা হয়।

এদিকে, বগুড়া সদর থানায় দায়ের করা হয় পৃথক ৩টি মামলা। একটি মামলায় বাদী হয়েছেন মঞ্জুরুল আলম মোহনের ছোট ভাই মশিউল আলম দীপন। এই মামলায় আসামি করা হয়েছে আমিনুল ইসলামসহ ৩২ জনকে। আরেকটি মামলায় বাদী হয়েছেন আমিনুল ইসলাম। এ মামলায় আসামি করা হয়েছে মঞ্জুরুল আলম মোহনসহ ৫২ জনকে। অন্যদিকে উপশহর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ নান্নু খান বাদী হয়ে ৬ জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেছেন। যার ৩ নম্বর আসামি মঞ্জুরুল আলম মোহন।

অপরদিকে, গতকাল বগুড়া প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে মঞ্জুরুল আলম মোহন তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে মোটর মালিক গ্রুপের সকল সমস্যার জন্য আমিনুল ইসলামকে দায়ী করেন। এদিকে গত মঙ্গলবার সংঘঠিত সশস্ত্র সংঘাতের প্রতিক্রিয়ায় বগুড়ায় ক্ষমতাসীন দলের মধ্যে দ্ব›দ্ব সংঘাত চরমে উঠেছে। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য বগুড়া পৌরসভা নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন নিয়ে সংঘাত সহিংসতা আরও বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন