শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০৭ মাঘ ১৪২৮, ১৭ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

সিরিয়ায় হত্যা তদন্তের দাবি জানালেন সিনেটর ওয়ারেন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৫ এএম

সিরিয়ায় ২০১৯ সালে মার্কিন সামরিক বাহিনী বিমান হামলার মাধ্যমে যেসব বেসামরিক নাগরিককে হত্যা করেছে তা তদন্তের আহ্বান জানিয়েছেন আমেরিকার ম্যাসাচুসেট্স থেকে নির্বাচিত ডেমোক্র্যাট দলের সিনেটর এলিজাবেথ ওয়ারেন। ২০১৯ সালের ১৮ মার্চ সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলীয় বাগুজ শহরে আমেরিকা ওই বিমান হামলা চালায় যাতে ৭০ জন বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছিল। সিনেটের আর্মড সার্ভিসেস কমিটির চেয়ারম্যান জ্যাক রিডকে লেখা এক চিঠিতে এলিজাবেথ ওয়ারেন একটি প্যানেল প্রতিষ্ঠার দাবি জানিয়েছেন যার মাধ্যমে খুব শিগগিরই আনুষ্ঠানিক তদন্ত শুরু করা যায়। শুক্রবার ওয়ারেন এ চিঠি লিখেছেন। গত শনিবার মার্কিন দৈনিক নিউ ইয়র্ক টাইমস এক বিশেষ প্রতিবেদনে জানিয়েছে, সিরিয়ার বাগুজ শহরে সংঘটিত বিমান হামলায় ৭০ জন বেসামরিক লোক নিহত হয় এবং মার্কিন বাহিনী বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করেছে। ওই ঘটনায় যুদ্ধাপরাধ সংঘটিত হয়েছে বলে নিউইয়র্ক টাইমস উল্লেখ করে। পত্রিকাটি বলেছে, মার্কিন বাহিনীর হাতে সিরিয়ায় যত বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে, বাগুজ শহরের ঘটনা ছিল তার অন্যতম বড় ঘটনা। অথচ বিষয়টি প্রকাশ্যে কখনো মার্কিন সামরিক কর্মকর্তারা স্বীকার করেন নি। মার্কিন আর্মড সার্ভিসেস কমিটির সদস্য এলিজাবেথ ওয়ারেন তার চিঠিতে দাবি করেছেন- কেন ওই বিমান হামলা চালানো হয়েছে এবং তার ফলাফল কী ছিল এসব প্রশ্নের জবাব খোঁজার জন্য স্বাধীনভাবে দ্রুত তদন্ত করা দরকার। পাশাপাশি এ ঘটনায় যারা দোষী বলে সাব্যস্ত হবে তাদেরকে আইনের আওতায় আনা জরুরি। নিউ ইয়র্ক টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, ২০১৯ সালের ১৮ মার্চ বাগুজ শহরে মার্কিন সামরিক বাহিনী একটি জনসমাবেশের ওপর বিমান হামলা চালায় যেখানে বেসামরিক লোকজনের উপস্থিতি ছিল। মার্কিন বাহিনী দাবি করেছিল উগ্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশের ওপর তারা হামলা চালিয়েছে। কিন্তু ড্রোন ফুটেজে এ তথ্য পরিষ্কার ছিল যে, সেখানে বেসামরিক লোকজন রয়েছে। সরকারি নির্ভরযোগ্য গোপন তথ্যের ওপর ভিত্তি করে নিউ ইয়র্ক টাইমস এই ঘটনা তদন্ত করেছে। বিমান হামলার সাথে সরাসরি জড়িত মার্কিন সামরিক ও বেসামরিক কর্মকর্তারা সাধারণ লোকজন হত্যার কথা গোপন করার চেষ্টা করেছেন। নিউ ইয়র্ক টাইমস।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন