বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

জড়িতদের শাস্তির আওতায় আনুন

বায়তুল মোকাররমের রাস্তায় পার্ক নির্মাণ বিভিন্ন ইসলামী দলের নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৯ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০১ এএম

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের পূর্ব দিকে মুসল্লিদের যাতায়াতের রাস্তার ওপর পার্ক নির্মাণের ‘তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ’ জানিয়েছে বিভিন্ন ইসলামী দলের বিবৃতি অব্যাহত রয়েছে।

ইসলামী ঐক্য জোটের চেয়ারম্যান, বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টির সভাপতি মাওলানা আব্দুর রকীব অ্যাডভোকেট ও মহাসচিব অধ্যাপক মাওলানা আব্দুল করিম খান গতকাল বুধবার এক যুক্ত বিবৃতিতে বলেন, জাতীয় মসজিদকে আরও উন্নত ও আধুনিক করতে উদ্যোগ না গ্রহণ করে উল্টো মসজিদে প্রবেশের রাস্তা বন্ধ করে পার্ক তৈরির চেষ্টা করা জাতির সাথে বেঈমানী করার শামিল।

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররম শুধু বাংলাদেশেরই ঐতিহ্য নয়, বরং সারা বিশ্বের মুসলিম উম্মাহর একটি অন্যতম প্রতীক। নেতৃদ্বয় আরো বলেন, সরকারকে এখনই জাতীয় মসজিদের সম্মান তথা কোটি কোটি মুসলিম জনতার ধর্মীয় অনুভূতি প্রকাশের কেন্দ্রবিন্দুর ভালোবাসা রক্ষায় হটকারী সিদ্ধান্ত থেকে ফিরে আসতে হবে। অন্যথায় সাধারণ জনগণের ক্ষোভের কারণে অনভিপ্রেত পরিস্থিতির দায় সরকার এড়াতে পারবে না। তারা বায়তুল মোকাররমের সৌন্দর্য, পবিত্রতা রক্ষা করা এবং মুসল্লিদের রাস্তার ওপর পার্ক নির্মাণ কাজে জড়িত কর্মকর্তাদেরকে শাস্তির আওতায় আনার জোর দাবি জানান।

জাতীয় শিক্ষক ফোরাম : জাতীয় শিক্ষক ফোরাম এর কেন্দ্র্রেীয় সভাপতি অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, সিনিয়র সহ-সভাপতি মাওলানা এবিএম জাকারিয়া ও সেক্রেটারি জেনারেল অধ্যাপক নাসির উদ্দিন খান, জয়েন্ট সেক্রেটারী প্রভাষক এম এ সবুর জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমের পূর্ব পার্শ্বে মুসল্লিদের যাতায়াতের রাস্তা বন্ধ করে ক্রীড়া পরিষদ পার্ক ও ড্রেন নির্মাণ করার সংবাদে গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। গতকাল এক বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকারমের মুসল্লিদের চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে ভিন্ন কিছু করার ষড়যন্ত্র জনগণ কিছুতেই মেনে নিবে না। ক্রীড়া পরিষদ মসজিদের জায়গায় পার্ক নির্মাণের উদ্যোগ নিয়ে অমার্জনীয় অপরাধ করেছেন। মসজিদের রাস্তা দখল করার পরিণতি শুভ হবে না। মুসল্লিদের রাস্তা বন্ধ করে পার্ক নির্মাণ করার অপরিণামদর্শি খেলায় মেতে উঠতে চাইলে তা ঈমানদার জনতা রুখে দাঁড়াতে বাধ্য হবে। জাতীয় মসজিদের রাস্তা দখলের ধৃষ্টতা সহ্য করা হবে না। দেশের সংখ্যাগরিষ্ঠ জনগণের ধর্মীয় অনুভ‚তির প্রতি লক্ষ্য করে অনতিবিলম্বে জাতীয় মসজিদের পূর্ব দিকের রাস্তার ওপর পার্ক নির্মাণ বন্ধ করে মুসল্লিদের যাতায়াতের জন্য উন্মুক্ত রাখতে হবে।

তারা বলেন, মসজিদের রাস্তা দখল করে ড্রেন বা পার্ক নির্মাণের সিদ্ধান্ত ক্রীড়া পরিষদের চরম ধৃষ্টতা ছাড়া কিছু নয়। মসজিদের পূর্ব পাশের রাস্তাটি মুসল্লিসহ সর্ব সাধারণের জন্য খুলে দিতে হবে। অন্যথায় তৌহিদী জনতা দেশব্যাপী কঠোর কর্মসূচি দিতে বাধ্য হবে। ইসলামিক ফাউন্ডেশন ক্রীড়া পরিষদের সাথে এ ব্যাপারে আলোচনা করে রাস্তাটি অবমুক্ত রাখার ব্যবস্থা করতে হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন