ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট ২০২০, ২৯ শ্রাবণ ১৪২৭, ২২ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

মীরসরাই ও ভেড়ামারায় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ৫

প্রকাশের সময় : ৩০ অক্টোবর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : চট্টগ্রামের মীরসরাই ও কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় পুলিশ ও র‌্যাবের সঙ্গে পৃথক ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ৫ জন নিহত হয়েছে। র‌্যাব-পুলিশের দাবি নিহতরা সবাই ডাকতদলের সদস্য।
মীরসরাইয়ে নিহত ৩
মীরসরাই উপজেলা সংবাদদাতা : চট্টগ্রামের মীরসরাইয়ে র‌্যাবের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধের’ ঘটনায় ৩ জন নিহত হয়েছে। গতকাল এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত তাদের পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ। তবে এরা আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সদস্য বলে ধারণা পুলিশের। এসময় নিহতদের কাছ থেকে ৩টি পিস্তল, ২টি এলজি, ৫ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।
সীতাকুন্ড সার্কেল এএসপি মাহবুবুর রহমান জানান, শনিবার ভোর রাত ৩টার দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে র‌্যাব ফেনী অফিসের একটি টিম টহলে ছিল। নিজামপুর তদন্ত কেন্দ্রের ৫০০ গজ সামনে ওয়াহেদপুর এলাকায় হঠাৎ র‌্যাবের ব্যবহৃত সিভিল মাইক্রোবাসের চাকায় বিশেষ প্রক্রিয়ায় পাচার করে ডাকাতরা। পেছন দিক থেকে গাড়ীর কাঁচে গুলি করে। এসময় র‌্যাব সদস্যরা গাড়ি থামিয়ে মহাসড়কে পাল্টা গুলি করলে মুখোমুখি গোলাগুলি শুরু হয়। মহাসড়কের পার্শ্ববর্তী জমিতে র‌্যাবের সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ অজ্ঞাতনামা ৩ ডাকাত নিহত হয়। টহল টিমের নেতৃত্বে ছিলেন র‌্যাব-৭ এর ফেনী ক্যাম্পের এএসপি মোঃ শাহজালাল।
সীতাকুন্ড এএসপি সার্কেল মাহবুবুর রহমান আরো জানান, মীরসরাই থানা পুলিশ ডাকাতদের পরিচয় সনাক্তের করার চেষ্টা করছেন।
এ ব্যাপারে মীরসরাই থানার জ্যেষ্ঠ উপ-পরিদর্শক তফিকুল বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তিনটি লাশ উদ্ধার করে মীরসরাই থানায় নিয়ে আসে। লাশগুলোর সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে। তবে এ ব্যাপারে র‌্যাব আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো প্রকার বক্তব্য প্রদান করেনি। তাই মামলা দায়েরের ব্যাপারে একটু দেরী হচ্ছে। লাশগুলোকে পোস্ট মর্টেমের জন্য চমেক হাসপাতালে পাঠানো হবে।
কুষ্টিয়ার মিরপুরে নিহত ২
কুষ্টিয়া থেকে স্টাফ রিপোর্টার ও মিরপুর সংবাদদাতা : কুষ্টিয়ার মিরপুরে পুলিশের সাথে বন্দুকযুদ্ধে দুইজন নিহত হয়েছে। শুক্রবার দিবাগত সাড়ে ১২টার দিকে মিরপুর ভেড়ামারা আঞ্চলিক সড়কের গোবিন্দগুনিয়া ব্রিজের সন্নিকটে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন, জয়নাল (৩০) ও আসাদুল (৪০)। বন্দুকযুদ্ধের বার ঘণ্টা পর পুলিশ তাদের পরিচয় জানতে পারে। নিহত জয়নাল সদর উপজেলার কুমারগাড়া এলাকার শহিদুলের পুত্র এবং আসাদুল দৌলতপুরের সেনপাড়া গ্রামে জামাত মন্ডলের পুত্র।
এ সময় মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী জালাল উদ্দিনসহ ৩ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে। মিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কাজী জালাল উদ্দিন জানান, রাতে মিরপুর ভেড়ামারা সড়কের গোবিন্দগুনিয়া ব্রিজের কাছে ডাকাতি হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা ঘটনাস্থলে পৌঁছালে ডাকাতরা পুলিশকে লক্ষ্য করে বোমা ছোড়ে। এক পর্যায়ে পুলিশও তাদের পাল্টা গুলি ছুড়লে তারা পিছু হটতে বাধ্য হয়। এ সময় ২ ডাকাতের লাশ পড়ে থাকতে দেখে। পরে লাশ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন।
পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ডাকাতদের ব্যবহৃত একটা পিস্তল, ৪টা বোমা, ২টা রামদা, ২টা হাসুয়াসসহ ডাকাতি সরঞ্জামাদী উদ্ধার করেছে।







 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন