বুধবার ০৭ ডিসেম্বর ২০২২, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ১২ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

লাঠি নিয়ে রাস্তায় নামলে সমুচিত জবাব আলোচনা সভায় ওবায়দুল কাদের

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১২:০৩ এএম

বাইশ দলের জগাখিচুড়ি জোট নিয়ে বিএনপি লাঠি নিয়ে মাঠে নেমেছে অভিযোগ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি ইচ্ছে করে উসকানি দিচ্ছে, যাতে আওয়ামী লীগ সংঘাতে জড়ায়।

তারা ইচ্ছে করে আওয়ামী লীগ, পুলিশকে উসকানি দেয়। পরিষ্কার করে বলছি—লাঠি নিয়ে খেলা, আগুন নিয়ে খেলা চলবে না। জাতীয় পতাকার সঙ্গে লাঠি নিয়ে রাস্তায় নামলে সমুচিত জবাব দেওয়া হবে। গতকাল আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় সূচনা বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্র আওয়ামী লীগের উদ্যোগে এ আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। বিএনপিকে উদ্দেশ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, কোমর ভাঙা বিএনপি হাঁটুভাঙা বিএনপি এখন লাঠির ওপর ভর করেছে। আমি বলছি না, বলেছেন জাফরুল্লাহ। লাঠি চলে গিয়েছিল, আবার বিএনপি লাঠি ফিরিয়ে এনেছে। লাঠির মাথায় জাতীয় পতাকা বাঁধা, আবার বলে লাঠি আরও বড় হবে। কত বড় আস্ফালন! এর জবাব আমরা দেবো। যদি জাতীয় পতাকার সঙ্গে লাঠি নিয়ে রাস্তায় নামেন, আস্ফালন করেন, জবাব আছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ রাজপথ কাউকে ইজারা দেয়নি। রাজপথ কারও পৈতৃক সম্পত্তি নয়। আওয়ামী লীগ রাজপথে আছে। রাজপথে আমরা নামবো জনগণের জন্য, আমাদের উন্নয়নের জন্য। রাজপথ দখল করবেন? দেখা যাবে.. অপেক্ষায় আছি।

গণমাধ্যমকে উদ্দেশ করে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, হাজারীবাগে আওয়ামী লীগের ওপর হামলা হলো, আমাদের দলের দুই জন মারাত্মক আহত হয়েছেন। তারা হাসপাতালে গুরুতর আহত অবস্থায় চিকিৎসাধীন আছে। পত্রিকায় নিউজ নেই। বিএনপির সংঘাতে জড়ানোর জন্য আওয়ামী লীগকে উসকানি দেয়। কাভারেজ নেই। সকালে কাগজ পড়লে মনে হয় বিএনপি দেশ দখল করে নিয়েছে।

আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগ আবারও বিজয়ী হবে আশাবাদ ব্যক্ত করে দলের সাধারণ সম্পাদক বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা আবারও বিজয়ের বন্দরে। মার্কিন রাষ্ট্রদূত পিটার হাসকে বলবো তার আগে যিনি দায়িত্বে ছিলেন সেই মরিয়ার্টির বক্তব্যটা পড়ার জন্য। তিনি বলেছিলেন, তারেক রহমান দুর্নীতির প্রতীক। বাংলাদেশের ধ্বংসাত্মক রাজনীতির প্রবর্তক।

ওবায়দুল কাদের বলেন, শেখ হাসিনার লক্ষ্য ছিল ডিজিটাল বাংলাদেশ, সেটা হয়ে গেছে। এবারের লক্ষ্য স্মার্ট বাংলাদেশ। এবারে স্মার্ট বাংলাদেশের লক্ষ্য তুলে ধরেছেন আমাদের ক্রাইসিস ম্যানেজার শেখ হাসিনাবিএনপি ভোটে শেখ হাসিনাকে হটাতে পারবে না এটা জেনে ষড়যন্ত্রের পথ বেছে নিয়েছে। খেলা হবে, মোকাবিলা হবে আন্দোলনে, নির্বাচনে প্রমাণ হয়ে যাবে দেশের মানুষ কাকে চায়।

 

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন