ঢাকা রোববার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

সকলকে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে শ্যালিকাকে ধর্ষণ

সখিপুর (টাঙ্গাইল) উপজেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

টাঙ্গাইলের সখিপুরে দুলাভাই আমিনুল বাড়ির সকলকে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে ৮ম শ্রেণী পড়–য়া শ্যালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। সখিপুর পুলিশ ধর্ষক দুলাভাইকে গ্রেফতার করেছে। বন্ধু সোহেলকে সঙ্গে করে মিষ্টি ও জুস নিয়ে চাচা শ্বশুরের বাড়িতে বেড়াতে যায় আমিনুল। সেখানে যাওয়ার আগেই তারা ঘুমের ওষুধ গুড়ো করে মিশিয়ে দেয় মিষ্টি ও জুসের সঙ্গে। তা খেয়ে সবাই ঘুমিয়ে পড়লে বন্ধুকে নিয়ে শ্যালিকাকে ধর্ষণ করে সে। ঘটনায় অভিযুক্ত আমিনুলকে বুধবার গ্রেফতার করেছে সখিপুর থানা পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার রাতে উপজেলার প্রতিমাবংকী গ্রামে।

ধর্ষিতার বাবা শামছুল বাদী হয়ে বুধবার সকালে সখিপুর থানায় আমিনুল ও তার সহযোগী সোহেলকে আসামি করে ধর্ষণের মামলা দায়ের করেন। পুলিশ বিকেলেই প্রধান আসামি আমিনুলকে গ্রেফতার করেছে। অপর আসামি সোহেলকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
মেয়েটি বর্তমানে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে চিকিৎসাধীন রয়েছে। গ্রেফতারকৃত আমিনুল একজন ট্রাক ড্রাইভার এবং আমতৈল এলাকার আবুল কালামের ছেলে। সহযোগী সোহেল পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের সালাম মিয়ার ছেলে।
মামলার বাদী বলেন, ঘটনার পরের দিন সকালে একে একে সবার জ্ঞান ফিরে। একপর্যায়ে প্রতিবেশীরা ওই বাড়ির চার সদস্যকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সোমবার সকালে চিকিৎসক সবাইকে ছেড়ে দিলেও মেয়েটিকে উন্নত চিকিৎসার জন্য টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান।

সখিপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) লুৎফুল কবির বলেন, মেয়েটির শারীরিক অবস্থা উন্নতি হচ্ছে বলে চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন। আমিনুল ইসলামের জবানবন্দি রেকর্ড করার জন্য গতকাল বৃহস্পতিবার টাঙ্গাইল আদালতে পাঠানো হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন