ঢাকা, শনিবার , ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ১৬ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

দেশব্যাপী বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস পালিত

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৪ নভেম্বর, ২০১৯, ৭:৪৭ পিএম

ডায়াবেটিস সংক্রান্ত সচেতনতা বৃদ্ধি ও স্বাস্থ্যকর জীবনযাপনের উপকারিতাকে উপজীব্য রেখে দেশব্যাপী পালিত হয়েছে বিশ্ব ডায়াবেটিস দিবস। দিবসটি উপলক্ষ্যে বৃহষ্পতিবার (১৪ নভেম্বর) নভো নরডিস্ক এবং ডায়াবেটিস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (বাডাস) বিভিন্ন গণসচেতনতামূলক কার্যক্রম পালন করেছে। এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য ‘ডায়াবেটিসঃ আপনার পরিবারকে সুরক্ষা করুন’।

এ প্রসঙ্গে বাডাস এর সভাপতি ও স্বাধীনতা পদক জয়ী প্রফেসর এ কে আজাদ খান বলেন, সারা দেশে ডায়াবেটিসের প্রকোপ উদ্বেগজনক হারে বেড়েই চলেছে এবং এর ক্রমবর্ধমান ঝুঁকি মোকাবেলা করতে হলে আমাদের সবাইকে একসাথে কাজ করতে হবে।

বাংলাদেশের ডায়াবেটিস আক্রান্ত প্রায় ৫৭ শতাংশ মানুষ জানেনা যে তাদের ডায়াবেটিস আছে এবং আন্তর্জাতিক ডায়াবেটিস ফেডারেশন (আইডিএফ) এর জরিপ অনুযায়ী, এই আক্রান্ত ৬৯ লাখ জনগোষ্ঠীর সংখ্যা ২০৪৫ সালের ভেতর হয়ে যাবে প্রায় ১ দশমিক ৩৭ কোটি।

এই ক্যাম্পেইনের অংশ হিসেবে আয়োজকরা সারাদেশব্যাপী ১৫০টি শোভাযাত্রার আয়োজন করেছে, যার অন্যতম ঢাকায় জাতীয় জাদুঘরের সামনে অনুষ্ঠিত হয়। ডায়াবেটিস আক্রান্ত বিভিন্ন বয়সী শিশু ও প্রাপ্তবয়স্করা ছাড়াও দেশের স্বাস্থ্যসেবাখাতের শীর্ষস্থানীয় ডাক্তার ও বিভিন্ন শ্রেনীর পেশাজীবীরা শোভাযাত্রায় অংশ নেন। আইডিএফ এর জরিপ অনুযায়ী, এ মুহুর্তে বাংলাদেশের ২০ বছরের নিচে প্রায় ১৭ হাজার ৫৭ শিশু ও অপ্রাপ্তবয়স্ক ‘টাইপ ১’ ডায়াবেটিসে আক্রান্ত।

প্রফেসর এ কে আজাদ খান বলেন, শিক্ষা ও ডায়াবেটিস সংক্রান্ত গণসচেতনতামূলক কাজের ক্ষেত্রে নভো নরডিস্ক এবং বাডাস এর রয়েছে অত্যন্ত টেকসই ও সফল সম্পর্ক। আমাদের এবারের অংশীদারীত্বের মাধ্যমে আমরা বাডাসের ২০১৯ সালের ডায়াবেটিস নির্দেশনার ওপর ভিত্তি করে গত মঙ্গলবার চালু করেছি ‘ডায়াবেটিস জার্নি’ নামের অ্যাপ। তিনি বলেন, যেহেতু ৫০ শতাংশ ডায়াবেটিস প্রতিরোধযোগ্য, তাই শিক্ষা ও সচেতনতাই এক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় প্রভাবক।

নভো নরডিস্ক-এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর আনান্দ শেঠী বলেন, অধিকাংশ মানুষ ডায়াবেটিস নিয়ে যা ভাবে রোগটি তার চেয়েও অনেক বেশি ঝুঁকিপূর্ণ। প্রতি ৮ সেকেন্ডে একজন ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করে। ডায়াবেটিস নিয়ে সচেতনতার বৃদ্ধির লক্ষ্যে যথাযথ পদক্ষেপ নেয়ার এখনই সময়। প্রায় তিন হাজার ডাক্তারকে ১০০ টিরও বেশি মেডিকেল এডুকেশন প্রোগ্রামের মাধ্যমে ডায়াবেটিস ব্যবস্থাপনার ওপর প্রশিক্ষণ প্রদান করা হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন