ঢাকা বুধবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮ আশ্বিন ১৪২৭, ০৫ সফর ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

‘শুনানির আগে প্রথম আলো সম্পাদককে গ্রেফতার নয়’

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:০০ এএম

প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান ও কিশোর আলো সম্পাদক আনিসুল হক সহ ৬ জনের জামিন শুনানির দিন সোমবার (২০ জানুয়ারি) ধার্য করা হয়েছে। একইসাথে, এর মধ্যে তাদেরকে গ্রেফতার বা হয়রানি না করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। গতকাল আগাম জামিন আবেদনের প্রেক্ষিতে হাইকোর্ট এ নির্দেশ প্রদান করেন। ঢাকা অ্যাডিশনাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. কায়সারুল ইসলাম এ আদেশ দেন।
ঢাকা রেসিডেনসিয়াল মডেল কলেজে কিশোর আলোর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠানে রেসিডেনসিয়াল কলেজের নবম শ্রেণির ছাত্র নাইমুল আবরার বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মারা যাওয়ার ঘটনায় অবহেলার অভিযোগ এনে তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। এ প্রেক্ষিতে গত ১৫ জানুয়ারি প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান ও কিশোর আলো সম্পাদক আনিসুল হকসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত।
উল্লেখ্য, গত ৬ নভেম্বর নাইমুল আবরারের বাবা মজিবুর রহমান বাদী হয়ে পেনাল কোডের ৩০৪ (এ) ধারায় অবহেলাজনিত মৃত্যুর অভিযোগ করে আদালতে মামলা করেন। এ প্রেক্ষিতে প্রথম আলো সম্পাদক মতিউর রহমান, কিশোর আলো সম্পাদক আনিসুল হক, প্রথম আলোর হেড অব ইভেন্ট অ্যান্ড অ্যাকটিভেশন কবির বকুল, নির্বাহী শুভাশীষ প্রামাণিক, নির্বাহী শাহপরাণ তুষার, কিশোর আলোর সিনিয়র সহসম্পাদক মহিতুল আলম, ডেকোরেশন ও জেনারেটর সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠানের জসীম উদ্দিন, মোশাররফ হোসেন, সুজন ও কামরুল হাওলাদার এর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়।
আসকের উদ্বেগ : আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক) প্রথম আলোর সম্পাদকসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে গ্রপ্তারি পরোয়ানা জারির ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়েছে। গতকাল এক বিবৃতিতে বলা হয় আসক মনে করে, এ ঘটনা বাক স্বাধীনতা ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতাকে গভীরভাবে প্রভাবিত করবে এবং জনমনে বিদ্যমান এ সংক্রান্ত শংকাকে আরো বেশি দৃঢ় করে তুলবে। বিশেষত ঘটনা পরবর্তী সময়ে ক্ষমতাসীন দলের নেতৃত্বস্থানীয় ব্যক্তিদের প্রদত্ত বিভিন্ন বক্তব্য-বিবৃতি এ সংশয়কে আরো বেশি ঘণীভ‚ত করেছে। আসক জনমনের শংকা ও নানা সংশয় দূর করতে এ মামলাটির বিচার প্রক্রিয়া সম্পূর্ণভাবে প্রভাবমুক্ত রাখার এবং আইনানুগ প্রক্রিয়া সঠিকভাবে অনুসরণ করে সবার জন্য ন্যায় বিচার নিশ্চিত করার ওপর জোর দিচ্ছে। একই সাথে কাউকে হয়রানি করার জন্য নয়, সত্যিকার অর্থে কর্তৃপক্ষের কোনো অবহেলার কারণে যদি এ দূর্ঘটনা ঘটে থাকে তা নিরপেক্ষভাবে খতিয়ে দেখে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাচ্ছে আসক।
বিবৃতিতে আরো বলা হয়, আবরারের মৃত্যু অত্যন্ত দূভার্গ্যজনক এবং তা দেশের প্রতিটি মানুষকে মর্মাহত করেছে। তবে তার মৃত্যুর পরপরই সরকারের দায়িত্বশীল ব্যক্তি ও অন্যান্য মহল প্রথম আলোর সম্পাদককে জড়িয়ে নানা মন্তব্য প্রদান করতে দেখা গেছে। তাদের মন্তব্যের অব্যবহিত পরেই প্রথম আলোর সম্পাদকসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন