ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭, ০২ শাওয়াল ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

বিভিন্ন স্থানে ১০ জনের মৃত্যু

করোনার সন্দেহভাজন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:০০ এএম

কুষ্টিয়ায় এক ব্যবসায়ী, যশোরে মালয়েশিয়াফেরত ও এক শিশু, শেরপুরে এক শ্রমিক, সুনামগঞ্জে এক নারীর, দিনাজপুরে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা একজন ও এক শ্রমিক, চাঁদপরে একজন, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় বাবা ও ছেলেসহ বিভিন্ন স্থানে সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন ১০জন।

কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্টে এক ঝালমুড়ি বিক্রেতা মারা গেছেন। গতকাল সোমবার (৩০) সকাল সাড়ে ৭টার দিকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ওই ব্যক্তিকে অসুস্থ অবস্থায় নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

কুষ্টিয়া সিভিল সার্জন ডা. এইচ এম আনোয়ারুল ইসলাম জানান, তিন দিনের সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে ওই ব্যক্তিকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই তার মৃত্যু হয়। তার দেহে করানোভাইরাস সংক্রমণের জীবাণু আছে কিনা সেটা নিশ্চিত হতে নমুনা সংগ্রহ করা হয় বলে জানান তিনি।

পরিবারের সদস্যরা চিকিৎসকদের জানিয়েছে ওই ব্যক্তি (৪০) পেশায় ঝালমুড়ি বিক্রেতা। শহরের চৌড়হাস সাহাপাড়া এলাকায় পরিবারে নিয়ে ভাড়া বাসায় থাকতেন তিনি। গত শুক্রবার তার সর্দি দেখা দেয়। এরপর কাশি ও শ্বাসকষ্ট হতে থাকে।

যশোর : যশোরে হোম কোয়ারেন্টাইন শেষে ১৬তম দিনে গোলাম মোস্তফা (৬০) নামে মালয়েশিয়া ফেরত এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার সকালে নিজ বাড়িতে তিনি মারা যান। তিনি ঝিকরগাছা উপজেলার বাঁকড়া ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ছিলেন। এর পাশাপাশি তিনি মালয়েশিয়া শ্রমিক পাঠানোর ব্যবসায় জড়িত ছিলেন।

করোনা সন্দেহে যশোরে মৃত শিশুর লাশ তার স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। আতঙ্কে লাশ ফেলে যাওয়া স্বজনদের শনাক্ত করে গতকাল সোমবার দুপুরে লাশ হস্তান্তর করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

রোববার বিকেলে জ্বর সর্দি কাশি নিয়ে আসা ওই শিশুকে যশোর জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। এরপর গতকাল ভোরে শিশুটি মারা যায়।

শেরপুর : শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে তিন দিন শ্বাসকষ্টে ভোগার পর রোববার রাত ১০টার দিকে একজনের মৃত্যু হয়েছে। তার বয়স হয়েছিল ৫৫ বছর। তিনি খুলনা বাগেরহাট জেলার রামপালে পাইলিং শ্রমিকের কাজ করতেন। সেখানে কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় গত বৃহস্পতিবার তিনি নালিতাবাড়ী উপজেলার দক্ষিণ পলাশিকুড়া গ্রামে নিজ বাড়িতে আসেন।

নিহত ব্যক্তি স্থানীয় ফার্মেসি থেকে শ্বাস কষ্টের ওষুধ ব্যবহার করেছিলেন। তারপরও তার শ্বাস কষ্ট বন্ধ হয়নি। রাতে তার মৃত্যু হয়।

সুনামগঞ্জ : সুনামগঞ্জ শহরের পূর্ব নতুনপাড়ায় ৬০ বছর বয়সী নারীর কাশি ও শ্বাসকষ্টে মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার ভোরে অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে নেয়ার পর ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ওই নারীর মৃত্যুর পর এলাকায় উৎকণ্ঠা দেখা দেয়। এরপর তার স্বামীকে করোনা পরীক্ষাকরণের জন্য সিলেটে পাঠানো হয়েছে। হোম কোয়ারেন্টিনের মাধ্যমে তাকেও নজরদারিতে রাখা হয়েছে।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ও রোগীর স্বজনরা জানান, সুনামগঞ্জ শহরের পূর্ব নতুনপাড়ায় ৬০ বছর বয়সি নারী উচ্চ রক্তচাপ ও শ্বাসকস্টের রোগী ছিলেন। কয়েকদিন ধরে তিনি সর্দি-কাশিতেও ভুগছিলেন।

দিনাজপুর : দিনাজপুরের বিরামপুরে এক ব্যক্তি করোনা সন্দেহে নিজ বাড়িতে মারা গেছেন। তার বাড়ি বিরামপুর উপজেলার জোতবানী ইউনিয়নের তপসী গ্রামে। তার নাম ফরহাদ হোসেন অপি। বয়স ৪০। তিনি গত কয়েকদিন আগে কুমিল্লা থেকে জ্বর, সর্দিতে আক্রান্ত হয়ে বাড়িতে আসে। বিষয়টি সে গোপন রেখেছিল।
গতকাল সোমবার ভোরে তিনি রাতে মারা যান।

দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার আচোলকোল গ্রামের মৃত আব্দুল হামিদের ছেলে দিনমজুর ফরহাদ হোসেন তাজির (৩৫) নিজ বাড়িতে সর্দি, জ্বর, কাশি, ডাইরিয়া ও জন্ডিসে আক্রান্ত হয়ে গতকাল সোমবার সকালে নিজ বাড়িতে তার মৃত্যু হয়।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে বাবার মৃত্যুর দুই ঘণ্টা পর ছেলের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল সোমবার ভোর রাতে উপজেলার পানিশ্বর ইউনিয়নের সীতাহরণ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সীতাহরণ গ্রামের সাত্তার মিয়া (৯০) ও তার একমাত্র ছেলে ফজলুল হক (৪০)। ঘটনার পর এদিন সকালে নামাজে জানাজা শেষে গ্রামের কবরস্থানে বাবা-ছেলেকে পাশাপাশি স্থানে দাফন করা হয়।

চাঁদপুর : চাঁদপুর জেলার হাজীগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ী বাটা সু’র ডিলার মো. জাহাঙ্গীর হোসেন (৫০) জ্বর ও সর্দি, গলাব্যথায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। ঢাকার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে গত এক সপ্তাহ ধরে জ্বর, সর্দি ও গলাব্যথায় তিনি ভুগেছেন। গতকাল সোমবার সকালে তিনি মারা গেছেন বলে তার সহকর্মীরা জানিয়েছেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (19)
Shafik ৩১ মার্চ, ২০২০, ১:৫৭ এএম says : 0
আল্লাহতুমিআমাদেরকেমাফকোরো
Total Reply(0)
Md.Abu Bakkar Siddique ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৩৮ এএম says : 0
আমাদের দেশে ও কি মৃত্যুর মিছিল শুরু হয়ে গেল? আমাদের দেশের সরকার প্রধানের উচিৎ বাংলাদেশের প্রতিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত মানুষের জন্য কীট সরবরাহ করা। এবং তা অবশ্যই পর্যাপ্ত পরিমাণে।কোন মানুষের জন্য যেন কীট পেতে বিলম্ব না হয় অবশ্যই সে বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে। ইতালির অবস্থা দেখে যেন এই শিক্ষাটা আমরা কাজে লাগাই না হলে আমাদের এই ছোট্ট গরিব দেশটি এতোবড় বিপর্যয় রোধ করতে পারবে না। এবং যা করনীয় দ্রুততার সাথে করতে হবে।
Total Reply(0)
Monzu Alom ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৩ এএম says : 0
আপনারা দেখবেন আগামীকাল ফ্লোরা কি বলে !!
Total Reply(0)
Abdur Rouf Rony ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৩ এএম says : 0
দয়া করে কেউ করোনা ভাইরাস নিয়ে গুজব ছড়াবেন না। আসলে আমরা বাংলাদেশের মানুষ করোনা ভাইরাস এর ভয়াবহ রুপ সম্পর্কে ধারনা করতে পারছিনা। আমরা মনে করছি বাংলাদেশ করোনা ভাইরাস থেকে মুক্ত হয়ে গেছে। কিন্তু বিপদ যখন আসবে তখন শুধু লাশের মিছিল চেয়ে চেয়ে দেখা ছাড়া উপায় থাকবেনা।
Total Reply(0)
Nirob Prodhan ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৪ এএম says : 0
এটা আরো ভয়াবহ যে, করোনা আক্রান্ত না হয়েও জ্বর ঠান্ডা নিয়ে মানুষ এখন চিকিৎসা না পেয়ে অবশেষে মারা যাচ্ছে। এমতাবস্থায় দেশব্যাপী যেখানেই মানু‌ষের করোনার উপসর্গ পাওয়া যাবে সেখান থেকে তার নমুনা সংগ্রহ করে খুব দ্রুততার সাথে সঠিক ভাবে তা নির্নয়ের বিকল্প নেই, নয়তো সাধারণ রুগীর করুন মৃত্যুবরণ কোন ভাবেই মেনে নেয়া যায়না।
Total Reply(0)
Murtuza Chowdhury ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৪ এএম says : 0
করোনার বাংলা সংস্করণ হলো শ্বাসকষ্টে মৃত্যু!
Total Reply(0)
John Emoll ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৪ এএম says : 0
সংবাদ সম্মেলন সরকারের পলিসি নো কিট, নো টেস্ট, নো পেসেন্ট, নো করোনা ভাইরাছ!
Total Reply(0)
Mitu Sardar ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৫ এএম says : 0
নির্বাচনের সময় সাংসদরা চা পানের জন্য লাখ লাখ টাকা খরচ করতে পারেন তবে জাতির এই বির্পযয়ের মুখে যদি প্রতিটি এমপি এবং মন্ত্রী পাঁচ লাখ করে টাকা দেয় তাহলে জাতির বির্পযয় কিছুটা মোকাবেলা করতে পারবে। এমপি মন্ত্রী থেকে শুরু করে যদি ইউনিয়ন চেয়ারম্যান পর্যন্ত আসা যায় তাহলে মুটামুটি একটি ফান্ড হবে। অসহায় মানুষকে সহযোগিতা করতে সরকারের পক্ষে সহজ হবে। এইভাবে টাকা সংগ্রহ করা দরকার শিল্পপতিদের নিকট থেকেও।
Total Reply(0)
ক্রিক্রেট টু ক্রিক্রেট ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৫ এএম says : 1
আগে ও এ ভাবেই মরেছে,,, এখন করোনার সাফাই গাওয়া হচ্ছে। করোনা হলে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ মরতো আল্লাহ্ এখনো আমাদের রহমত করছেন।
Total Reply(0)
Md Safiullah ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৫ এএম says : 0
ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।
Total Reply(0)
Khairul Alam Ashrafi ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৫ এএম says : 0
মরার পরে এই পযন্ত যত টেস্ট হয়েছে ওইটাও তো করোনা সনাক্ত করতে দেখলাম না! এতো লুকোচুরি কেরে!!
Total Reply(0)
Hasan Mehedi ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৬ এএম says : 0
সাবাশ!!বাংলাদেশ!!পরীক্ষা কম রুগী কম।দূর্বলতা ও ব্যার্থতা নেই।ভাইরাসের সফলতার জন্য আ'লীগ সরকারকে চীন রাশিয়া ও ভারতের পক্ষ থেকে প্রাণঢালা অভিনন্দন।। এই ভাবে চলতে থাকুক।জাতী ও বিশ্ববাসী চিন্তা মুক্ত থাকুক।।
Total Reply(0)
Engr Mohi Uddin ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৬ এএম says : 0
গুজব:সম্মানিত রোগী আপনি মৃত্যু পর্যন্ত অপেক্ষা করেন। এরপর অবশ্যই আমরা আপনার নমুনা সংগ্রহ করবো। ফলাফল আগে জানিয়ে রাখি আপনি কোরনা নেগেটিভ ছিলেন। নিউমোনিয়ার কারণে মারা গেছেন। (পুরো এলাকা লকডাউন)
Total Reply(0)
Aminul Haque Ripon ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৭ এএম says : 0
সব খবর সঠিক ভাবে দেওয়া উচিত কারন সব সময়ই ত মানুষ মরছে আর এখন সবার মাঝে করোনা আতঙ্ক ।
Total Reply(0)
Mohsin Hassan ৩১ মার্চ, ২০২০, ১২:৫৭ এএম says : 0
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার দুইজন করোনা ভাইরাসে মারা যায়নি।একজন বার্ধক্যজনিত কারণে অপরজন স্ট্রোক করে মারা গেছে।
Total Reply(0)
Saiful Islam ৩১ মার্চ, ২০২০, ৬:৩১ এএম says : 0
সরকার করোনা ভাইরাস নিয়ে অবহেলা শুরু করছে,, যা মোটেও কাম্য না, সরকারের এই মুহূর্তে প্রতিটি বাড়ি বাড়ি স্বাস্থ্য কর্মী পাঠানো উচিত, প্রতিটা নাগরিকের স্বাস্থ্য পরিক্ষা করা উচিত, নচেত পরিস্থিতি সামাল দিতে পারবে না
Total Reply(0)
হিমেল ৩১ মার্চ, ২০২০, ৬:৪০ এএম says : 0
আল্লাহ আমাদের কে করোনাভাইরাস থেকে রক্ষা কর আমিন।
Total Reply(0)
Md manir Hossain ৩১ মার্চ, ২০২০, ৭:০০ এএম says : 0
ইতালিতে ৩ সপ্তাহপরে মৃত্যুরপুরীতে পরিনত হয়েছে আর আর চীন চার সপ্তাহের পর করোনামুক্ত ঘোষণা করতে শুরুকরে আর বাংলাদেশ দশদিন পরেই করোনা মুক্ত করে অন্য দেশকে প্রতিনিধিত্ব করতে সাস্হ্য,তথ্য,স্বরাষ্ট,খাদ্য,ত্রান ও দূর্যোগ,মন্ত্রীগন মাননীয় সড়ক মন্ত্রী ও ফ্লোরা ম্যাডামের নেতৃত্বে আমেরিকা, ভারত,স্পেন,ইতালি সফর করবেন জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশন এ জরুরীবিভাগে এ প্রস্তাব করা হোক
Total Reply(0)
Tulsi ৩১ মার্চ, ২০২০, ৭:৪৩ এএম says : 0
আজকাল ঠান্ডা জরের কারনে মানুষ মারা যাচ্ছে? এর কারন কি করনা ভাইরাস নাকি অন্য কিছু?
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন