ঢাকা, বুধবার, ০৫ আগস্ট ২০২০, ২১ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ফ্রান্স লিবিয়ায় তুরস্কের বাড়াবাড়ি সৈহ্য করবে না : ম্যাক্রন

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৪ জুন, ২০২০, ৩:০৮ পিএম

লিবিয়ায় সেনা পাঠানো নিয়ে মিশরকে সমর্থন দিয়েছে ফ্রান্স। দেশটির প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রন বলেন, তুরস্ক লিবিয়ায় আগুন নিয়ে খেলছে। ফ্রান্স লিবিয়ায় তুরস্কের বাড়াবাড়ি সৈহ্য করবে না। এ খবর দিয়েছে আল-অ্যারাবিয়া।

সম্প্রতি মিশরের প্রেসিডেন্ট আব্দেল ফাত্তাহ আল-সিসি সেনাবাহিনীকে বিদেশে যুদ্ধের প্রস্তুতি নেয়ার কথা বলেছে। তবে কাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে হবে তা স্পষ্ট না করলেও প্রায় সব বিশ্লেষকই নিশ্চিত যে লিবিয়ায় অবস্থানরত তুরস্কের সেনাবাহিনীই মিশরের টার্গেট। এ নিয়ে মিশরের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রন তুরস্ককে হুঁশিয়ারি বার্তা দিয়েছেন।

এর আগে ফ্রান্সের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, লিবিয়ার স্থিতিশীলতা ইউরোপের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ন। তাই লিবিয়ায় যে অভিযানের সিদ্ধান্ত মিশর নিয়েছে তা পুরোপুরি সমর্থন করে ফ্রান্স। একইসঙ্গে রাজনৈতিকভাবে মিশরকে সাহায্যের ঘোষণাও দিয়েছে প্যারিস।

এদিকে লিবিয়ার বিরুদ্ধে সামরিক অভিযান চালানোর ব্যাপারে আবদেল ফাত্তাহ আল-সিসি যে বক্তব্য দিয়েছেন তার বিরুদ্ধে পালটা হুঁশিয়ারি দিয়েছে লিবিয়ার হাই কাউন্সিল অফ স্টেট। এক বিবৃতিতে তারা জানায়, আমরা মিশরের সামরিক বাহিনীকে এই ধরনের জুয়ার ফাঁদে পা না দেয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। নইলে তাদেরকে ইয়েমেনের সেই পরিণতি আবারো মেনে নিতে হতে পারে। ১৯৬০ সালে ইয়েমেনে যুদ্ধ করতে গিয়ে বিপর্যয়ের মুখে পড়েছিল মিশর। লিবিয়ার হাই কাউন্সিল সেদিকেই ইঙ্গিত করেছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। কাউন্সিল আরো জানায়, লিবিয়া একটি স্বাধীন-সার্বভৌম দেশ। এর প্রতি ইঞ্চি ভূমি সরকারের নিয়ন্ত্রণে থাকা উচিত।

লিবিয়ার বিদ্রোহী নেতা জেনারেল খলিফা হাফতারের প্রতি সমর্থন দিয়ে আসছে মিশর। দেশটির প্রেসিডেন্ট সিসি শনিবার বলেছেন, তিনি বিদেশে সামরিক অভিযান চালানোর জন্য মিশরের সেনাবাহিনীকে প্রস্তুত থাকার নির্দেশ দিয়েছেন। খলিফা হাফতারের পক্ষে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে ফ্রান্স, রাশিয়া, সৌদি আরব, আরব আমিরাত ও মিশর। অপরদিকে লিবিয়ার সরকারি বাহিনীর পক্ষে রয়েছে তুরস্ক।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (3)
jack ali ২৪ জুন, ২০২০, ৫:০৩ পিএম says : 0
May Allah [SWT] curse upon cc and french prisident. Ameen.
Total Reply(0)
jack ali ২৪ জুন, ২০২০, ৪:৫৫ পিএম says : 0
You Muslim Killer France May Allah destroy you by corona virus.
Total Reply(0)
Subrata kundu ২৫ জুন, ২০২০, ৮:৪০ পিএম says : 0
Good quality news
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন