ঢাকা সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩ আশ্বিন ১৪২৭, ১০ সফর ১৪৪২ হিজরী

সারা বাংলার খবর

কোটালীপাড়ায় বিয়ের নামে প্রতারণা

কোটালীপাড়া (গোপালগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৯ জুলাই, ২০২০, ৫:৪১ পিএম

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় একাধিক বিয়ের নামে প্রতারণা করে আসছে সান্তানু মজুমদার নামে এক প্রতারক। সে উপজেলার তিলবাড়ী গ্রামের সুখদেব মজুমদারের ছেলে।৷ এঘটনায় গত শুক্রবার হতে স্ত্রীর অধিকার পেতে স্বামীর বাড়ীতে অবস্থান করেছেন তার দ্বিতীয় স্ত্রী।

স্হানীয় কিরন চন্দ্র মজুমদার,মিহির মজুমদার,রমেশ মজুমদার সহ এলাকাবাসী জানায় পিরোজপুর জেলার পুর্ব সিকদার হাওলা গ্রামের সুনিল মৃধার মেয়ে সুপর্না মৃধা (২৬) এর সাথে কোটালীপাড়া উপজেলার তিলবাড়ী গ্রামের সুখদেব মজুমদারের ছেলে সান্তানু মজুমদার (৩১) এর ৭ বছর পূর্বে গাজীপুরের জয়দেবপুর নোটারী পাবলিকের মাধ্যমে বিয়ে হয়। সুপর্না গাজীপুরে চাকুরি করার কারনে বিয়ের পর থেকে তাকে নিয়ে স্বামী সান্তানু মজুমদার সেখানেই বসবাস করে আসছেন।

এর পর সান্তানু মজুমদার, সুপর্না মৃধার সাথে প্রতারনা করে গ্রামের বাড়ী চলে এসে চিতশী গ্রামের পুর্নিমা বাগচীকে আবার বিয়ে করে এবং সুপর্নাকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি ধামকি দিতে থাকে।


বিয়ের খবর জানতে পেরে গত ৫ জুলাই গাজীপুরের কাসিমপুর থানায় সান্তানু মজুমদারের বিরুব্ধে একটি সাধারণ ডাইরি করে স্ত্রী সুপর্না মৃধা সান্তনু মজুমদারের গ্রামের বাড়ীতে এসে অবস্থান করে।


সুপর্না মৃধা আজ বুধবার সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করে বলেন আমি গাজীপুরে চাকুরি করি এসময় সান্তানু মজুমদারের সাথে এক বন্ধুুর মাধ্যমে পরিচয় হয় তখন সে আমাকে পছন্দ করে বিয়ে করে সাত বছর ধরে আমাকে নিয়ে সংসার করে এবং বিবাহের সাত বছরে সান্তানু আমার কাছ থেকে বিভিন্ন সময় ১৩ লক্ষ টাকা নিয়েছে। এর পর যখন শুনেছি সে বাড়ি এসে আবার বিয়ে করেছে তখন আমি কোটালীপাড়া থানায় একটি আভিযোগ করে ২৪ তারিখ থেকে তার বাড়ি এসে অবস্হান করছি,এখন আমি শুধু স্ত্রীর অধিকার পেতে চাই।

সাবেক ইউপি সদস্য বিকাশ মজুমদার,যুবলীগ নেতা হেলাল মোল্লা বলেন সান্তানু কয়েকটি মেয়েের জিবন নস্ট করেছে,তার পরিবারের সবাইর দুইটি করে বিয়ে,তাছারা সে এলাকায় জুয়া খেলে এবং সুদ ব্যবসা করে আসছে,আমরা এঘটনার সুষ্ঠ বিচার দাবি করি।


এর আগে লাখিরপার গ্রামের এক মেয়েকে চাকুরি দেওয়ার কথা বলে বিয়ের নামে প্রতারণা করে। এছারাও তার বিরুব্ধে এলাকায় জুয়ার আসর বসানো ও সুদ ব্যবসা করার অভিযোগ রয়েছে।


এব্যপারে সান্তানু মজুমদারের বক্তব্য পেতে তার বাড়ি গিয়ে তাকে পাওয়া যায়নি।


কোটালীপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি শেখ লুৎফর রহমান বলেন যদি অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্হা নিব।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন