ঢাকা রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০৩ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

প্রথম মহিলা গোয়েন্দা প্রধান পাচ্ছে আমেরিকা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৪ নভেম্বর, ২০২০, ৪:০০ পিএম

ভারতীয় বংশোদ্ভূত কমলা হ্যারিসকে ভাইস প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী বেছে নিয়ে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জেতার পরেই হোয়াইট হাউসের পরবর্তী চিফ অব স্টাফ পদে রন ক্লাইনের নাম চূড়ান্ত করেছিলেন জো বাইডেন। সোমবার আরও কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তার নাম প্রকাশ করা হয়েছে নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্টের টিমের পক্ষ থেকে। আফ্রো-আমেরিকান, হিস্পানিক (দক্ষিণ আমেরিকা বংশোদ্ভূত), মহিলা প্রতিনিধিত্বের মাধ্যমে ভারসাম্য রক্ষা করা হয়েছে ক্যাবিনেটে।

শুধু প্রথম মহিলা ভাইস প্রেসেডেন্ট নয়, বাইডেনের আমলেই প্রথম মহিলা গোয়েন্দা প্রধান পেতে চলেছে আমেরিকা। পরবর্তী ন্যাশনাল ইনটেলিজেন্স ডিরেক্টর হতে চলেছেন এভ্রিল হেইনস। দু’দশক আগে ৯/১১ সন্ত্রাসের জেরে তৈরি হওয়া এই দফতরের মূল কাজ আমেরিকার বিভিন্ন গোয়েন্দা এবং গুপ্তচর সংস্থার মধ্যে সমন্বয় রক্ষা। ওবামার আমলে জাতীয় নিরাপত্তা সংক্রান্ত আইনি দিকগুলি দেখভালের দায়িত্বে ছিলেন সিআইএ-র প্রাক্তন ডেপুটি ডিরেক্টর এভ্রিল। তিনি ২০০৭ থেকে ২০০৮ সাল পর্যন্ত সিনেটের পররাষ্ট্র সম্পর্ক কমিটির উপ-প্রধান পরামর্শকের দায়িত্ব পালন করেছিলেন। সেই কমিটির চেয়ারম্যান ছিলেন তৎকালীন সিনেটর বাইডেন। ২০০৮ সালেই আইন উপদেষ্টা হিসাবে স্টেট ডিপার্টমেন্টে যোগ দিয়েছিলেন এবং ২০১০ সালে তিনি প্রেসিডেন্টর উপ-সহকারী ও হোয়াইট হাউসে প্রেসিডেন্টের জাতীয় সুরক্ষা বিষয়ক উপ-পরামর্শক হয়েছিলেন।

এভ্রিল ২০১৩ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত সিআইএর ডেপুটি ডিরেক্টর হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন এবং তিনি ছিলেন ওই পদে অধিষ্ঠিত প্রথম মহিলা। ২০১৪ সালে জাতীয় সুরক্ষা বিষয়ক উপ-উপদেষ্টা হয়ে হোয়াইট হাউসে ফিরে এসেছিলেন।

বাইডেনের নতুন ক্যাবিনেটের তালিকার প্রথম নাম অ্যান্টনি ব্লিনকেন। প্রাক্তন এই কূটনীতিক আমেরিকার পরবর্তী পররাষ্ট্রমন্ত্রী হতে চলেছেন। বারাক ওবামার আমলে আমেরিকার পররাষ্ট্র দফতরের ডেপুটি সেক্রেটারি ছিলেন ব্লিনকেন। ভারত-আমেরিকা সহযোগিতা বৃদ্ধির নীতিতে বিশ্বাসী এই সাবেক কূটনীতিককে এ বারের ভোটের শুরু থেকেই বাইডেনের টিমে দেখা গিয়েছে। ছাত্রাবস্থায় অনেকদিন প্যারিসে কাটিয়েছেন তিনি। কূটনীতির পাশাপাশি সংগীত এবং শিল্পকলার প্রতিও তার অনুরাগ সুবিদিত।

ওবামার প্রথম দফায় আমেরিকার অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা বিভাগের (হোমল্যান্ড সিকিওরিটি) ডেপুটি সেক্রেটারি পদে ছিলেন আলেসান্দ্রো মায়োর্কাস। সে সময় সরকারের অত্যন্ত দক্ষ কর্মকর্তা হিসাবে তার পরিচিতি গড়ে উঠেছিল। মেক্সিকান বংশোদ্ভূত এই প্রতিনিধি এ বার আমেরিকার অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা সচিব হতে চলেছেন। পরবর্তী জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা হিসেবে জাক সুলিভানকে বেছে নিয়েছেন বাইডেন। ভাইস প্রেসিডেন্ট থাকাকালীন বাইডেনের জাতীয় নিরাপত্তা সংক্রান্ত উপদেষ্টার পদে ছিলেন সুলিভান। নিরাপত্তা সংক্রান্ত অগ্রাধিকার এবং বিদেশনীতির ভারসাম্য রক্ষায় তার সুনাম রয়েছে।

এছাড়াও জাতিসংঘে আমেরিকার দূত হিসেবে লিন্ডা টমাস গ্রিনফিল্ডকে বেছে নিয়েছেন নতুন প্রেসিডেন্ট। আফ্রো-আমেরিকান সমাজের এই প্রতিনিধি ২০১৩-’১৭ আমেরিকার পররাষ্ট্র দফতরের আফ্রিকা বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারী সেক্রেটারি পদে ছিলেন। সূত্র: ওয়াশিংটন পোস্ট, এনবিসি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন