ঢাকা, সোমবার, ১৯ আগস্ট ২০১৯, ০৪ ভাদ্র ১৪২৬, ১৭ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সারা বাংলার খবর

আবুল মনসুর আহমদের ১১৮তম জন্মবার্ষিকী আজ

প্রকাশের সময় : ৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

উপমহাদেশের প্রখ্যাত সাহিত্যিক, সাংবাদিক ও রাজনীতিবিদ আবুল মনসুর আহমদের ১১৮তম জন্মবার্ষিকী আজ। ময়মনসিংহের ত্রিশাল থানার ধানীখোলা গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৪৬-এ অবিভক্ত বাংলার কলকাতা থেকে প্রকাশিত দৈনিক ‘ইত্তেহাদ’-এর সম্পাদক ছিলেন এবং তৎকালীন ‘কৃষক’ ও ‘নবযুগ’ পত্রিকায়ও কাজ করেছেন। তিনি ছিলেন আধুনিক ও প্রগতিশীল সাংবাদিকতার এক অগ্রপথিক।
অত্যন্ত সফল রাজনীতিবিদ আবুল মনসুর আহমদ শের-এ বাংলা এ কে ফজলুল হক-এর যুক্তফ্রন্ট সরকারে প্রাদেশিক শিক্ষামন্ত্রী ছিলেন এবং ১৯৫৭ সালে তদানীন্তন প্রধানমন্ত্রী হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দির সময়ে ছিলেন কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী। পূর্ববাংলার স্বার্থের স্বপক্ষে শক্ত অবস্থান ও নানাবিধ উদ্যোগের জন্য, বিশেষ করে শিল্পায়নের ক্ষেত্রে তাঁর অবদান অনস্বীকার্য।
তাঁর রচনার মধ্যে রয়েছে ‘আয়না’ ‘আসমানী পর্দা’, ‘গালিভারের সফরনামা’ ও ‘ফুড কনফারেন্স’। তাঁর আত্মজীবনীমূলক দু’টি গ্রন্থ হচ্ছে ‘আত্মকথা’ ও ‘আমার দেখা রাজনীতির পঞ্চাশ বছর’ ও ‘বাংলাদেশের কালচার’ অন্যতম।
আবুল মনসুর আহমদ চল্লিশ, পঞ্চাশ ও ষাট-এর দশকজুড়ে ধর্মনিরপেক্ষতার স্বপক্ষে যে ভূমিকা রেখেছিলেন তা তুলনাহীন। পাকিস্তানের প্রথম দিকে বিরোধী দলীয় আন্দোলনে তাঁর ভূমিকা ছিল অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। তিনি ছিলেন, আওয়ামী লীগের প্রথম সারির একজন নেতা। ‘ইত্তেহাদ’ সম্পাদক হিসেবে ভাষা আন্দোলনে অসামান্য অবদান রাখেন। রাজনৈতিক কার্যকারণে আবুল মনসুর আহমদকে পঞ্চাশ দশকের শেষ দিকে ও ষাটের দশকের প্রথম দিকে কয়েকবার কারাবরণ করতে হয়েছে।
আবুল মনসুর আহমদ ১৮ মার্চ ১৯৭৯ সালে ঢাকায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
তাঁর জন্মদিন উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার ময়মনসিংহ শহরের ব্রহ্মপুত্রের পাড়ে ‘বীক্ষণ’র সাপ্তাহিক আসরে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রধান আলোচক হিসেবে ছিলেন ড. সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী।
আগামী ৬ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার বিকাল ৩টায় বাংলা একাডেমির আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ মিলনায়তনে আবুল মনসুর আহমদ স্মৃতি পরিষদের উদ্যোগে ‘আবুল মনসুর আহমদের জীবন দর্শন ও শিল্পভাবনা’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। এতে এমিরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন এমিরিটাস অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম। আলোচনা করবেন অধ্যাপক মনসুর মুসা, ফোকলোরবিদ শামসুজ্জামান খান, কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেনসহ আরো অনেকে।
অনুষ্ঠান উপলক্ষে স্মৃতি পরিষদ থেকে বের হবে ইমরান মাহফুজ সম্পাদিত ‘জীবনশিল্পী আবুল মনসুর আহমদ’ শিরোনামে একটি গ্রন্থ। অনুষ্ঠানে সবাইকে আসার আন্তরিক অনুরোধ জানানো হয়েছে। Ñবিজ্ঞপ্তি।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন