ঢাকা রোববার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২ আশ্বিন ১৪২৭, ০৯ সফর ১৪৪২ হিজরী

মহানগর

অবৈধ ওষুধ বিক্রি ও অনিয়ম রাজধানীর ৪টি হাসপাতালকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা

প্রকাশের সময় : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্টাফ রিপোর্টার : অবৈধ ওষুধ বিক্রিসহ বিভিন্ন অনিয়মের দায়ে রাজধানীর ৪টি হাসপাতালকে জরিমানা আদায় করেছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। এগুলো হলোÑ শ্যামলীর ঢাকা ট্রমা সেন্টার, কেয়ার হাসপাতাল, ইসলাম ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও পপুলার মেডিসিন কর্নার। এসব প্রতিষ্ঠান থেকে ২৪ লাখ ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। জরিমানা অনাদায়ে প্রতিষ্ঠানগুলো থেকে গ্রেফতার ১১ জনকে তিন মাস করে কারাদÐাদেশ দেয়া হয়েছে। এছাড়াও অভিযানে জব্দকৃত বিপুল পরিমাণ বিদেশী ওষুধ ধ্বংস করার জন্য ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরকে নির্দেশ দেয়া হয়।
গতকাল রোববার শ্যামলীতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরের সহযোগিতায় র‌্যাব-২ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে। আদালতের বিচারক ছিলেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সরওয়ার আলম।
র‌্যাব জানায়, অভিযানকালে দেখা গেছে, ঢাকা ট্রমা সেন্টার এন্ড স্পেশালাইজড অর্থোপেডিক হসপিটাল লিমিটেডে বিভিন্ন ডায়ানস্টিক টেস্টের জন্য ব্যবহƒত হচ্ছে মেয়াদউত্তীর্ণ রি-এজেন্ট (রাসায়নিক উপাদান)। ওটি (অপারেশন থিয়েটার) ও মাইক্রোবায়োলজি ল্যাব অপরিষ্কার ও নোংরা, রি-এজেন্ট রাখা ফ্রিজের ট্রের মধ্যে তেলাপোকাসহ মৃত পোকামাকড় থাকা, ফ্রিজের টেম্পারেচার সঠিক না থাকা এবং ল্যাবে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত টেকনিশিয়ান পাওয়া যায়নি। এসময় প্রতিষ্ঠানটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডাঃ জাহাঙ্গীর আলম, ব্যবস্থাপক আলী জিন্নাহ, ফার্মাসিষ্ট পাপ্পু ইসলাম ও রিসিপসনিষ্ট আফরোজা আক্তারকে আটক করে ভ্রাম্যমাণ আদালতে দেয়া হয়। দোষ স্বীকার করায় আদালত তাদেরকে ৮ লাখ টাকা জরিমান অনাদায়ে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদÐ দেয়।
ইসলাম ডায়াগনস্টিক ল্যাবরেটরীতে মেয়াদোত্তীর্ণ রি-এজেন্ট ব্যবহার, ল্যাব ফ্রিজের তাপমাত্রা রিডিং সঠিক না থাকা, ল্যাব ফ্রিজের মধ্যে বøাড, টিস্যু, মিডিয়া কালচার সামগ্রী রাখা, ডাক্তার ব্যতীত রিপোর্টে ব্যাংক স্বাক্ষর করায় প্রতিষ্ঠানটির মালিক শাহজাহান, মালিক খন্দকার নুরুল ইসলাম ও ল্যাব ইনচার্জ শামসুন্নাহারকে ৬ লাখ টাকা অর্থদÐ অনাদায়ে প্রত্যেককে ৩ মাসের বিনাশ্রম কারাদÐ দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত। এছাড়া আদালত চলাকালে কার্যক্রমে বিঘœতা সৃষ্টি করায় নাজিমুদ্দিন ভুইয়া নামে এক ব্যক্তিকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদÐ দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত।
পপুলার মেডিসিন কর্ণার নামে একটি ওষুধের দোকানে অবৈধভাবে আমদানিকৃত বিপুল পরিমাণ উচ্চমূল্যের রেজিস্ট্রেশনবিহীন বিদেশী ওষুধ বিক্রির দায়ে ফার্মেসী ইনচার্জ শওকত তালুকদারকে ৫ লাখ টাকা অর্থদÐ অনাদায়ে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদÐ দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত।
কলেজেগেটে কেয়ার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ল্যাবে মেয়াদোত্ত¡ীর্র্ণ রি-এজেন্ট দিয়ে বিভিন্ন ধরনের রোগ নির্ণয় করা, অত্যন্ত নোংরা পরিবেশে ল্যাব পরিচালনার দায়ে ম্যানেজার মোশাররফ হোসেন, ল্যাব ইনচার্জ বাবুল সাহা এবং গোলাম মোস্তফাকে আটক করে ৫ লাখ টাকা অর্থদÐ অনাদায়ে প্রত্যেককে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদÐ দেয় র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন