মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০২ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী

আইটি এন্ড টেলিকম

কম্পিউটার দ্রুত গতি করতে সহজ সমাধান

প্রকাশের সময় : ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬, ১২:০০ এএম

শওকত আলম পলাশ

কম্পিউটার ব্যবহারকারীদেও দৈনন্দিন সমস্যা পিসি স্লো। নিত্য ব্যবহারে বেশি পরিমাণে টেম্পোরারি ও জাংক ফাইল জমা হওয়াসহ ভাইরাসের কারণেও পিসি ধীরগতির হতে পারে। তবে, আপনি চাইলে ঘরে বসেই সাধারণ কিছু ফিক্স ব্যবহার করে কম্পিউটার দ্রুতগতির করতে পারেন।

রিসেন্ট ফাইল অপসারণ
সর্বশেষ সম্পাদিত কাজই রিসেন্ট ফাইল। রিসেন্ট ফাইল মুছতে কীবোর্ডের উইন্ডোজ এবং জ বাটন একসাথে চাপুন। রান উইন্ডো এলে ৎবপবহঃ টাইপ করুন ও ঊহঃবৎ চাপুন। নতুন উইন্ডোতে টেম্পোরারি ফাইলসমূহ প্রদর্শিত হলে পঃৎষ এবং অ একসাথে চেপে সব সিলেক্ট করুন। ‘উবষবঃব’ বাটন প্রেস করুন। মুছে ফেলা হবে কি না জানতে চাইলে ‘ঈড়হঃরহঁব’ দিন। কোনো ফাইল চালু অবস্থায় থাকলে তা অপসারণ করা যাবে না জানিয়ে বার্তা এলে ‘ঝশরঢ়’ বাটন প্রেস করুন। অপ্রয়োজনীয় ফাইল অপসারণ হয়ে গেছে, এবার কম্পাইলেশনের পালা। কম্পিউটারের বিন্যাসসমূহ সাজিয়ে নেয়ার নামই ‘কম্পাইলেশন’। শুনতে একটু খটমট লাগলেও এটি করতে বড়জোর কয়েক সেকেন্ড সময় লাগে।

টেম্পোরারি ফাইল অপসারণ
বিভিন্ন কাজ করার সময় কম্পিউটার তার প্রয়োজন অনুযায়ী বিভিন্ন ফাইলের অনুলিপি তৈরি করে নেয়, যা আর পরে কোনো কাজে না লাগলেও থেকে যায় নির্ধারিত জায়গাতেই। এসবই টেম্পোরারি ফাইল। টেম্পোরারি ফাইল মুছতে কীবোর্ডের উইন্ডোজ এবং জ বাটন একসাথে চাপুন। রান উইন্ডো এলে ঃবসঢ় টাইপ করুন ও ঊহঃবৎ চাপুন। নতুন উইন্ডোতে টেম্পোরারি ফাইলসমূহ প্রদর্শিত হলে পঃৎষ এবং অ একসাথে চেপে সব সিলেক্ট করুন। ‘উবষবঃব’ বাটন প্রেস করুন। মুছে ফেলা হবে কি না জানতে চাইলে ‘ঈড়হঃরহঁব’ দিন। কোনো ফাইল চালু অবস্থায় থাকলে তা অপসারণ করা যাবে না জানিয়ে বার্তা এলে ‘ঝশরঢ়’ বাটন প্রেস করুন।

প্রিফেচড ফাইল অপসারণ
প্রিফেচড ফাইল’সমূহও কোনো কাজে না লাগলেও কম্পিউটারে থেকে যায়। এই ফাইলগুলো মুছতে কীবোর্ডের উইন্ডোজ এবং জ বাটন একসাথে চাপুন। রান উইন্ডো এলে ঢ়ৎবভবঃপয টাইপ করুন ও ঊহঃবৎ চাপুন। নতুন উইন্ডোতে টেম্পোরারি ফাইলসমূহ প্রদর্শিত হলে পঃৎষ এবং অ একসাথে চেপে সব সিলেক্ট করুন। ‘উবষবঃব’ বাটন প্রেস করুন। মুছে ফেলা হবে কি না জানতে চাইলে ‘ঈড়হঃরহঁব’ দিন। কোনো ফাইল চালু অবস্থায় থাকলে তা অপসারণ করা যাবে না জানিয়ে বার্তা এলে ‘ঝশরঢ়’ বাটন প্রেস করুন।

হিডেন টেম্পোরারি ফাইল অপসারণ
টেম্পোরারি ফাইলের মতোই ‘হিডেন টেম্পোরারি ফাইল’। হিডেন টেম্পোরারি ফাইল মুছতে কীবোর্ডের উইন্ডোজ এবং জ বাটন একসাথে চাপুন। রান উইন্ডো এলে %ঃবসঢ়% টাইপ করুন ও ঊহঃবৎ চাপুন। নতুন উইন্ডোতে টেম্পোরারি ফাইলসমূহ প্রদর্শিত হলে পঃৎষ এবং অ একসাথে চেপে সব সিলেক্ট করুন। ‘উবষবঃব’ বাটন প্রেস করুন। মুছে ফেলা হবে কি না জানতে চাইলে ‘ঈড়হঃরহঁব’ দিন। কোনো ফাইল চালু অবস্থায় থাকলে তা অপসারণ করা যাবে না জানিয়ে বার্তা এলে ‘ঝশরঢ়’ বাটন প্রেস করুন।

কম্পাইলেশন
কীবোর্ডের উইন্ডোজ এবং জ বাটন একসাথে চাপুন। রান উইন্ডো এলে টাইপ করুন ‘ঃৎবব’ এবং ‘ঊহঃবৎ’ প্রেস করুন। এই পদ্ধতিতে দুই থেকে তিনবার ট্রি রান করান, এবার ডেস্কটপ থেকে রিসাইকেল বিন খালি করে রিস্টার্ট দিয়ে দেখুন তো কোনো পরিবর্তন চোখে পড়ছে কি না? আপনি চাইলে অবশ্য উপরের এই সব কাজও এক ক্লিকেই সমাধা করতে পারেন! এজন্য আপনার পিসিতে প্রয়োজন অনুযায়ী যঃঃঢ়ং://িি.িৎবাবধহঃরারৎঁং.পড়স/নফ-নহ/ফড়হিষড়ধফ ঠিকানা থেকে ডাউনলোড করে নিন রিভ-এর অ্যান্টিভাইরাস, ইন্টারনেট সিকিউরিটি বা টোটাল সিকিউরিটি ভার্সন ও ইনস্টল করে নিন আপনার কম্পিউটারে। এবার রিভ অ্যান্টিভাইরাস চালু করে ‘অফাধহপবফ’ অপশন থেকে ‘ঈষবধহবৎ’ অংশে প্রবেশ করুন ও ‘ঝুংঃবস ঈষবধহবৎ’ প্রেস করুন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন