রোববার, ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২২ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যে সারাদেশে পবিত্র ঈদ এ মিলাদুন্নবী (সা.) পালিত হচ্ছে

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ অক্টোবর, ২০২১, ৭:১৭ পিএম

ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্য ও যথাযথ মর্যাদায় সারাদেশে পবিত্র ঈদ এ মিলাদুন্নবী (সা.) পালিত হচ্ছে। এ দিনটি মানব জাতির মহোত্তম পথপ্রদর্শক মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) এর জন্ম ও ওফাতের দিন। দিনটি মুসলিম উম্মাহর কাছে পবিত্র ঈদ-এ মিলাদুন্নবী (সা.) নামে পরিচিত। মুসলমানরা ইবাদত-বন্দেগির মাধ্যমে এ দিনটি পালন করছেন। প্রায় সাড়ে ১৪শ’ বছর আগে এই দিনে আরবের পবিত্র মক্কার মরু প্রান্তরে মা আমিনার কোল আলো করে জন্ম নিয়েছিলেন বিশ্বনবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)। আবার এই দিনে তিনি মহান আল্লাহ তা‘আলার ডাকে সাড়া দিয়ে পৃথিবী ছেড়ে চলে যান।

সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোগে এ দিনকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়। এ দিনটি উপলক্ষে প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পৃথক পৃথক বাণী দেন। এ সময় দেশের সব সরকারি ও বেসরকারি ভবন ও অফিস প্রাঙ্গণে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। বিদেশি কূটনৈতিক মিশন ও দূতাবাসগুলোতেও জাতীয় পতাকা উত্তোলিত হয়। সরকারি উদ্যোগে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বিভিন্ন কর্মসূচি গৃহীত হয়।
এ দিনটি উপলক্ষে বেসরকারিভাবেও বিভিন্ন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। মসজিদ, মাদরাসা, মাজার ও দরবার শরীফগুলোতে আলেম-ওলামাসহ ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা উৎসাহ উদ্দীপনার সাথে মাহফিল ও জুলুসসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করেন।

বিভিন্ন অনুষ্ঠানে নেতৃবৃন্দ বলেন, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) হলেন বিশ্ব শান্তির অগ্রদূত। তার সার্বজনীন শান্তির বার্তা দুনিয়ার সর্বত্র ছড়িয়ে দিতে হবে। সমাজে সাম্য ও সম্প্রীতি প্রতিষ্ঠায় তাঁর আদর্শের কোনো বিকল্প নেই। আল্লাহ তা‘আলা পবিত্র কোরআনুল কারীমে বলেছেন, আমি আপনাকে পুরো জগদ্বাসীর জন্য রহমতস্বরূপ প্রেরণ করেছি। (সূরা আম্বিয়া, আয়াত নং-১০৭)। জীবনের সব ক্ষেত্রের জন্যই প্রিয়নবী (সা.) আমাদের আদর্শ। কোরআন মাজীদে আল্লাহ তা‘আলা বলেছেন, রসূলুল্লাহ (সা.)-এর জীবনেই তোমাদের জন্য রয়েছে উত্তম আদর্শ। (সূরা আহজাব, আয়াত নং-২১)।

নেতৃবৃন্দ বলেন, এক সময় গোটা আরব অন্ধকারে নিমজ্জিত ছিল। তারা আল্লাহকে ভুলে গিয়ে নানা অপকর্মে লিপ্ত হয়ে পড়েছিল। আরবের সর্বত্র দেখা দিয়েছিল অরাজকতা ও বিশৃঙ্খলা। এ যুগকে বলা হতো আইয়ামে জাহেলিয়াত। তখন মানুষ হানাহানি ও কাটাকাটিতে লিপ্ত ছিল এবং মূর্তিপূজা করতো। অন্ধকার সেই যুগ থেকে মানবকুলের মুক্তিসহ তাদের আলোর পথ দেখাতে মহান আল্লাহ তা‘আলা রসূলুল্লাহকে (সা.) প্রেরণ করেন এই ধরাধামে। মহানবী অতি অল্প বয়সেই আল্লাহর প্রেম অনুরক্ত হয়ে পড়েন এবং প্রায়ই তিনি হেরা পর্বতের গুহায় ধ্যানমগ্ন থাকতেন।

বাংলাদেশসহ বিশ্ব মুসলিম সম্প্রদায় এ দিনটি ঈদে মিলাদুন্নবী হিসেবে পালন করে থাকেন। পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী পালনের জন্য সরকার, বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও সংগঠন নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। এসব কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে মহানবী (সা.)-এর ওপর আলোচনা, র‌্যালী, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল।
এ উপলক্ষে গত মঙ্গলবার থেকে বায়তুল মোকাররমের চত্বরে মাসব্যাপী ইসলামী বইমেলার আয়োজন করা হয়েছে। ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান বিকেলে ইসলামী বইমেলা উদ্বোধন করেছেন। প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত বইমেলা খোলা থাকবে। ইসলামিক ফাউন্ডেশনের অন্যান্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে জাতীয় মসজিদে প্রতিদিন বাদ মাগরিব থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত ওয়াজ মাহফিল, সপ্তাহব্যাপী সেমিনার, স্কুল, কলেজ ও মাদরাসার শিক্ষার্থীদের নিয়ে প্রতিযোগিতামূলক অনুষ্ঠান, রসূল (সা.)-কে নিয়ে স্বরচিত কবিতা পাঠের আসর, কেরাত মাহফিল, হামদ-নাত প্রতিযোগিতা, মহানবীর (সা.) জীবন ও শিক্ষাবিষয়ক আলোচনা সভা।

পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (স.) উদযাপন উপলক্ষে দেশের সব হাসপাতাল, কারাগার, সরকারি শিশুসদন, বৃদ্ধ নিবাস, মাদকাসক্তি নিরাময়কেন্দ্রে উন্নত খাবার পরিবেশনের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্নডারীয়া : পবিত্র ঈদ এ মিলাদুন্নবী (সা.)- উপলক্ষে আজ রমনাস্থ সোহরাওয়ার্দী উদ্যান থেকে আনজুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভান্নডারীয়া চট্টগ্রাম এর উদ্যোগে নগরীতে বিশাল বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। এর আগে রমনা মিলনায়তনে মিলাদ মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন তথ্য মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

নারিন্দা মশুরীখোলা দরবার শরীফ : এদিকে, পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.)- উপলক্ষ্যে ঐতিহ্যবাহী নারিন্দা মশুরীখোলা দরবার শরীফের পীর সাহেব আলহাজ মাওলানা শাহ্ মুহাম্মদ আহছানুজ্জামান-এর নেতৃত্বে মঙ্গলবার সকালে দরবার শরীফ থেকে জশনে জুলুস (র‌্যালী) বের করা হয়। জশনে জুলুসে দারুল উলূম আহসানিয়া কামিল মাদরাসা, লতিফিয়া হাফিজিয়া মাদরাসা, আহসানিয়া এতিমখানার ছাত্র ও শিক্ষকসহ দরবার শরীফের মুরিদান, ভক্তবৃন্দ এবং এলাকাবাসী অংশগ্রহণ করেন। র‌্যালীটি মশুরীখোলা দরবার শরীফ হতে বের হয়ে, দয়াগঞ্জ, ধোলাইখাল, নবাবপুর, জয় কালমন্দির, আর. কে. মিশন রোডসহ বিভিন্ন এলাকা প্রদক্ষিণ করে পুনরায় দরবার শরীফে এসে শেষ হয়।

ঢাকাস্থ রাজারবাগ দরবার শরীফে ১২ রবিউল আওয়াল উপলক্ষে বেশ কিছু কর্মসূচি পালিত হয়। যেমন বিশেষ ওয়াজ ও দোয়ার মাহফিল, প্রিয় নবীজির জীবনী নিয়ে রচিত বই প্রদর্শনী, সুন্নতি দ্রব্যের প্রদর্শনী এবং শতাধিক সুসজ্জিত গাড়িতে রাজধানীর রাস্তায় বিশেষ র‌্যালী বের করা হয়।

বাংলাদেশ ইসলামী যুবসেনার বর্ণাঢ্য র‌্যালি : আজ সকালে বাংলাদেশ ইসলামী যুবসেনা ঢাকা মহানগরের উদ্যোগে জাতীয় প্রেসক্লাবের সম্মুখে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উপলক্ষে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি ও আলোচনা সভা শাখা সভাপতি প্রিন্সিপাল ডা. এস এম সরওয়ারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়।

সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ মাসউদ হোসাইন ও প্রস্তুতি কমিটির আহবায়ক যুবনেতা মুহাম্মদ মিজানুর রহমানের যৌথ সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ ইসলামী যুবেসনার সভাপতি গোলাম মাহমুদ ভূঁইয়া মানিক। এতে আরো বক্তব্য রাখেন, ঢাকা মহানগরের সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ আবদুল হাকিম, বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনার সাবেক সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ ইমরান হুসাইন তুষার, কাজী মুহাম্মদ তৈয়ব আলী, বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনার অর্থ সম্পাদক মোহাম্মদ আরিফুল ইসলাম, হাফেজ ওমর ফারুক, হাফেজ জাহিদুর রহমান, মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন, মোহাম্মদ আনিসুর রহমান, ইয়াসিন রাসেল, গাজী সাইফুল ইসলাম, মোহাম্মদ উল্লাহ্, আল আমিন, শেখ মুহাম্মদ ফরিদ, হাফেজ আলামুল হুদা জুনায়েদ, হাফেজ মুহাম্মদ কামাল হোসেন, মুহাম্মদ শরিফুল ইসলাম ও মুহাম্মদ শহিদুল ইসলাম।

সভায় নেতৃবৃন্দ বলেন, প্রিয় নবির আগমনেই বিশ্বে শান্তি প্রতিষ্ঠা হয়েছে। তার পূর্বে সারা বিশ্ব অশান্তির দাবানলে ভষ্মিভূত ছিল। কোন কিছুর বালাই ছিলনা। হাহাকার আর অসহায়ত্ব মানুষের সম্ভব ছিল। বিশ্ব নবির আগমনে সকল অন্যায়-অত্যাচারের কবর রচনা হয়। নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, সাম্প্রদায়িক-সম্প্রীতি সমন্বিত রাষ্ট্র ব্যবস্থা গঠনে প্রিয় নবির আদর্শের কোন বিকল্প নেই। সকল ধর্মের অধিকার নিশ্চিত করেছিলেন বলেই আজ তিনি বিশ্বে মহান। সুতরাং আল্লাহর প্রেরিত এই নিয়ামতের শুকরিয়া আদায় করা প্রত্যেক মুমিন মুসলমানের ঈমানী দায়িত্ব। এ সময় বিভিন্ন রাজনৈতিক, অরাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠন সংহতি প্রকাশ করে। পরে একটি বিশাল বর্ণাঢ্য র‌্যালি জাতীয় প্রেসক্লাবে থেকে বের হয়ে গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে পল্টন মোড়ে গিয়ে শেষ হয়।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
ফারুক হোসেন ২০ অক্টোবর, ২০২১, ১০:০৮ পিএম says : 0
সবাইকে পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সাঃ) এর শুভেচ্ছা। সকল ঈদের সেরা ঈদ, ঈদে মিলাদুন্নবী (সাঃ)।
Total Reply(0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন