বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৭ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

স্বাস্থ্য

ট্রাইগ্লিসারাইড সম্পর্কে সচেতন থাকুন

| প্রকাশের সময় : ২১ জানুয়ারি, ২০২২, ১২:০৩ এএম

ট্রাইগ্লিসারাইড কি? ট্রাইগ্লিসারাইড রক্তে বিদ্যমান এক ধরনের ফ্যাট। রক্তে ট্রাইগ্লিসারাইডের স্বাভাবিক মাত্রা প্রতি ডেসিলিটারে ১৫০ মিলিগ্রাম বা তার চেয়ে কম। সাম্প্রতিক সময়ে আমরা যেসব স্নেহ জাতীয় খাবার খেয়েছি ট্রাইগ্লিসারাইড তা দেখায়। আর কোলষ্টেরল দেখায় আমরা লম্বা সময় ধরে কি ধরনের খাবার খেয়েছি। যখন আমরা চর্বি জাতীয় খাবার খাই তখন এটি ট্রাইগ্লিসারাইড হিসাবে শোষিত হয়। ফ্যাটি খাবার খাওয়ার কিছু দিন পর আমাদের রক্তে ট্রাইগ্লিসারাইডের পরিমান বেশি থাকবে। তারপর লিভার এই ট্রাইগ্লিসারাইডকে ফ্যাট হিসাবে এডিপোজ টিস্যুতে জমা রাখে এবং এর কিছু অংশকে কোলষ্টেরলে রূপান্তরিত করে। এর ফলে খাওয়ার কিছু দিন থেকে কয়েক সপ্তাহ পর্যন্ত রক্তে উচ্চ কোলষ্টেরল থাকতে পারে। কোলষ্টেরল এর ন্যায় ট্রাইগ্লিসারাইডও সামান্য পরিমানে প্রয়োজন শরীর সুস্থ রাখার জন্য। কিন্তু পরিমানে যখন বেশি হয়ে যায় তখন তা শারীরিক নানাবিধ জটিলতার সৃষ্টি করে থাকে।

ট্রাইগ্লিসারাইড এর পরিমান বেশি হলে: ট্রাইগ্লিসারাইড এর মাত্রা বেশি হলে তা আপনার হৃদরোগের ঝুঁকি এবং মেটাবলিক সিনড্রোমের ঝুঁকি বৃদ্ধি করতে পারে। মেটাবলিক সিনড্রোমও হৃদরোগ, ডায়াবেটিস এবং ষ্ট্রোকের জন্য ঝুঁকিস্বরূপ। ওবেসিটি বা মোটা হওয়া, ডায়াবেটিস, ধুমপান, এলকোহল সেবন, শারীরিক পরিশ্রমে অনীহা উচ্চ ট্রাইগ্লিসারাইড এর মাত্রার জন্য ঝুঁকিস্বরূপ। যখন ট্রাইগ্লিসারাইড এর মাত্রা বেশি তখন মেটাবলিক সিনড্রোমও বিপদজনক অবস্থার সৃষ্টি করতে পারে। মেটাবলিক সিনড্রোম বলতে বুঝায় অনেকগুলো মেটাবলিক বা বিপাকজনিত অচলাবস্থা যখন একসাথে দেখা দিয়ে থাকে। মেটাবলিক সিনড্রোমের কারণে আপনার হৃদরোগের সম্ভাবনা থাকে। প্রাপ্ত বয়স্কদের শতকরা ২৩ ভাগ মেটাবলিক সিনড্রোমে আক্রান্ত হয়ে থাকে। মেটাবলিক সিনড্রোম আপনার হৃদরোগ, ষ্ট্রোক এবং ডায়াবেটিস হওয়ার ঝুঁকি বৃদ্ধি করে।

করণীয়ঃ ট্রাইগ্লিসারাইড এর মাত্রা বেশি হলে ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী ফেনোফাইব্রেট জাতীয় ঔষধ নির্দিষ্ট নিয়মে সেবন করতে পারেন। নিয়মিত প্রতিদিন ৩০ মিনিট করে হাঁটার অভ্যাস করুন। তেল বা চর্বি জাতীয় খাবার পরিবহার করুন। সাধারন তেলের পরিবর্তে লো ফ্যাট তৈল খান, প্রয়োজনে অলিভ তেল, কেনোলা তেল, নারিকেল তেল, সূর্যমুখী তেল ইত্যাদি ব্যবহার করুন।

ডাঃ মোঃ ফারুক হোসেন
ইমপ্রেস ওরাল কেয়ার
বর্ণমালা সড়ক, ইব্রাহিমপুর, ঢাকা।
মোবাইল ঃ ০১৮১৭৫২১৮৯৭
ই-মেইল ঃ dr.faruqu@gmail.com

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন