সোমবার, ০৮ আগস্ট ২০২২, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৯, ০৯ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী

সারা বাংলার খবর

২ পক্ষের হট্টগোলে পিরোজপুরে মহিলা আ.লীগের সম্মেলন পণ্ড

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৯ জুন, ২০২২, ১১:০২ পিএম

পিরোজপুরে দুই পক্ষের উত্তেজনা, হট্টগোল এবং হাতাহাতির ঘটনায় পণ্ড হয়ে গেছে মহিলা আওয়ামী লীগ জেলা শাখার ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। বুধবার (২৯ মে) দুপুরে শহরের শিল্পকলা একাডেমির সম্মেলনকক্ষে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার। তবে নেতা-কর্মীদের হট্টগোলের কারণে কেন্দ্রীয় নেত্রীবৃন্দ সম্মেলন শেষ না করেই সম্মেলনস্থল ত্যাগ করেন।

এ সময় কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি-সম্পাদকের গাড়ির সামনে শুয়ে পড়েন জেলা শাখার নেতাকর্মীরা। সম্মেলন শেষে কমিটি ঘোষণার দাবি জানান তারা। ঘণ্টাব্যাপি কেন্দ্রীয় নেতাদের অবরুদ্ধ করে রাখার পর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির হস্তক্ষেপে ঘটনাস্থল থেকে সার্কিট হাউজে পৌঁছাতে সক্ষম হন কেন্দ্রীয় নেতারা। জানা যায়, আজ সকালে শিল্পকলা একাডেমি মিলনয়াতনে জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের উদ্ধোধন করেন কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাফিয়া খাতুন। সম্মেলনে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদা বেগম।

সম্মেলন শুরু হলে লুনা আক্তার নামে এক কর্মীর বক্তব্য দেওয়া নিয়ে হট্টগোল শুরু হয়। পরে কেন্দ্রীয় নেতাদের সিদ্ধান্তে শিরিনা আফরোজ নামে আরেকজনকে বক্তব্য দিতে মঞ্চে ডাকা হয়। এ সময় প্রতিবাদ করে জেলা কমিটির একাংশের নেতা-কর্মীরা। এ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে তুমুল হট্টগোল ও হাতাহাতি শুরু হয়। এক পর্যায় কেন্দ্রীয় নেতারা সভামঞ্চ ত্যাগ করে চলে যাওয়ার প্রস্তুতি নেন।জেলা কমিটির সভাপতি-সম্পাদকসহ অন্যান্য নেতা-কর্মীরা সম্মেলন শেষ করে কমিটি ঘোষণা দিতে চাপ দেন কেন্দ্রীয় নেতাদের। তারা চলে যেতে চাইলে পথ আটকে কেন্দ্রীয় নেতাদের গাড়ির সামনে শুয়ে পড়েন শতাধিক নেতা-কর্মী। ঘণ্টাব্যাপী সেখানে গাড়িতে আটকে পড়েন কেন্দ্রীয় কমটির সভাপতি-সম্পাদকসহ অন্যরা। পরে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি একেএমএ আউয়াল ও পুলিশের হস্তক্ষেপে কেন্দ্রীয় নেতারা সার্কিট হাউজে যেতে সক্ষম হন।

এ ঘটনার পর দুপুরে শিল্পকলা একাডেমি মিলনয়াতনে সংবাদ সম্মেলন করে জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ। সংবাদ সম্মেলনে জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি লায়লা পারভিন ও সাধারণ সম্পাদক সাহিদা বারেক অভিযোগ করে বলেন, কেন্দ্রীয় কমিটির নেতারা একটি দুরভিসন্ধি নিয়ে সম্মেলন করতে এসেছেন। জেলা কমিটির সিদ্ধান্তের বাইরে তাদের খেয়ালখুশি মতো যাকে-তাকে বক্তব্য দিতে মঞ্চে ডাকেন। এ নিয়ে কর্মীদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়। সম্মেলনে ভোটের মাধ্যমে কমিটি গঠনের জন্য মতামত দিয়েছিল জেলা কমিটি। কিন্তু কেন্দ্রীয় নেতারা তা না শুনে সভায় হট্টগোলের অজুহাত দেখিয়ে সম্মেলন না করে চলে যান। মহিলা আওয়ামী লীগের কর্মী ও নাজিরপুর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান লুনা আক্তার অভিযোগ করে বলেন, সম্মেলনে বক্তব্য দিতে গেলে অপর পক্ষের মহিলা কর্মীরা তাকে লাঞ্চিত করার চেষ্টা করেন।

মহিলা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সাফিয়া খাতুন জানান, সম্মেলনে কিছু অপ্রীতিকর ঘটনার কারণে সম্মেলন শেষ না করে আমরা চলে এসেছি। এ বিষয় ঢাকা পৌঁছে দলীয় ফোরামে আলোচনা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত জানানো হবে। পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আ জ মো. মাসুদ্দুজ্জামান জানান, তাদের অভ্যন্তরীণ সমস্যার কারণে সম্মেলন শেষ না করে কেন্দ্রীয় নেতারা চলে গেছেন। এ ছাড়া সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন