সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২০ ফাল্গুন ১৪৩০, ২২ শাবান সানি ১৪৪৫ হিজরী

সারা বাংলার খবর

রক্ত দিয়ে হলেও তত্ত্ববধায়ক ব্যবস্থা ফিরিয়ে আনা হবে : খুলনায় বিএনপি নেতৃবৃন্দ

খুলনা ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৪:৪২ পিএম

নির্বাচন কমিশন ঘোষিত আগামী সংসদ নির্বাচনের রোডম্যাপ প্রত্যাখ্যান করে খুলনা মহানগর বিএনপির আহবায়ক শফিকুল আলম মনা বলেছেন, কোন রোডম্যাপে কাজ হবে না। ভোট হতে হবে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে। তার আগে এ্ই অবৈধ নিশিরাতের সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে। বিএনপির নেতাকর্মীদের রক্তে সারা দেশ রঞ্জিত। প্রয়োজনে আরও রক্ত দিয়ে গণতন্ত্র ও ভোটের অধিকার ফিরিয়ে আনা হবে।
রাজধানীর পল্লবী সহ দেশব্যাপী চলমান কর্মসূচিতে পুলিশের গুলিবর্ষণ, আওয়ামী সন্ত্রাসীদের নৃশংস হামলা এবং সাবেক মন্ত্রী বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বরকতউল্লা বুলুর ওপর আওয়ামী সন্ত্রাসীদের হামলার বিরুদ্ধে আজ রোববার (১৮ অক্টোবর) খুলনায় অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। বেলা সাড়ে ১১টায় নগরীর কে ডি ঘোষ রোডস্থ দলীয় কার্যালয়ের সামনে মহানগর ও জেলা বিএনপির যৌথ উদ্যোগে কর্মসূচি পালিত হয়।
সমাবেশে বক্তারা বলেন, এই সরকার চরমভাবে ব্যর্থ, অযোগ্য ও লুটেরা। পদে পদে তাদের ব্যর্থতা ও তাবেদারি প্রমাণিত। জনগণ তাদের সাথে নেই। এরা টিকে আছে বিদেশী প্রভু ও দেশীয় অস্ত্রবাজ বাহিনীর ছত্রছায়ায়। জ¦ালানী তেল, নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদ জানাতে বিএনপির কর্মসূচিতে গুলি করে তিনজনকে হত্যা করা হয়েছে। আহত অসংখ্য। উল্টো তাদের বিরুদ্ধে মামলা দেয়া হয়েছে। রাজনৈতিক শিষ্ঠাচারকে ধ্বংস করে বরকতউল্লা বুলু ও তার স্ত্রীর ওপর হামলা চালিয়ে রক্তাক্ত করা হয়েছে। বনানীতে মোমবাতি প্রজ্জলনের মতো নীরিহ কর্মসূচিতে পৈশাচিক হামলা হয়েছে।
বক্তারা বলেন, চূড়ান্ত লড়াইয়ের মাধ্যমে বন্দী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। দল ও দেশের নেতৃত্বের জন্য তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনতে হবে। গণতন্ত্র ও ভোটের অধিকার ফিরিয়ে আনতে হবে। ফ্যাসিবাদের পতন ঘটাতে হবে। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির আহবায়ক আমীর এজাজ খান, মহানগর সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিন, জেলা সদস্য সচিব মনিরুল হাসান বাপ্পী, মোঃ তারিকুল ইসলাম জহীর, আবু হোসেন বাবু, শেখ তৈয়েবুর রহমান, শামীম কবির, মাহবুব হাসান পিয়ারু, একরামুল হক হেলাল, মুজিবর রহমান, এ্যাড. কানিজ ফাতেমা আমিন, আতাউর রহমান রুনু, আব্দুল মান্নান মিস্ত্রি প্রমুখ।
সমাবেশের শুরুতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করেন হাফেজ জাহিদুর রহমান। তীব্র গরমের ভেতরেও মহানগরের সকল থানা ওয়ার্ড এবং জেলার প্রত্যন্ত সব উপজেলা থেকে একের পর এক বিশাল মিছিল এসে কর্মসূচিতে যোগ দেয়।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন