রোববার , ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০৯ আশ্বিন ১৪৩০, ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৫ হিজরী

স্বাস্থ্য

পালংশাক এর কেরামতি

আফতাব চৌধুরী | প্রকাশের সময় : ৯ ডিসেম্বর, ২০২২, ১২:০৩ এএম

ফ্নিগর ডগ নয়, এবার বিস্ফোরক খুঁজে দিবে পালং শাক। কাছাকাছি ল্যান্ডমাইন পোঁতা থাকলেই-মেলে পোঁছে যাবে সতর্কবার্তা। বিজ্ঞানীদের যুগান্তকারী এই আবিষ্কারে দুনিয়াজুরে তোলপার। শীতের পালং। আহা। উপাদেয় সব পদ। ষোলোআনা রসনা তৃপ্তি। পালং শাককে বলা হয় শাকের রাজা। এই শাক খেতে যেমন মজা, তেমনি পুষ্টিগুনে সমৃদ্ধ। পালং শাক খাওয়ার রয়েছে অনেক উপকারিতা।

পালং শাকে রয়েছে প্রচুর পরিমান পুষ্টি যা আমাদের শরীরকে সুস্থ থাকতে সহায়তা করে। শুধু মুখ রুচিই নয়,পালংয়ে রয়েছে ভরপুর প্রোটিন, ভিটামিন। ফলে, শীত পড় যেমন বাজারে টাটকা, তাজা পালংয়ের আমদানি, ঠিক তেমনই বাজারের ব্যাগেও পালং মাস্ট। পালং শাকে রয়েছে উচ্চ মাত্রার ম্যাগনেশিয়াম, যা রক্তচাপ কমাতে সাহায্যে করে। এত রয়েছে বেশি মাত্রার ভিটামিন-এ. যা দেহকে বিভিন্ন সংক্রমণ ও রোগ থেকে রক্ষা করে। ত্বকের বাইরের স্তরের আর্দ্রতা বজায় রাখে।

পালংয়ে রয়েছে ১০টিরও বেশি ফ্ল্যাভনয়েড, যা ক্যানসারসহ বিভিন্ন জঠিল রোগের বিরোদ্ধে কাজ করে। পালংয়ে থাকা উচ্চমাত্রার বিটা ক্যারোটিন চোখের ছানি পড়ার ঝুঁকি কমাতে সাহায্যে করে। ফলিক অ্যাসিড হার্টকে সুস্থ ও সতেজ রাখে। প্রাপ্তবয়ষ্ক ঘন সবুজ পালং শাকে উচ্চমাত্রায় ক্লোরেফিল থাকায় এতে ক্যারটিনয়েড তৈরি হয়। এটি শরীরের ব্যথা কমায় ও ক্যানস্ার প্রতিরোধক হিসাবে কাজ করে। নানারকম অসুখবিসুখ থেকে দূরে থাকতে খাবারের তালিকায় রাখতে পারেন এই সবুজ শাকটি।

প্রতি ১০০ গ্রাম পালং শাকে প্রোটিন আছে ২.০ গ্রাম, কার্বোহাইড্রেট আছে ২.৮ গ্রাম, আশ আছে ০.৭ গ্রাম, আয়রণ ১১.২ মি.গ্রাম, ফসফরাস আছে ২০.৩ মি.গ্রাম, অ্যাসিড (নিকোটিনিক) ০.৫মি. গ্রাম, রিবোফ্লোবিন থাকে.০৮ মি. গ্রাম, অক্সালিড অ্যাসিড থাকে ৬৫২ মি. গ্রাম, ক্যালশিয়াম ৭৩ মি. গ্রাম, পটাশিয়াম ২০৮ মি. গ্রাম, ভিটামিন-এ আছে ৯৩০০ আই. ইউ, ভিটামিন সি ২৭ মি, গ্রাম. এবং থায়ামিন আছে .০৩ মি. গ্রাম।


সাংবাদিক- কলামিস্ট।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন