ঢাকা, বুধবার ১৭ জুলাই ২০১৯, ০২ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৩ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

খেলাধুলা

আয়ারল্যান্ড জয়ের স্বপ্ন নিয়ে বিশ্বকাপ যাত্রা

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩ মে, ২০১৯, ১:৪৯ এএম

বিশ্বকাপ মানেই আবেগ আর স্বপ্ন হাত ধরাধরি করে হাঁটা। শুধু নিজেরই নয়, গোটা দেশের প্রতিটি মানুষও তাদের স্বপ্নেই বিভোর হয়, হাসে, কাঁদে। বাংলাদেশ বলে সেই স্বপ্নের পরিধি বাড়ে দ্বিগুণ, তিনগুণ, চারগুণ ...। স্বপ্নের সেই ফেরীওয়ালারা সেই পথে যাত্রা শুরু করেছে গতপরশু, ভায়া আয়ারল্যান্ড। যেখানে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলে বিশ্বকাপের ভেন্যু ইংল্যান্ডের মাটিতে পা রাখবে মাশরাফি বিন মুর্তজার দল।

তবে এমন দিনেও একটু আলাদা হয়ে গেলেন সহ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। অফিশিয়াল ফটোসেশনে না থাকার সমালোচনা কাটতে না কাটতেই এক বিমানে না চড়ার ‘দুঃসাহস’ দেখালেন দেশসেরা এই অলরাউন্ডার। বিকেলে স্ব-পরিবারে ধরেছেন আইরিশ বিমান।

বাকিরা ঠিকই ছিলেন একসঙ্গে। অধিনায়ক মাশরাফির নেতৃত্বে ত্রিদেশীয় সিরিজের স্কোয়াডের ১৯ ক্রিকেটারের মধ্যে ১৭ ক্রিকেটার ও সাপোর্ট স্টাফরা বুধবার সকাল ১০টায় এমিরেটস এয়ারলাইন্সে করে দেশ ছাড়েন। হঠাৎ স্কোয়াডে ডাক পাওয়া অলরাউন্ডার ফরহাদ রেজা ও পেসার তাসকিন আহমেদ ভিসা আগের রাত তিনটায় আলাদা ফ্লাইটে যাত্রা করেছেন।

এমিরেটস এয়ারলাইন্স করে বাংলাদেশ দল প্রথমে গেছে দুবাইতে। সেখানে দুই ঘণ্টার যাত্রা বিরতি শেষে এদিন রাত পৌনে ২টায় ডাবলিনে পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল। রাতটা হোটেলে কাটিয়ে সময় নষ্ট না করে গতকাল সকালে টিম মিটিং সেরে বিকেলেই পেমব্রেক ক্রিকেট ক্লাব মাঠে হালকা অনুশীলন সেরেছে দল। তার আগে মাহমুদউল্লাহ, তামিম, সাইফউদ্দিনকে নিয়ে এক সেলফি তুলে ফেসবুকে পোস্ট করে নিরাপদে পৌঁছানোর জন্য আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের শুকরিয়া আদায় করে ফেসবুকে পোস্ট দিয়েছেন প্রথম বিশ্বকাপ খেলতে যাওয়া পেসা অলরাউন্ডার সাইফউদ্দিন।

তবে যাবার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ছিল এক আবেগঘন পরিবেশ। ১৮ দিনের আয়ারল্যান্ড সফর, পরে প্রায় চল্লিশ দিনের বিশ্বকাপ (ফাইনাল পর্যন্ত), দীর্ঘ এই সময়টা পরিবার ছেড়ে থাকতে হবে। যে কারণে অনেকেই এসেছিলেন প্রিয়জনকে বিদায় জানাতে। আগে যাওয়ার আগে অধিনায়ক মাশরাফি জানিয়েছেন বিশ্বকাপের প্রস্তুতিতেই আয়ারল্যান্ড সফরটা ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ তাদের, ‘আমরা প্রস্তুতির জন্য আয়ারল্যান্ডকে বেছে নিয়েছি। সেখানকার উইকেট খুব গুরুত্বপূর্ণ। যে উইকেটটা ইংল্যান্ডে থাকবে সেটা যেন পাই। আর সেখানে প্রত্যেকটা ম্যাচ জয় করা অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। বিশ্বকাপের জন্য আলাদা অ্যাডভান্টেজ হবে যদি আমরা এখান (আয়ারল্যান্ডে) থেকে জিতে ওখানে (ইংল্যান্ড) যেতে পারি। সবাই দোয়া করবেন। আমরাও নিজেদের সেরাটা দিয়ে ভালো ফলাফল আনতে চেষ্টা করব। আর ভুল ত্রুটি থাকলে মাফ করে দিবেন।’

শুধু মাশরাফিই নয়, বিদায় বেলায় ভক্ত, সমর্থকদের কাছে শুভাশিস চেয়েছেন ক্রিকেটাররা, জানিয়েছেন নিজেদের লক্ষ্যের কথাও। মারকুটে ওপেনার সৌম্য সরকার বলেছেন, ‘এটা আমার দ্বিতীয় বিশ্বকাপ। অবশ্যই আগে থেকে এবার প্রত্যাশাটা বেশি। আগে যেই ভুলটা করেছি সেটা এবার করা যাবে না।’ পেসার রুবেল হোসেন জানিয়েছেন নিজের লক্ষ্যের কথা, ‘বড় স্বপ্ন নিয়ে বিশ্বকাপে যাচ্ছি আমরা। তো অবশ্যই আমাদের প্রথম টার্গেট দ্বিতীয় রাউন্ডে খেলা। আমাদের সবার মধ্যে এই আত্মবিশ্বাস আছে যে আমরা খুব ভালো ক্রিকেট খেলছি।’ সাব্বির রহমানের ভাষ্য, ‘আমাদের দিক থেকে শতভাগ দেওয়ার ইচ্ছা থাকবে। সেরাটা দেওয়ারই চেষ্টা করব।’

৫ মে থেকে আয়ারল্যান্ডে শুরু হচ্ছে ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্ট। ৭ মে নিজেদের প্রথম ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে নামবে বাংলাদেশ। ৯ মে বাংলাদেশ খেলবে স্বাগতিকদের বিপক্ষে, ১৩ মে আবার খেলা ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে। ১৫ মে আইরিশদের বিপক্ষে ফিরতি ম্যাচ দিয়ে শেষ হবে প্রথমিক পর্বে। ফাইনালে উঠলে ১৭ মেতে শেষ হবে মাশরাফিদের আইরিশ মিশন।

বিশ্বকাপের প্রস্তুতির লক্ষ্যে ওই টুর্নামেন্ট থেকে বাংলাদেশ বিশ্বকাপের টিম কম্বিনেশন যাচাই করতে চায়। ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্টের পর ব্রিস্টলে গিয়ে ইংলিশ কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার কাজ শুরু করবেন মাশরাফিরা। বিশ্বকাপের আগে ২৬ মে ও ২৮ মে কার্ডিফে পাকিস্তান ও ভারতের বিপক্ষে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। মূল বিশ্বকাপে ২ জুন ওভালে বাংলাদেশের প্রথম ম্যাচের প্রতিপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন