ঢাকা, শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭, ২৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

প্লাজমা ডোনেটে মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপন কুমিল্লা জেলা পুলিশের

কুমিল্লা থেকে সাদিক মামুন | প্রকাশের সময় : ৯ জুলাই, ২০২০, ৩:২০ পিএম

মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করলো কুমিল্লা জেলা পুলিশের ২৭ সদস্য। জীবন বাজি রেখে ভয়াবহ করোনা পরিস্থিতিতে সম্মুখ যোদ্ধায় অবতীর্ণ হয়ে জনগণকে সেবা দিতে গিয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মুমর্ষ অবস্থা থেকে সুস্থ হয়ে ফিরে আসা কুমিল্লা জেলা পুলিশের ২৭ সদস্য ঢাকার রাজারবাগে বাংলাদেশ পুলিশের হসপিটালের ব্লাড ব্যাংকে তাদের প্লাজমা ডোনেট করার জন্য বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় ঢাকার উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়।
করোনায় জয়ী পুলিশের প্লাজমায় বাঁচুক অন্যের জীবন, জাগ্রত মানবতায় দৃঢ় হউক পুলিশ জনতার বন্ধন’। এ স্লোগানকে সামনে রেখে বৃহস্পতিবার সকালে কুমিল্লা পুলিশ লাইনসে শহীদ আর আই এবিএম আবদুল হালিম মিলনায়তনে ছোট্ট পরিসরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে কেরোনাজয়ী ২৭ পুলিশ সদস্যকে ফুলেল শুভেচ্ছার মাধ্যমে ঢাকার পথে বিদায় জানান কুমিল্লা পুলিশ সুপার মোঃ সৈয়দ নুরুল ইসলাম।
এসময় তিনি তার শুভেচ্ছা বক্তেব্যে দেশের যেকোন দুর্যোগ ও সংকটকালীন মূহুর্তে পুলিশের ভূমিকার কথা উল্লেখ করে বলেন, করোনা পরিস্থিতিতে কুমিল্লা জেলার মানুষকে সেবাসহ সবধরণের মানবিক সহযোগিতা দিতে গিয়ে পুলিশ সদস্যরা করোনা আক্রান্ত হয়েছে। যথাযথ চিকিৎসার মাধ্যমে তারা করোনা জয় করেছে, সুস্থ হয়ে কর্মস্থলেও যোগদান করে রিতীমত দায়িত্ব পালন করছেন। জেলা পুলিশের সুস্থ হওয়া তথা করোনাজয়ী যোদ্ধারা প্লাজমা ডোনেট করতে যাচ্ছেন। আমরা তাদের কাছে কৃতজ্ঞ। তাদের দেয়া প্লাজমায় করোনা আক্রান্ত রোগী সুস্থ হয়ে উঠবে, এটা নিঃসন্দেহে বিষয়টি পুলিশের জন্য গৌরবের। আমরা দৃঢ় প্রতিজ্ঞ, যত ঝুঁকিপূর্ণ হউক দায়িত্ব পালনে পুলিশ পিছপা হবেনা।
পরে পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম অভিবাদন জানিয়ে প্লাজমা ডোনেটকারী পুলিশ সদস্যদের বাসে তুলে দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) আজিম উল আহসান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) তানভীর সালেহীন ইমন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নাজমুল হাসান রাফি, ডিআইও ওয়ান মাঈন উদ্দিন খানসহ জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ।
উল্লেখ্য, গত ৮ জুলাই বুধবার পর্যন্ত কুমিল্লা জেলা পুলিশের পদবীধারি কর্মকর্তা, সদস্য ও পুলিশে কর্মরত নন-পুলিশ (সিভিল) ১৯৪জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এরমধ্যে একই সময় পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৭৬জন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন