শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৩ আশ্বিন ১৪২৮, ১০ সফর ১৪৪৩ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

মহারাষ্ট্রে ভারি বর্ষণে ৪০ বছরের রেকর্ড ভঙ্গ, মৃত্যু বেড়ে ১২৯

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ জুলাই, ২০২১, ১১:৪৮ পিএম

টানা ৪৮ ঘন্টা ভারি বর্ষণের ফলে সৃষ্ট বন্যা ও ভূমিধ্বসে ভারতের মহারাষ্ট্রে অন্তত ১২৯ জনের প্রাণহানির খবর পাওয়া গেছে। শুক্রবার রাজ্যের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের একজন কর্মকর্তা এ তথ্য জানান। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার। এদিকে টানা বৃষ্টিতে মহারাষ্ট্রের রায়গড়ে ভূমিধ্বসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে অন্তত ৬৭ জনে দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা। বৃহস্পতিবার মুম্বাই থেকে ৭০ কিলোমিটার দূরের রায়গড়ে অন্তত তিনটি স্থানে ভূমিধ্বসের ঘটনা ঘটে।

রাজ্য সরকারের মন্ত্রী বিজয় ওয়াদেত্তিওয়ারের বরাত দিয়ে রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, মুম্বাই খেকে ১৮০ কিলোমিটার দক্ষিণপূর্বাঞ্চলের তালিয়ে একটি গ্রামে অন্তত ৩৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া মুম্বাইয়ে একটি ভবন ধসে মারা গেছেন অন্তত চারজন।

মহারাষ্ট্রের আরেকটি এলাকায় ভূমিধ্বস এবং ভারি বৃষ্টির কারণে দুর্ঘটনায় আরও অন্তত ২৭ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছেন রাজ্য সরকারের কর্মকর্তারা।

সাতারা এবং রাইগাদ জেলায় কয়েক ডজন লোক ভূমিধ্বসে মাটি চাপা পড়ে আছেন বলে রাজ্য সরকারের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন।

ভারতে পশ্চিম উপকূলে গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৯৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বৃষ্টির পানিতে উপচে পড়ার আশঙ্কায় বাঁধগুলো খুলে দেওয়া হয়েছে এবং ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে লোকজনকে সরিয়ে নেওয়া হচ্ছে।

ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, গত ৪০ বছরের ইতিহাসে মহারাষ্ট্রে জুলাই মাসে এবারের মত এত বৃষ্টি আর কখনো হয়নি।

মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ভব ঠাকরে সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘অপ্রত্যাশিত ভারি বৃষ্টিতে অনেক জায়গায় ভূমিধ্বস হয়েছে এবং নদীগুলোর আশপাশের এলাকা তলিয়ে গেছে। বাঁধ এবং নদীগুলো উপচে পড়ছে। আমরা বাধ্য হয়ে বাঁধ খুলে পানি ছেড়ে দিয়েছি এবং নদী তীরের মানুষদের নিরাপদে সরিয়ে নিচ্ছি।’

ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য মহারাষ্ট্রে কয়েকদিন ধরেই ভারি বর্ষণ হচ্ছে। গত সপ্তাহে মুম্বাইয়ের কয়েকটি এলাকায় প্রবল বৃষ্টির মধ্যে ভূমিধ্বসে অন্তত ২৫ জনের মৃত্যু হয়।

রয়টার্স জানিয়েছে, মহারাষ্ট্রে বন্যা ও ভূমিধ্বসে আটকা পড়া হাজারো মানুষকে উদ্ধারে সরকার হেলিকপ্টার কাজে লাগাচ্ছে। আটকা পড়াদের বাড়ির ছাদ বা কাছাকাছি উঁচু কোথাও আশ্রয় নিতে অনুরোধ করা হয়েছে, যাতে তাদের হেলিকপ্টার থেকে সহজে দেখা যায়।

টানা বৃষ্টিতে মুম্বাই-গোয়া জাতীয় মহাসড়ক বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। পরিস্থিতি সামাল দিতে দুর্যোগ মোকাবিলা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বৃহস্পতিবারই জরুরি বৈঠক করেছেন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ভব ঠাকরে।

মহারাষ্ট্রের বিভিন্ন এলাকায় আগামী আরো কয়েকদিন ভারি বৃষ্টিপাত হতে পারে পূর্বাভাস দিয়ে ‘রেড অ্যালার্ট’ জারি করেছে আবহাওয়া বিভাগ।

ভারতের মধ্যে করোনাভাইরাসে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্যটিকে এখন বৃষ্টি, বন্যা, ভূমিধ্বসের এ দুর্যোগও সামাল দিতে হচ্ছে। সূত্র : এনডিটিভি

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন