রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫ মাঘ ১৪২৯, ০৬ রজব ১৪৪৪ হিজিরী

জাতীয় সংবাদ

সরকারের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে

গুম-খুন প্রসঙ্গে রেজা কিবরিয়া

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ মার্চ, ২০২২, ১২:০১ এএম

গণঅধিকার পরিষদের আহ্বায়ক বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড. রেজা কিবরিয়া বলেছেন, দেশের মানুষের ওপর হামলা-মামলা-খুনসহ বিভিন্ন বিষয় গোপন করার অপরাধে সরকারের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। নিত্যপণ্যের দাম এবং মুদ্রাস্ফীতি নিয়ে সরকার মিথ্যাচার করছে। জনগণ এবার সব কিছুর জবাব দেবে।

রাজধানীর পুরানা পল্টন কালভার্ট রোডের জামান টাওয়ারে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির প্রতিবাদে শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশি হামলা-গ্রেফতার ও সামগ্রিক পরিস্থিতি নিয়ে এক জরুরি সংবাদ সম্মেলনে তিনি এক কথা বলেন।
ড. রেজা কিবরিয়া বলেন, রাস্তায় নামলেই সরকার আমাদের ওপর আক্রমণ করে। তারা আমাদের ভয় পায়, ভয় পাওয়াই উচিৎ। কারণ, তারা জানে গণঅধিকার পরিষদ আগামীতে এদেশের নেতৃত্ব দেবে। এজন্যই তাদের রাগ রাস্তায় মিটিয়ে নিচ্ছে। রাস্তায় নামলেই হামলা চালাচ্ছে। তবে যে কোনো বাধা কাটিয়ে আমরা জনগণের পক্ষে কাজ করবো।

তিনি বলেন, বিশ্বে এমন কোনো দেশ নেই যেখানে শান্তিপূর্ণ মিছিলে আক্রমণ হয়। অন্যান্য দেশে এমন আক্রোশ হয় না। নিত্যপণ্যের দাম নিয়ে মুদ্রাস্ফীতি নিয়ে সরকার মিথ্যা তথ্য দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করতে চায়। সরকার বলছে মুদ্রাস্ফীতি ৫ শতাংশ, কিন্তু বাস্তবে এটা ১২-১৪ শতাংশ। যেটা ধামাচাপা দিতেই ভিন্নমতের ওপর হামলা।
সংবাদ সম্মেলনে গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নুর বলেন, রমনা জোনের ডিসি হারুনুর রশিদ ওসি প্রদীপের ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছেন। একজন নোংরা পুলিশ অফিসার পুরো বাহিনীর জন্য কলঙ্ক। এর আগেও নিরীহ মানুষের ওপর হামলা, নির্যাতন করেছে। রমনা জোনের ডিসি ব্যক্তিগত ক্ষোভের বহিঃপ্রকাশ ঘটাচ্ছেন। আমরা মিছিল নিয়ে ঢাকা ক্লাবের সামনে এলেই হামলা চালানো হয়। এতে আমাদের ১১২ জন নেতাকর্মী আহত হন। গত বছর চারজনকে আটক করে মুখে গামছা বেঁধে, চোখে কাঁচামরিচ দিয়ে নির্যাতন করেন এই হারুন। আমরা পুলিশের বিষয়ে কোনো কথা বলিনি। তবে এমন কুলাঙ্গার-নোংরা পুলিশের প্রত্যাহারের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের কাছে দাবি জানাই।

তিনি বলেন, পুলিশ তাদের ব্যাগে করে বোমা নিয়ে এসেছিলো। তারা কোনো অঘটন ঘটাতে চেয়েছিল। তবে আমাদের আন্দোলন কোনো বাধাই দমিয়ে রাখতে পারবে না। নিত্যপণ্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণে না এলে আগামীতে মন্ত্রণালয় ঘেরাও হবে।
ডাকসুর সাবেক ভিপি বলেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনের মাধ্যমে দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে হবে। এ জন্য ঐক্যবদ্ধভাবে সবাইকে রাজপথে জোরালো আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। সংবাদ সম্মেলনে গণঅধিকার ফোরামের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন