মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ২১ আষাঢ় ১৪২৯, ০৫ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

কিংসের বড় জয়ের দিন আবাহনী-জামালের ড্র

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১২ মার্চ, ২০২২, ১২:০৩ এএম

ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংসের বড় জয়ের দিন ড্র করে পয়েন্ট খুইয়েছে শিরোপা প্রত্যাশি ঢাকা আবাহনী লিমিটেড ও শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। গতকাল বিকালে বসুন্ধরা কিংস অ্যারেনায় স্বাগতিক দল নিজেদের অষ্টম ম্যাচে ৫-০ গোলের বড় ব্যবধানে হারিয়েছে চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেডকে। বিজয়ী দলের হয়ে ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড রবসন রবিনহো দু’টি এবং স্থানীয় ফরোয়ার্ড সুমন রেজা, এলিটা কিংসলে ও মিডফিল্ডার মোহাম্মদ ইব্রাহিম একটি করে গোল করেন।
ঘরের মাঠে চট্টগ্রাম আবাহনীর বিপক্ষে কাল ম্যাচের শুরু থেকেই গোলের জন্য মরিয়া ছিল বসুন্ধরা কিংস। আক্রমণাত্মক ফুটবল উপহার দিয়ে ম্যাচের ১৭ মিনিটেই প্রথম গোল আদায় করে নেয় তারা। এসময় সুমন রেজা কিংসদের পক্ষে গোল করে দলকে এগিয়ে নেন (১-০)। ব্রাজিলিয়ান রবসন রবিনহো ২৮ মিনিটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন (২-০)। চার মিনিট পর ইব্রাহিম গোল করলে ম্যাচ থেকে প্রায় ছিটকে যায় চট্টগ্রাম আবাহনী (৩-০)। ৪৩ মিনিটে দলের পক্ষে চতুর্থ ও নিজের দ্বিতীয় গোল করেন রবিনহো (৪-০)। চার গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে গিয়ে দ্বিতীয়ার্ধে আরেকটি গোল পায় স্বাগতিক দল। বিরতির পর ম্যাচে ফেরার চেষ্টা করেও পারেনি চট্টগ্রাম আবাহনী। উল্টো পঞ্চম গোল হজম করে বড় হার নিশ্চিত করে তারা। আক্রমণের ধারা অব্যাহত রেখে ম্যাচের ৬৭ মিনিটে বসুন্ধরার পক্ষে শেষ গোলটি করেন নাইজেরিয়ান বংশদ্ভুত সদ্য বাংলাদেশী ফরোয়ার্ড এলিটা কিংসলে (৫-০)। ম্যাচের অন্তিম মুহূর্তে চট্টগ্রামনের একটি আক্রমণ ঠেকাতে গিয়ে বসুন্ধরার গোলরক্ষক আনিসুর রহমান জিকো ব্যথা পান। পরবর্তীতে তিনি কিছুটা স্বাভাবিক হয়ে এক মিনিটের জন্য উঠে দাড়ান। এরপরই ম্যাচের শেষ বাঁশি বাজান রেফারি। ম্যাচ জিতে আট খেলায় সাত জয় ও এক হারে ২১ পয়েন্ট পেয়ে তালিকায় শীর্ষে বসুন্ধরা কিংস। সমান ম্যাচে তিনটি করে জয় ও ড্র এবং দুই হারে ১২ পয়েন্ট নিয়ে চতুর্থস্থানে চট্টগ্রাম আবাহনী।
এদিন রাজশাহীর মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতি স্টেডিয়ামে লিগের আরেক ম্যাচে প্রথমে গোল করেও নবাগত স্বাধীনতা ক্রীড়া সংঘের বিপক্ষে ১-১ ব্যবধানের ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়ে ঢাকা আবাহনী। আবাহনীর পক্ষে ফরোয়ার্ড নাবীব নেওয়াজ জীবন ও স্বাধীনতার ফরোয়ার্ড ইকবাল হোসেন একটি করে গোল করেন। বিপিএলে নিজেদের অভিষেক ম্যাচে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংসকে হারিয়ে চমক উপহার দিলেও পরের ম্যাচগুলোতে স্বাধীনতা ক্রীড়া সংঘ ছিল অনুজ্জ্বল। তবে অষ্টম ম্যাচে এসে ফের ঘুরে দাঁড়িয়ে রুখে দিয়েছে শক্তিশালী ঢাকা আবাহনীকে।
ম্যাচের ৩৯ মিনিটে নবীব নেওয়াজ জীবনের গোলে আবাহনী লিড নিলে শেষ পর্যন্ত ব্যবধান বাড়াতে পারেনি (১-০)। উল্টো ম্যাচের ৮০ মিনিটে স্বাধীনতার ইকবাল গোল করে ম্যাচে সমতা আনলে ভাগ্য পুড়ে আবাহনীর (১-১)। বাকি সময়ে আবাহনী দ্বিতীয় গোল পেতে আপ্রাণ চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। ফলে পয়েন্ট খুইয়ে মাঠ ছাড়তে হয় তাদেরকে। এই ড্রতে আট ম্যাচে পাঁচ জয়, দুই ড্র ও এক হারে ১৭ পয়েন্ট নিয়ে তালিকায় দ্বিতীয়স্থানে আবাহনী। সমান ম্যাচে এক জয়, দুই ড্র ও পাঁচ হারে ৫ পয়েন্ট পাওয়া স্বাধীনতার অবস্থান এগারোতম।
মুন্সিগঞ্জের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ ফ্লাইট লে. মতিউর রহমান স্টেডিয়ামে কালকের তৃতীয় ম্যাচে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের বিপক্ষে প্রথমে এগিয়ে থেকেও শেষ মূহূর্তের গোলে ২-২ ব্যবধানের ড্র নিয়ে মান বাঁচিয়েছে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। সাইফের পক্ষে নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড সানডে উদুহ ৫৫ ও ৯০+১ মিনিটে জোরা গোল করেন। জামালের হয়ে একটি করে গোল করেন যথাক্রমে ৫০ মিনিটে উজবেকিস্তানের ফরোয়ার্ড ওতাবেক ও ৯০+৪ মিনিটে গাম্বিয়ান ফরোয়ার্ড সলোমন কিং। ড্র করে আট ম্যাচে চারটি করে জয় ও ড্রতে ১৬ পয়েন্ট নিয়ে তালিকায় তৃতীয়স্থানে শেখ জামাল। সমান ম্যাচে তিনটি করে জয় ও হার এবং দুই ড্রতে ১১ পয়েন্ট পেয়ে পঞ্চমস্থানে সাইফ স্পোর্টিং।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps