শুক্রবার, ০১ জুলাই ২০২২, ১৭ আষাঢ় ১৪২৯, ০১ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

খেলাধুলা

মোহামেডানের মুশফিক খেলবেন শেখ জামালে

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০০ এএম

সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে চলমান ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে (ডিপিএল) খেলতেন মুশফিকুর রহিম। বাংলাদেশ জাতীয় দলের অভিজ্ঞ এই তারকা করতেন অধিনায়কত্বও। কিন্তু শিরোপার জন্য লড়াই করা দূরে থাক, প্রাথমিক পর্বে বিদায় নিয়ে সুপার লিগেই ওঠা হয়নি সাদা-কালোদের। পরিবর্তিত এই পরিস্থিতিতে মোহামেডানের কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে মুশফিক নাম লিখিয়েছেন শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাবে। মোহামেডানে যোগ দেওয়া আরেক তারকা মেহেদী হাসান মিরাজও সুপার লিগ খেলবেন শেখ জামালের হয়ে। গতকাল নিশ্চিত করেছে শেখ জামাল কর্তৃপক্ষ বিষয়টি। উইকেটরক্ষক-ব্যাটার মুশফিককে পেতে আগ্রহী ছিল দুটি ক্লাব- লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ ও শেখ জামাল। শেষ পর্যন্ত শেখ জামালেই নতুন ঘাঁটি গাড়লেন তিনি।
প্রিমিয়ার লিগের বাইলজ অনুযায়ী, যদি একজন ক্রিকেটার কোনো দলের হয়ে একটি ম্যাচও না খেলেন এবং সেই দলের ম্যাচ শেষ হয়ে যায়, তাহলে অনুমতি সাপেক্ষে ওই খেলোয়াড় আরেক দলে খেলতে পারেন। এই নিয়ম অনুসারে, মুশফিক আসরের সুপার লিগ পর্ব থেকে শেখ জামালের হয়ে মাঠে নামবেন। একই প্রক্রিয়ায় শেখ জামালে যোগ দিয়েছেন মিরাজ। তবে চোটে থাকায় এই লিগে আর খেলছেন না তাসকিন আহমেদ।
এবারের লিগের আগে ঘটা করে বাংলাদেশ দলের তারকাদের দলে টানার কার্যক্রম সম্পন্ন করেছিল মোহামেডান। দেশের সেরা ক্রিকেটার সাকিব আল হাসানের পাশাপাশি তারা নিয়েছিল মুশফিক, মেহেদী হাসান মিরাজ, তাসকিন, সৌম্য সরকার ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকে। তবে সৌম্য ও মাহমুদউল্লাহ খেললেও বাকিরা দলটির হয়ে নামতে পারেননি। সাকিব পারিবারিক কারণে অবস্থান করছেন যুক্তরাষ্ট্রে। তাসকিন পড়েছেন চোটে। আর দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে ওয়ানডের পর টেস্ট সিরিজেও ব্যস্ত ছিলেন মুশফিক ও মিরাজ।
মোহামেডানের প্রত্যাশা ছিল সুপার লিগে পূর্ণশক্তির দল নিয়ে নামার। কিন্তু ১১ দলের লিগে ১০ পয়েন্ট নিয়ে সপ্তম হয়ে প্রথম পর্ব থেকেই ছিটকে গেছে তারা। মুখোমুখি লড়াইয়ে তাদের বিপক্ষে জেতায় সমান পয়েন্ট নিয়েও আসরে টিকে গেছে রূপগঞ্জ টাইগার্স ক্রিকেট ক্লাব ও গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স। ১৮ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার শীর্ষে থেকে সুপার লিগে ওঠা শেখ জামালকে শিরোপার দৌড়ে এবার সবচেয়ে এগিয়ে রাখা হচ্ছে। প্রাথমিক পর্বে ১০ ম্যাচের মাত্র একটিতে হেরেছে তারা। মুশফিক যুক্ত হওয়ায় নিঃসন্দেহে তাদের ব্যাটিং লাইন-আপের গভীরতা আরও বাড়বে। আর মুশফিকও চাইবেন সবশেষ প্রোটিয়া সফরের হতাশা কাটিয়ে ব্যাট হাতে ছন্দে ফিরতে।
এদিকে, বৃষ্টি মৌসুম চলে আসায় ঢাকা প্রিমিয়ার ক্রিকেট লিগের সুপার লিগের ম্যাচগুলো নিয়ে ছিল শঙ্কা। তবে খারাপ আবহাওয়া যেন শিরোপার হিসাব গড়ে না দেয় সেজন্য ব্যবস্থা নিয়েছে ক্রিকেট কমিটি অব ঢাকা মেট্রোপলিস (সিসিডিএম)। সুপার লিগের প্রতিটি রাউন্ডেই রাখা হয়েছে রিজার্ভ ডে। এছাড়া মিরপুরের ম্যাচগুলো দেখা যাবে দুটি টেলিভিশন চ্যানেল- টি-স্পোর্টস ও গাজী টিভিতে।
গতকালই মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বিসিবি কার্যালয়ে সভার এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। মিরপুরে হতে যাওয়া পাঁচটি ম্যাচ সরাসরি সম্প্রচার করা হবে বলে জানিয়েছেন সিসিডিএম চেয়ারম্যান সালাউদ্দিন চৌধুরী, ‘সুপার লিগের ম্যাচগুলো আমরা সম্প্রচারের সিদ্ধান্তে এসেছি। প্রতিদিন তিনটি করে ম্যাচ, প্রতিটি ম্যাচই সম্প্রচার করা হবে। মিরপুরের খেলাগুলো টিভিতে লাইভ যাবে, বিকেএসপির দুটি ম্যাচ ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মে (পিচভিশন প্রযুক্তিতে) লাইভ হবে।’
এবার ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের সুপার লিগে খেলবে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব, লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ, আবাহনী লিমিটেড, প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাব, রূপগঞ্জ টাইগার্স ক্রিকেট ক্লাব ও গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স। ১৮ এপ্রিল মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়াম ও বিকেএসপির দুই মাঠে শুরু হবে সুপার লিগের খেলা। বিকেএসপির তিন নম্বর মাঠে লড়বে শেখ জামাল-গাজি গ্রুপ। চার নম্বর মাঠে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জের প্রতিপক্ষে রূপগঞ্জ টাইগার্স। মিরপুরে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন আবাহনীর মুখোমুখি হবে প্রাইম ব্যাংক।
কোন কারণে ওই দিন খেলা না হলে ম্যাচগুলো হবে পরদিন। একইভাবে দ্বিতীয় রাউন্ডের খেলা ২১ এপ্রিল, ২২ এপ্রিল থাকছে রিজার্ভ ডে। এভাবে বাকি তিন রাউন্ডের পরদিনও বরাদ্দ থাকছে রিজার্ভ ডে। ২৪ এপ্রিল হবে তৃতীয় রাউন্ড ২৬ এপ্রিল চতুর্থ রাউন্ড ও ২৮ এপ্রিল হবে পঞ্চম ও শেষ রাউন্ডের খেলা। রেলিগেশন লিগের তিন ম্যাচ হবে ফতুল্লার খান সাহেব ওসমান আলি স্টেডিয়ামে। ১৮ এপ্রিল সিটি ক্লাব খেলবে খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতির বিপক্ষে। ২১ এপ্রিল ব্রাদার্সের মুখোমুখি হবে তলানিতে থাকা খেলাঘর। ২৪ এপ্রিল শেষ ম্যাচে সিটি ক্লাবের সামনে দাঁড়াবে ব্রাদার্স। সুপার লিগে থাকলেও রেলিগেশন লিগে কোন রিজার্ভ ডে রাখা হয়নি।
এবার প্রিমিয়ার লিগে শিরোপা জেতার লড়াইয়ে সবচেয়ে এগিয়ে শেখ জামাল। ১০ ম্যাচ খেলে ৯টিতেই জিতে সর্বোচ্চ ১৮ পয়েন্ট তাদের। দুইয়ে থাকা আবাহনী ১০ ম্যাচ থেকে পেয়েছে ১৪ পয়েন্ট, সমান ১৪ পয়েন্ট থাকলেও রেনরেটে পিছিয়ে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ। সুপার লিগে অন্তত তিন ম্যাচ জিতলেই আবাহনীকে হটিয়ে শিরোপা জিতে যাবে শেখ জামাল।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Google Apps