মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ০৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ১২ জিলক্বদ ১৪৪৫ হিজরী

খেলাধুলা

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের আশা ফিকে ইউনাইটেডের

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৪ এপ্রিল, ২০২২, ১২:০০ এএম

নবজাতক সন্তানকে হারানোর কষ্ট বুকে চেপে দলের প্রয়োজনে মাঠে নেমে পড়লেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। চোখে-মুখে তীব্র কষ্টের ছাপ থাকলেও গোলমুখে বরাবরের মতোই কার্যকর হয়ে উঠলেন আরও একবার। আর্সেনালের বিপক্ষে পিছিয়ে পড়া দলকে পথে ফেরাতে প্রিমিয়ার লিগে শততম গোলের মাইলফলক স্পর্শ করলেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড তারকা। তবে ব্রুনো ফার্নান্দেজের পেনাল্টির মিসের পর আরও এক গোল খেয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জায়গা পাওয়ার দৌড় থেকে অনেকটাই ছিটকে গেল ইউনাইটেড। ৩-১ গোলে এই হারের পর প্রিমিয়ার লিগে পয়েন্ট টেবিলের ছয়ে নেমে গেছে চরম দুঃসময় পার করা দলটি। দারুণ জয়ে টেবিলের চারে উঠে এসেছে আর্সেনাল।
গতকাল এমিরেটস স্টেডিয়ামে প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচের ৩২ মিনিটের মধ্যে দুই গোল খেয়ে বসে ইউনাইটেড। কোণঠাসা হয়ে পড়া দলকে দারুণ নৈপুণ্যে ৩৪তম মিনিটে লড়াইয়ে ফেরান রোনালদো। বাঁ দিক থেকে নেমানিয়া মাতিচ ক্রস বাড়ান ডি-বক্সে। ছয় গজ বক্সের মুখে সঙ্গে লেগে থাকা দুই খেলোয়াড়ের সামনে থেকে শটে প্রিমিয়ার লিগে নিজের শততম গোলটি করেন পাঁচবারের বর্ষসেরা ফুটবলার।
মাইলফলক ছোঁয়া গোলটি উৎসর্গ করেন কদিন আগে হারানো সন্তানকে। গত সোমবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে রোনালদো জানান নবজাতক যমজ সন্তানের মধ্যে ছেলেকে হারানোর দুঃসংবাদ। পরদিন লিভারপুলের বিপক্ষে ম্যাচে ছিলেন না তিনি। তবে ধুঁকতে ধাকা দলের প্রয়োজনে চরম পেশাদারিত্বের নিদর্শন রেখে তিন দিন বাদেই অনুশীলনে ফেরেন পর্তুগাল অধিনায়ক। ম্যাচে ফিরে পেয়ে গেলেন গোলও। গোল করার পর তার সেই ট্রেডমার্ক উদযাপনের কিছুই দেখা যায়নি। কেবল তাকান ওপরের দিকে, উঁচিয়ে ধরেন আঙুল। নিশ্চয়ই ছেলেকে স্বরণ করেন তিনি।
এই গোলেও পরিসংখ্যানের পাতায় বেশ কিছু পরিবর্তন এসেছে। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের চতুর্থ খেলোয়াড় হিসেবে প্রিমিয়ার লিগে ১০০ গোল করলেন রোনালদো। আগের তিন জন হলেন- ওয়েইন রুনি (১৮৩), রায়ান গিগস (১০৯) ও পল স্কোলস (১০৭)। সব মিলিয়ে ৩৩তম ও পর্তুগালের প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে এই মাইলফলক স্পর্শ করলেন তিনি।
ইংল্যান্ডের শীর্ষ লিগে রোনালদোর প্রথম গোলটি ছিল ২০০৩ সালের ১ নভেম্বর, পোর্টসমাউথের বিপক্ষে। প্রিমিয়ার লিগে কোনো খেলোয়াড়ের প্রথম ও শততম গোলের মাঝে সবচেয়ে বড় ব্যবধান এটিই (১৮ বছর ১৭৩ দিন)। আগের রেকর্ড ছিল গিগসের (১৭ বছর ৯১ দিন)। একই সঙ্গে প্রিমিয়ার লিগে সবচেয়ে বেশি বয়সী খেলোয়াড় হিসেবে শত গোলের মাইলফলক ছুঁলেন রোনালদো (৩৭ বছর ৭৭ দিন)। এখানে ছাড়িয়ে গেলেন পিটার ক্রাউচকে (৩৬ বছর ২ দিন)। এই গোল নিয়ে চলতি আসরে রোনালদোর মোট গোল হলো ১৬টি। ক্লাব ও জাতীয় দল মিলিয়ে তার ক্যারিয়ার গোল হলো ৮১১টি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন