সোমবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ১০ জামাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

ব্যবসা বাণিজ্য

পাকিস্তান-নাইজেরিয়ার সঙ্গে বাণিজ্য বিনিয়োগ সম্প্রসারণের প্রত্যাশা

আজ থেকে শুরু ডি-৮ সিসিআই বিজনেস ফোরাম অ্যান্ড এক্সপো

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ জুলাই, ২০২২, ১২:০২ এএম

বাংলাদেশে সফররত ডি-৮ ভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে পাকিস্তান ও নাইজেরিয়ার বাণিজ্য প্রতিনিধি দলের মধ্যকার মতবিনিময় সভা গতকাল সোমবার ডিসিসিআই গুলশান সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়েছে। ঢাকা চেম্বারের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মনোয়ার হোসেন জানান, ২০২০-২১ অর্থবছরে দুদেশের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যের পরিমাণ ছিল ৫৮৫ দশমিক ৪১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এছাড়াও দুদেশের বেসরকারি খাতের প্রতিনিধিদের মধ্যকার যোগাযোগ সম্প্রসারণ, আঞ্চলিক বাণিজ্য সম্প্রসারণ এবং যৌথ গবেষণা কার্যক্রম বৃদ্ধির মাধ্যমে আগামীতে ব্যবসা-বিনিয়োগের এ ধারাবাহিকতা আরও বাড়বে।

দ্য ফেডারেশন অব পাকিস্তান চেম্বারর্স অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি ইরফান ইকবাল শেখের নেতৃত্বে ১০ সদস্যের একটি বাণিজ্য প্রতিনিধি দল ঢাকা চেম্বারের পর্ষদ সদস্যদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। আলোচনায় পাকিস্তানের বাণিজ্য প্রতিনিধি দলের প্রধান বলেন, আঞ্চলিক সহযোগিতা সম্প্রসারণের মাধ্যমে দুদেশ নিজেদের বিদ্যমান দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য আরও বৃদ্ধি করতে পারে। এছাড়াও বাংলাদেশে নিযুক্ত নাইজেরিয়ার রাষ্ট্রদূত আহমেদ সুলেহ ঢাকা চেম্বারের পরিচালনা পর্ষদের সঙ্গে মতবিনিময় করেন। রাষ্ট্রদূত উল্লেখ করেন, ২০২০-২১ অর্থবছরে দুদেশের বাণিজ্যের পরিমাণ ছিল ৭৯ দশমিক ৭৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার, যেখানে বাংলাদেশের আমদানি-রফতানির পরিমাণ ছিল যথাক্রমে ৭১ দশমিক ৫৩ এবং ৮ দশমিক ২৩ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।
এছাড়া বাংলাদেশ, মিশর, ইন্দোনেশিয়া, ইরান, মালয়েশিয়া, নাইজেরিয়া, পাকিস্তান এবং তুরস্কের সমন্বয়ে গঠিত ডি-৮ চেম্বারস অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ (ডি-৮ সিসিআই) প্রতিষ্ঠার রজতজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষ্যে আজ মঙ্গলবার ও আগামীকাল বুধবার ঢাকার প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে ‘ডি-৮ সিসিআই বিজনেস ফোরাম অ্যান্ড এক্সপো ২০২২’ অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেওয়া হয়। এই বছরের ফোরামে সদস্য দেশগুলোর মধ্যকার ‘ভ্যালু চেইন’-এর বৃহৎ পরিসরের ৬টি ক্ষেত্রের সম্ভাবনা নিয়ে আলোচনা করা হবে বলে জানানো হয়। ডি-৮ সিসিআই সভাপতি শেখ ফজলে ফাহিম বলেন, বিশ্বব্যাপী কোভিড-১৯ মহামারির মতো সাম্প্রতিক ঘটনাবলি মুদ্রাস্ফীতিমূলক চাপ, সাপ্লাই চেইনে বিঘ্নতা এবং নিশ্চলতা-স্ফীতির জন্য দায়ী। আর তাই বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং অর্থনৈতিক টেকসই নিশ্চিতে ডি-৮-এর সদস্য দেশগুলোর ভ্যালু চেইন ইন্টিগ্রেশন নিয়ে আলোচনার এখনই সময়। এই সহযোগিতামূলক প্ল্যাটফর্মটি ডি-৮ সদস্য দেশগুলোর জন্য ব্যবসা ও বাণিজ্য পরিচালনার ক্ষেত্রে এবং তাদের নিজ নিজ অর্থনীতিকে সহযোগিতামূলক পদ্ধতিতে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার পথে নতুন দ্বার উন্মোচন করবে বলেও আমরা আশাবাদী।
দুইদিন ব্যাপী অনুষ্ঠিতব্য এই আয়োজনে সদস্য দেশগুলোর চেম্বারস অব কমার্সের সভাপতিবৃন্দ, প্রতিনিধি দল, গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ এবং ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ অংশগ্রহণ করবেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এবং ডি-৮ মিনিস্ট্রিয়ালের চেয়ারম্যান এ কে আব্দুল মোমেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম এবং ডি-৮-এর সেক্রেটারি জেনারেল রাষ্ট্রদূত ইসিয়াকা আব্দুল কাদির ইমাম। এছাড়া, ৮ সদস্য দেশের পক্ষ থেকে ৪০ জনেরও অধিক প্রতিনিধি যোগ দেয়ার কথা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন