বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ২১ আশ্বিন ১৪২৯, ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরী

মহানগর

বসার জায়গা হলো না কোচ, অধিনায়কের! সমালোচনার ঝড়

রুহুল আমিন | প্রকাশের সময় : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৪:২৭ পিএম

ইতিহাস গড়ে দেশে ফেরা নারী ফুটবল দলকে নিয়ে উচ্ছ্বাসের শেষ নেই। তাদের বরণ করতে দুপুর থেকে বিমানবন্দর এলাকা ছিল মুখরিত। ছাদ খোলা বাসে বিমানবন্দর থেকে মতিঝিলের বাফুফে ভবন পর্যন্ত রাজসিক অভ্যর্থনা জানানো হয় নারী ফুটবল দলকে। কিন্তু বাফুফে ভবনে গিয়ে দেখা যায় ভিন্ন চিত্র।

হিমালয় জয় করে আনা শিরোপা যে ভবনে থাকবে, সে ভবনে ছিল না কোনো আলোকসজ্জা। ব্ড্ড বেরঙিন ভবনে আয়োজন করা হয় এক বিশাল সংবাদ সম্মেলন। কিন্তু ওই সংবাদ সম্মেলনে একটু বসার জায়গা হয়নি চ্যাম্পিয়ন টিমের সেনাপতি সাবিনা খাতুন ও চ্যাম্পিয়ন টিমের গুরু গোলাম রব্বানী ছোটনের।

সংবাদ সম্মেলনে বসেছিলেন বাফুফে সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন, বাফুফের সহ-সভাপতি ও ফিনান্স কমিটির চেয়ারম্যান আবদুস সালাম মুর্শেদী, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল। এদের পেছনে অন্যান্যদের সঙ্গে দাঁড়িয়েছিলেন সাবিনা ও ছোটন। দাঁড়িয়েই সংবাদ সম্মেলনে নিজেদের বক্তব্য রাখেন তারা।

এ ঘটনার পর সামাজিক মাধ্যমে শুরু হয়েছে সমালোচনা। নেটিজেনরা বলছেন, যাদের জন্য আজকের এই উৎসবের আয়োজন, যাদের জন্য এই আনন্দের উপলক্ষ্য, তারাই একটু বসতে পারলো না? এ কেমন আয়োজন বাফুফের।

কেউ কেউ আবার বলছেন, দীর্ঘদিনের দায়িত্বে যাদের সফলতার নজির নেই, তারা কেন আজ বসে? ওই চেয়ারে থাকবে শুধু ইতিহাস গড়ার কারিগররা।

এম এইচ পারভেজ নামে একজন বলেছেন, যোগ্যরা যে এই দেশে অবহেলিত, যোগ্যদের যে মূল্য নেই! তারই এ ছবি প্রমাণ।

মৌসুমী নামে একজন বলেছেন, এই দেশে যে যোগ্য তাকে চেয়ারে বসানো হয় না, এটা সব জায়গাই হয়।

মোহাসিন নামে একজন বলেছেন, এতটা বিবেকহীন আর নির্লজ্জ মানুষগুলো উচ্চ আসনে আছে বলেই আমাদের ক্রীড়াঙ্গন ধ্বংসের মুখে।

টুটুল নামে একজন বলেছেন, সামনের আসনে বসে থাকা সবগুলোকে সার্জারির মাধ্যমে নারীতে রুপান্তরিত করে দেওয়ার জোর দাবি জানাচ্ছি।

ফিরোজ নামে একজন বলেছেন, এই দেশে উদ্যেক্তার চেয়ে দালালের দাম বেশি। এ ছবি তারই প্রমাণ।

জাহিদ হাসান নামে একজন বলেছেন, এই দেশে যোগ্য লোকের জন্য কখনো কোনো চেয়ার বরাদ্দ হয়ে থাকে না। কারণ এই দেশে যোগ্য লোকের মূল্যায়ন হয় না।

আবিদ উল্লাহ নামে একজন বলেছেন, বাংলাদেশের সব চাইতে নিকৃষ্ট ও নির্লজ্জ দুটি বোর্ডের নাম হলো বাফুফে ও বিসিবি।

আনিছ নামে একজন বলেছেন, তাদের মতো কর্মকর্তাদের যে কি বলবো সে ভাষা খুজে পাচ্ছি না। মানুষ যে কত বড় বেহায়া বেশরম হতে পারে তা এদের না দেখলে বুঝা যাবে না।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন