ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯, ২৯ আশ্বিন ১৪২৬, ১৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

জয়ের নায়ক সেই ক্যাবেলেরোই

প্রকাশের সময় : ১ মার্চ, ২০১৬, ১২:০০ এএম

স্পোর্টস ডেস্ক : এফএ কাপে স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে চেলসির বিপক্ষে ৫-১ গোলে হারের পর কি গঞ্জনাই না সইতে হয়েছিল ৩৪ বছর বয়সী আর্জেন্টাইন গোলরক্ষক উইলি ক্যাবেলেরোকে। সপ্তাহান্তে সেই ক্যাবেলেরো বীরত্বেই এবার চতুর্থবারের মতো ক্যাপিটাল ওয়ান কাপ খ্যাত লিগ কাপের শিরোপা ঘরে তুলল ম্যানচেস্টার সিটি। লিভারপুল ফুটবলারদের তিন-তিনটি পেনাল্টি শট রুখে দিয়ে জয়ের নায়ক ক্যাবেলেরোই।
ওয়েম্বলিতে ১২০ মিনিটেও ফল বের করতে ব্যর্থ হয় দু’দলের খেলোয়াড়রা। প্রথমার্ধে গোলশূন্য ড্রয়ের পর দ্বিতীয়ার্ধে ফার্নান্দিনহোর গোলে এগিয়ে যায় সিটি। ব্যবধান বাড়ানোর একাধিক সুযোগও পেয়েছিল তারা কিন্তু তা কাজে লাগাতে তো পারেই নি, উল্টো শেষ দিকে মিগনোলেভের গোলে সমতায় ফেরে লিভারপুল। শেষ অবধি এই ফলই বজায় ছিল। এরপর ম্যাচের ভাগ্য নিষ্পত্তি হয় পেনাল্টি শ্যুট-আউটে। যেখানে লিভারপুলের লুকাস, ফিলিপ কোটিনহো ও অ্যাডাম লালনাকে রুখে দিয়ে ম্যাচের নায়ক বনে যান ক্যাবেলেরো। ‘অল রেড’ খ্যাত দলের হয়ে একমাত্র গোলটি করেন এমরে কান। আকাশি নীলদের হয়ে গোল করেন হেসুস নাভাস, সার্জিও আগুয়েরো ও ইয়াইয়া তোরে।
বোকা জুনিয়র্স ও মালাগা হয়ে ২০১৪ সালে সিটিতে যোগ দেন ক্যাবেলেরো। এরপর প্রিমিয়ার লিগে মাত্র ৪ ম্যাচে গোলবারের নিচে দেখা গেছে তাকে। পক্ষান্তরে মৌসুমে ২৬ ম্যাচের মধ্যে ২৪ ম্যাচেই গ্লাভস হাতে মাঠে নামেন জো হার্ট। কোচ ম্যানুয়েল পেল্লেগ্রিনি সেই হার্টকে না নামিয়ে মাঠে নামালেন ক্যাবেলেরোকে। এভাবেই নাকি ভেবে রেখেছিলেন দলের বিদায়ী কোচ। তার ব্যাখ্যাও দিলেন ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনেÑ ‘আমি বরং হার মেনে নেব কিন্তু কথার নড়চড় করব না। ফুটবলের চেয়ে আমার কথার গুরুত্ব বেশি।’ তবে নির্ধারিত সময়ে জয় না পাওয়ায় কিছুটা বিরক্ত পেল্লেগ্রিনিÑ ‘পেনাল্টির আগেই আমি জিততে চেয়েছিলাম, কিন্তু এভাবে জিতেও আমি খুশি। আর উইলিই হল এই জয়ের নায়ক।’ উইলি সম্পর্কে তিনি আরো বলেনÑ ‘চেলসির বিপক্ষে তরুণ দলের হয়ে সে পাঁচ গোল খেয়েছিল, তার পরেও আমি তার ওপর আস্থা হারায়নি। আমি জানতাম সে কতটা ভালো খেলোয়াড়।’ আর উইলি? কোচের আস্থার প্রতিদান দিতে পেরে খুশি তিনিওÑ ‘তিনটি পেনাল্টি শট ঠেকিয়ে চ্যাম্পিয়ন হওয়াটা সত্যিই অসাধারণ। কোচ আমার ওপর আস্থা রেখেছিলেন এবং আমি তার প্রতিদান দিতে পেরেছি।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন