ঢাকা সোমবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৩ আশ্বিন ১৪২৭, ১০ সফর ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

২৭ জানুয়ারি থেকে কোচিং বন্ধ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০২ এএম

এসএসসি, দাখিল ও সমমানের পরীক্ষার সময় কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি জানিয়েছেন পরীক্ষা শুরুর সাত দিন আগ থেকে শেষ পর্যন্ত দেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখা হবে। ফলে ২৭ জানুয়ারি থেকে ২৭ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দেশের সব কোচিং সেন্টার বন্ধ থাকবে। গতকাল (রোববার) এসএসসি, দাখিল ও সমমানের পরীক্ষা সামনে রেখে সচিবালয়ে জাতীয় মনিটরিং ও আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত কমিটির বৈঠক শেষে তিনি এ কথা বলেন।
সভায় শিক্ষামন্ত্রী পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে বিভিন্ন ধরনের পদক্ষেপ নেওয়ার কথাও তুলে ধরেন। তিনি বলেন, এবার অ্যালুমিনিয়াম ফয়েল কাগজে বাঁধিয়ে প্রশ্নপত্র পাঠানো হবে। এ ছাড়া আগের মতো পরীক্ষার্থীদের ৩০ মিনিট আগে কেন্দ্রে প্রবেশ করতে হবে। পরীক্ষা কেন্দ্রের আশপাশে জারি থাকবে ১৪৪ ধারা। তিনি বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁস নিয়ে গুজব রটনাকারী শনাক্ত হলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এবারও পরীক্ষার কেন্দ্রে কেউ মোবাইল নিতে পারবেন না। শুধু কেন্দ্রসচিব সাধারণ মানের (কেবল কথা বলা যায় এমন মোবাইল) একটি মোবাইল ফোন ব্যবহার করতে পারবেন।
সভায় জানানো হয়, পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে গুজবরটনার বিরুদ্ধে তীক্ষ্ন গোয়েন্দা নজরদারী শুরু হয়েছে। গত বছর সকল পরীক্ষা প্রশ্নফাঁসমুক্তভাবে সম্পন্ন হয়েছে। এবারেও সেই ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে। গুজব রটনা প্রতিরোধে বিটিআরসি ও তথ্য মন্ত্রণালয় কাজ করবে। বিভিন্ন গণমাধ্যমে সচেতনতামূলক কার্যক্রম চালানো হবে। শিক্ষামন্ত্রী এসময় কোথাও প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে কিনা সে বিষয়ে সন্ধান না করতে পরীক্ষার্থীদের ও এ বিষয়টিকে প্রশ্রয় না দেবার জন্য অভিভাবকদের প্রতি আহবান জানান।
এ বছর চার হাজার ৯৬৪টি কেন্দ্রে ২৫ লাখ ৭৩ হাজার ৮৫১ জন শিক্ষার্থী মাধ্যমিক পর্যায়ের চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেবে। আগামী ২ ফেব্রুয়ারি থেকে ২৫ ফেব্রুয়ারি হবে তত্ত্বীয় পরীক্ষা। আর ২৬ ফেব্রুয়ারি সংগীত বিষয়ের এবং ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে ১২ মার্চের মধ্যে অন্য বিষয়ের ব্যবহারিক পরীক্ষা হবে। এবারও বহু নির্বাচনী (এমসিকিউ) অংশের উত্তর আগে দিতে হবে। পরে নেওয়া হবে সৃজনশীল/রচনামূলক অংশের পরীক্ষা।
এসময় সভায় উপস্থিত ছিলেন শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব সোহরাব হোসাইন, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আলমগীর ছাড়াও জাতীয় মনিটরিং ও আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত কমিটির সদস্যরা সভায় উপস্থিত ছিলেন।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন