ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৭ ফাল্গুন ১৪২৬, ২৫ জামাদিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

বিনোদন প্রতিদিন

আসিফের প্রথম বই প্রকাশিত হচ্ছে একুশে বই মেলায়

বিনোদন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২০ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

আসছে একুশে বইমেলায় প্রথমবারের মতো প্রকাশিত হচ্ছে সঙ্গীতশিল্পী আসিফ আকবরের লেখা গ্রন্থ ‘পোটকরা টু ম্যানহাটান’। বই প্রকাশের কথা জানিয়ে ফেসবুকে আসিফ স্ট্যাটাস দিয়েছেন। বইটির প্রেক্ষাপট বর্ণনা করে তিনি লেখেন, লেখালেখি আমার কাজ নয়, আমি পড়তে ভালবাসি। সেটা যে কোনো বই। ছোটবেলা থেকেই লাইব্রেরী যাওয়া আসার চর্চা ছিল। আমার নিজের বড় লাইব্রেরী রয়েছে। আমাদের পরিবারে সবারই কমবেশি পড়াশোনার অভ্যাস আছে। বিশেষ করে আম্মার কাছ থেকেই আমাদের এই চর্চাটা শেখা। বইয়ের নামকরণ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আমাদের ছোট্ট গ্রামটির নাম পোটকরা। অনেক পশ্চাৎপদ এই গ্রাম থেকেই উঠে এসেছেন আমার বাবা। চরম প্রতিক‚লতা পেরিয়ে তিনি হয়েছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় গ্র্যাজুয়েট। উচ্চশিক্ষিত হওয়ার অদম্য আকাক্সক্ষা থেকেই সব বাঁধা মাড়িয়ে সফল হয়েছিলেন আব্বা। আমাদের পরিবার উনার পদাঙ্ক অনুসরণ করেই আজ সমাজে প্রতিষ্ঠিত। আমার শৈশব কৈশোরের দুরন্ত সময়গুলো কেটেছে পোটকরায়। কুমিল্লা শহরে পড়াশোনা এবং বেড়ে উঠলেও পোটকরার মাটির সোঁদা গন্ধ আজও আমার গায়ে মেখে আছে। আমি গায়ক আসিফ হয়ে নাম কামিয়েছি, আমার সাফল্যে উচ্ছ¡সিত আমাদের একান্নবর্তী পরিবার এবং গ্রামের মানুষ। পৃথিবীর বহু দেশ ভ্রমণের সৌভাগ্য হয়েছে এই গানের সুবাদে। আমেরিকার ম্যানহাটানে পৌঁছেই নীল আর্মস্ট্রংয়ের মত বিজয়ের পতাকা উড়িয়েছি মনে মনে, ভুলেও ভুলে যাইনি পোটকরা গ্রামটাকে। তিনি লিখেন, ফেসবুকে আসার মাধ্যমে আমার ফ্যানদের সাথে যোগাযোগের একটা রাস্তা হলো। আমি ভাবলাম অহেতুক ফুচকা চটপটির ছবি না দিয়ে কিছু লিখি। জানা অজানা মানুষের সাথে ভাবের আদানপ্রদান শুরু হলো এই যোগাযোগ মাধ্যমে। কেউ কেউ প্রস্তাব করলেন বই লিখতে, যে কথাটা আমলে নিলে আমার কোনোদিন লেখাই বের হতো না। মনে যা আসে তাই লিখি সহজ সাবলীল ভাষায় ছোট গল্পের মত করে। ঔপন্যাসিক সাদাত হোসাইনের উৎসাহে শেষ পর্যন্ত পোটকরা টু ম্যানহাটান আসছে ২০২০ এর বইমেলায়। বইটি বাজারে আনছে অন্যধারা প্রকাশনী।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন