ঢাকা, শনিবার, ০৮ আগস্ট ২০২০, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৭ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

ব্রডকে না দেখে অবাক হয়েছিলেন হোল্ডারও!

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ জুলাই, ২০২০, ১২:৪৬ এএম

ইংল্যান্ডের হয়ে ১৩৮টি টেস্ট ম্যাচে খেলেছেন। পেয়েছেন পাঁচশর কাছাকাছি উইকেট। আর ঘরের মাঠে বরাবরই দুর্দান্ত। সেই স্টুয়ার্ট ব্রডকে সাউদাম্পটন টেস্টে রাখেনি ইংলিশরা। আর তার অভাবটা খুব ভালোভাবেই টের পেয়েছে দলটি। তবে প্রতিপক্ষের অন্যতম সেরা বোলারকে একাদশে না দেখে বেশ অবাকই হয়েছিলেন ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক জেসন হোল্ডার।
তবে বোলিং বিভাগে খারাপ করেনি ইংলিশরা। ভুগেছে তাদের ব্যাটিং বিভাগ। জেমস অ্যান্ডারসন, জোফরা আর্চার, মার্ক উডরা বেশ কঠিন পরীক্ষাই নিয়েছেন ক্যারিবিয়ানদের। কিন্তু তার পরও ব্রডের অভাব রয়েই গেছে। হোল্ডারের ভাষায়, ‘ইংল্যান্ড স্টুয়ার্ট ব্রডকে একাদশে রাখেনি দেখেনি আমি কিছুটা অবাক হয়েছিলাম। তার রেকর্ড, বিশেষকরে তার দেশের মাটিতে দুর্দান্ত। আমি ভেবেছিলাম তারা জোফরা আর্চার বা মার্ক উডকে বাদ দিবে। তবে অবশ্যই তারা খুব উচ্চমান সম্পন্ন আক্রমণ চালিয়েছে।’
এর আগে সাবেক ইংলিশ অধিনায়কও ব্রডকে একাদশে না রাখায় তোপ দাগিয়েছিলেন। তার মতে, ব্রড একাদশে থাকলে টস জিতে বোলিংই বেছে নিতেন অধিনায়ক স্টোকস। তাতে ম্যাচের ফলাফলও হয়তো বদলাতো। তবে ক্যারিবিয়ান অধিনায়ক হোল্ডারও স্টোকসের সিদ্ধান্তে খুশী হয়েছিলেন, ‘আমার পছন্দ ছিল প্রথমে বোলিং করার তাই ইংল্যান্ড ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেওয়ায় আমার আপত্তি নেই। আমাদের বোলাররা খুব সুন্দর ফ্ল্যাট পিচে দারুণ বোলিং করেছে।’
সবমিলিয়ে সাউদাম্পটনে টেস্টটি জিতে নিয়েছে উইন্ডিজ। তবে বেশ রোমাঞ্চ উপহার দিয়েছে দুই দল। শেষদিনে ২০০ রানের লক্ষ্য তাড়া করে সফল হয় হোল্ডাররা। তবে চতুর্থ দিনেই জয়ের ভীতটা পেয়েছিলেন বলে মনে করেন উইন্ডিজ অধিনায়ক, ‘চতুর্থ দিনটি আমাদের জন্য মর্মস্পর্শী ছিল কারণ এক মাস আগে এখানে আসার পর থেকে আমাদের সমস্ত প্রচেষ্টার জন্য আমরা পুরষ্কার পেয়েছি। চতুর্থ দিনের বিকেলটাই ছিল ম্যাচ পরিবর্তনের মুলে কারণ চা বিরতির আগে আমরা পাঁচটি উইকেট নিয়েছিলাম। ফলে আমরা শেষ দিনে কাজ শেষ করতে পেরেছি।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন