ঢাকা বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৫ আশ্বিন ১৪২৭, ১২ সফর ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

এবার ভারতের বিহার সীমান্তের কাছে হেলিপ্যাড বানাচ্ছে নেপাল

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:১২ এএম

নেপাল নিজেদের সীমান্ত সরক্ষার জন্য হেলিপ্যাড নির্মাণ করার ঘোষণা দেয়ার পর ভারত হুশিয়ারি দিয়েছিল। কিন্ত সেই ধমকি আমলে না নিয়ে এবার হেলিপ্যাড নির্মাণ করছে। ভারত-নেপাল সম্পর্কের টানাপোড়েন চলছে দীর্ঘ কয়েক মাস যাবত। এরই মধ্যে ভারত সীমান্ত সংলগ্ন জমিতে হেলিপ্যাড বানাচ্ছে নেপাল। বিহারের পশ্চিম চম্পারান জেলার পাশাপাশি ইন্দো-নেপাল সীমান্তের কাছে অবস্থিত এক স্থানে হেলিপ্যাড নির্মাণের কাজ শুরু করে দিয়েছে নেপাল সরকার। ভারতীয় গণমাধ্যমে এ তথ্য দেয়া হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, সোমবার সরকারি সূত্রে জানা গেছে, নেপালের প্রস্তাবিত ওই হেলিপ্যাডটি জেলা সদর থেকে ৮০ কিলোমিটার দূরে। বিহারের পশ্চিম চম্পারান জেলার বাল্মিকি টাইগার রিজার্ভের (ভিটিআর) কাছে সশস্ত্র সীমাবলের (এসএসবি) থারি সীমান্তের ফাঁড়ি থেকে কিছুটা দূরে নরসাহি গ্রামে গড়ে তোলা হচ্ছে।

এই বিষয়ে নেপালের সশস্ত্র সীমাবলের ব্যাটালিয়ন কমান্ড্যান্ট রাজেন্দ্র ভরদ্বাজ বলেন, ইন্দো-নেপাল সীমান্তের নরসাহি গ্রামে একটি হেলিপ্যাড তৈরির কাজ চলছে। যাবতীয় কাজকর্মও শুরু করে দেওয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে বিষয়টি সদর দপ্তরকেও জানানো হয়েছে।

এদিকে, ভারত-নেপালের উত্তেজনার মধ্যে সে দেশের সরকারি কর্মকর্তারা পশ্চিম চম্পরান জেলার পাশাপাশি ইন্দো নেপাল সীমান্তে নরসাহি জেলা নিয়ে গন্ডক নদীর পরিবর্তিত পথকে দায়ি করেছেন। গন্ডক নদীর কেন্দ্রটি নেপাল এবং ভারতের মধ্যে সীমানাজুড়ে ছড়িয়ে রয়েছে। ১৯৭০ এর দশকের মধ্যে নদীটির গতিপথটি পরিবর্তনের সাথে সাথে নরসাহি নদীর বিপরীত প্রান্তে চলে এসেছিল এবং পরে সেখানে বসবাসরত ভারতীয় বাসিন্দারা ভারতীয় ভূখণ্ডের এই অংশে চলে এসেছিলেন।

নেপালে নদীটি সপ্ত, গন্ডাকীচ এবং নারায়ণি নামে পরিচিত। এটি নেপালের নুবাইন হিমল হিমবাহের মধ্যে উদ্ভূত এবং বিহারের বাল্মিকি টাইগার রিজার্ভের কাছে ভারতে আসার আগে হিমালয়জুড়ে প্রবাহিত হয়েছিল। পাটনার কাছাকাছি গঙ্গা পূর্ণ করতে গন্ডক নদী আরও ৩০০ কিলোমিটার প্রবাহিত হয়। করোনা আবহে সম্প্রতি নেপাল পার্লামেন্ট উত্তরাখণ্ডের লিপুলেখ, কালাপাণি এবং লিম্পিয়াধুরার মূল অঞ্চলগুলোর জন্য তাদের আঞ্চলিক কমান্ড দাবি করে একটি নতুন রাজনৈতিক মানচিত্রের অনুমতি দেয় ১৩ জুন। এছাড়াও নানা উত্তেজনার মধ্যোও এসএসবি স্বাধীনতা দিবসের প্রাক্কালে ভারত-নেপাল সীমান্তে টহলদাড়ি জোরদার শুরু করেছে।

সূত্র: কলকাতা২৪

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (7)
ইমরান ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৩৯ এএম says : 0
সত্যি নেপালের সাহসের প্রশংসা না করে পারছি না
Total Reply(0)
কাউসার ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৩৯ এএম says : 0
তবে নেপাল খুব সতর্ক থাকতে হবে
Total Reply(0)
কামরুল ইসলাম ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৪১ এএম says : 0
সম্প্রতিকালে নেপালের পদক্ষেপ গুলো দেখে মনে হচ্ছে সাহস ও ইচ্ছাশক্তি থাকলে যে কারো সাথে মাথা উঁচু করে কথা বলা যায়
Total Reply(0)
আবু হানিফ ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৪১ এএম says : 0
নেপালের কাছ থেকে আমাদের অনেক কিছু শেখার আছে
Total Reply(0)
তাজুল ইসলাম ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৪৩ এএম says : 0
নেপাল পারলে আমরা কেন পারছি না সেটাই আমার বুঝে আসেনা
Total Reply(0)
ফাইজুর রহমান ৪ আগস্ট, ২০২০, ১১:৪৪ এএম says : 0
আশাকরি নেপাল কে দেখে আমাদের দেশের কর্তাব্যক্তিরা অন্যায়ের প্রতিবাদ করার সাহস পাবেন
Total Reply(0)
Mukul Munshi ৫ আগস্ট, ২০২০, ১০:৫৬ পিএম says : 0
ভাল কাজ বুজে নাও।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন