সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ৩০ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

মহানগর

দেশের অগ্রগতি থামাতেই মন্দিরে কোরআন শরিফ রাখা হয়েছিল: তাজুল ইসলাম

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ অক্টোবর, ২০২১, ২:০৫ পিএম

স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেছেন, দাঙ্গা বাঁধানোর উদ্দেশ্যেই কুমিল্লার ঘটনা ঘটানো হয়েছিল।আজ রোববার (১৭ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে রাজধানীর ওসমানি স্মৃতি মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।

স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম বলেন, বিদেশের কাছে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন ও দেশের অগ্রগতি থামাতেই মন্দিরে পবিত্র কুরআন শরিফ রাখা হয়েছিল।

তাজুল ইসলাম বলেন, মন্দিরে পবিত্র কুরআন কীভাবে গেলো, কে নিয়ে গেলো? উদ্দেশ্য দাঙ্গা লাগানো। দাঙ্গা লাগাতে পারলে দেশের অগ্রগতি বন্ধ হয়ে যাবে, আর বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হবে।

অনুষ্ঠানে স্থানীয় সরকার বিভাগের সিনিয়র সচিব হেলালুদ্দিন আহমদ, বাংলাদেশে সুইজারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত নাথালি চুয়ার্ডসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিল।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
মোহাম্মদ দলিলুর রহমান ১৭ অক্টোবর, ২০২১, ৪:৩০ পিএম says : 0
ভাই অযথা পত্রিকার পাতা বরে লাভ নেই ,অগ্রগতি বলতে কিছুই হয় নাই ,বরং যে রিন করে পদ্মা মেঘনা যমুনা যত কি বলেন যেমন কর্ণফুলী টানেল পারমাণবিক বিদ্যুত কেন্দ্র রেল স্টেশন বলেন এই গুলির রিন একশত বসরেও শোধ করতে পারবে না,এই রিনের টাকা শোধ করতে করতে পদ্মা সেতু টানেল পারমাণবিক বিদ্যুত কেন্দ্র রেল স্টেশন এই গুলি ভেংগে যাবে,এই রিন গুলি নিয়ে আপনারা করে বসে আছেন,জনগণের লাভ হয় নাই ,বরং জনগণের বংশধর যারা পরবতীর্তে জন্ম গ্রহন করে এই দেশে আসবে তাদের মাথায় রিন নিয়ে একশত বসর আসতে হবে,এই গুলি আমাদের বলতে হবে না ,আমরা জনগন কি এতই বোকা যেটা বলবেন সেটা না জেনে না দেখে আপনাদের সাথে বলতে হবে ।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন