বুধবার, ১৮ মে ২০২২, ০৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

সারা বাংলার খবর

লঞ্চে অগ্নিকান্ডে নিহতদের স্মরণে বেতাগীতে বড়দিনের আয়োজন সংক্ষিপ্তকরণ

বরগুনা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৫ ডিসেম্বর, ২০২১, ১০:২৫ পিএম

ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে মর্মান্তিক লঞ্চ দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বরগুনার বেতাগীতে একমাত্র খৃষ্টান পাড়ায় বড়দিনের উৎসব সংক্ষিপ্ত করা হয়েছে। শোকের কালো ছায়া পড়ছে সেখানেও। ঢাকা-বেতাগী- বরগুনাগামী এমভি অভিযান-১০ নামে একটি লঞ্চে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে নিহতদের স্মরণে উৎসবের জৌলুস আনন্দ উৎসব সীমিত আকারে পালন করা হয়েছে।

জানা গেছে, খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উৎসব শুভ বড় দিন এবার বড়দিনে খ্রিস্টান পল্লীতে ব্যাপক আয়োজন থাকলেও ছিল না। শোকের আবহে প্রার্থনার মধ্যদিয়ে খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব - শুভ বড় দিন পালিত হয়। এ উপলক্ষে শনিবার সকাল ৮ টায় উপজেলার বিবিচিনি ইউনিয়নের দেশান্তরকাঠী খ্রিস্টান পল্লীতে গির্জায় বিশেষ প্রার্থনার মধ্যদিয়ে আয়োজন সম্পন্ন হয়।

বেতাগী থানার অফিসার ইনচার্জ মো: শাহআলম হাওলাদার জানান, বড় দিন উৎসব উদযাপনে নিরাপত্তার জন্য আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী বাড়তি ব্যবস্থা নিয়েছে।

সরেজমিনে দেখা গেছে, লঞ্চ দুর্ঘটনায় মৃত ও নিখোঁজ স্বজনদের পরিবারের আহাজারিতে এখনো এলাকার পরিবেশ ভারী রয়েছে। খ্রিস্টান পাড়ার বাসিন্দা নিপু গোমেজ জানিয়েছেন, প্রভূর যিশুর এই আগমনী দিনটিতে ঢাকা-বেতাগী- বরগুনাগামী এমভি অভিযান-১০ নামে লঞ্চে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে নিহতদের স্মরণ, আত্মার শান্তি ও দেশের কল্যাণ কামনায় উদযাপন করতে শনিবার ভোর থেকেই খ্রিস্টান পল্লীতে গির্জায় সমবেত হন ভক্তরা৷ পাশাপাশি যিশুর আশীর্বাদ ও করোনার ভয়াল থাবা থেকে বাঁচতেও এ বিশেষ প্রার্থনা করা হয়।

বেতাগী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: সুহৃদ সালেহীন বলেন, মর্মান্তিক লঞ্চ দুর্ঘটনার কারণে এবারে বড় দিনের উৎসবে জৌলুস না থাকলেও সুষ্ঠুভাবে বড় দিন পালিত হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন