বৃহস্পিতবার, ১৮ আগস্ট ২০২২, ০৩ ভাদ্র ১৪২৯, ১৯ মুহাররম ১৪৪৪

সারা বাংলার খবর

শিমুলিয়া-মাঝিরকান্দি নৌরুটে চলন্ত ফেরিতে আগুন

লৌহজং (মুন্সীগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১১ জুন, ২০২২, ১২:২১ পিএম

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার শিমুলিয়া ঘাট থেকে যাত্রী ও যানবাহন নিয়ে ছেড়ে যাওয়া একটি ফেরিতে আগুন লেগেছে।
আজ শনিবার (১১ জুন) সকাল পৌনে ৫টার দিকে মাঝিরকান্দি নৌ-চ্যানেলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
এতে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। দুর্ঘটনা কবলিত ফেরিটির নাম বেগম রোকেয়া।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, মুন্সীগঞ্জের শিমুলিয়া ঘাট থেকে যানবাহন নিয়ে ছেড়ে যাওয়া ফেরিটি শরীয়তপুরের মাঝিরকান্দি চ্যানেলে প্রবেশ করতেই আগুনের লেলিহান শিখা দেখতে পায়।
এ ব্যাপারে ফেরির মাস্টার বলেন, ক্যান্টিনের পাশে কেবিনের ওপরের সিটে আগুন লাগে।
ফেরির ওই কেবিনটির বিছানা, সিলিং, দরজা ও কেবিনের বাইরের সিলিং ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ঘটনার সময় কেবিনে কেউ ছিল না। দরজা খুলতেই আগুন বাইরের দিকে চলে আসে।
বাংলাদেশ অভ্যন্তরীন নৌপরিবহন বিআইডব্লিউটিসির শিমুলিয়া ঘাটের ব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) ফয়সাল আহমেদ জানান, যাত্রী ও যানবাহন নিয়ে ফেরি রোকেয়া শিমুলিয়া ঘাট থেকে মাঝিরকান্দি যাচ্ছিল।
মাঝিরকান্দি চ্যানেলে প্রবেশের পর ফেরির একটি কক্ষে আগুন লেগে যায়। সে সময় ফেরিতে থাকা যাত্রীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে ফেরির পাম্পের পানি দিয়ে আগুন নেভানো হয়েছে। যাত্রীরা অক্ষত আছেন। ফেরির ওই কক্ষের বিছানা, আসবাবপত্র পুড়ে যায়।
শিমুলিয়া ঘাটের বিআইডব্লিউটিসির উপমহাব্যবস্থাপক (এজিএম) শফিকুল ইসলাম বলেন, ভোর পৌনে ৫টার দিকে ফেরি রোকেয়া ৩৫-৪০টি গাড়ি ও তার যাত্রী, চালকদের নিয়ে শরীয়তপুরের মাঝিরকান্দি ঘাটের দিকে রওনা দেয়।
ফেরিটি ৫টার দিকে বড় নদী থেকে মাঝিরকান্দি চ্যানেলে পৌঁছালে ক্যানটিনের পাশের একটি তালাবদ্ধ কক্ষ থেকে আগুন ও ধোয়া বের হতে থাকে। পরে ফেরিতে থাকা পাম্প ও আগুন নেভানোর যন্ত্রের সাহায্যে আগুন নিয়ন্ত্রণ করা হয়।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন